লাল কাঁকড়া আর নির্জনতা! এই সমুদ্র সৈকতে এলে ভুলে যাবেন দীঘা-পুরীর কথা

বাংলা হান্ট ডেস্ক : শীতে (Winter) ঘুরতে যাবেন না এমন বাঙালির দেখা পাওয়া মুশকিলই বটে। সুযোগ পেলেই বেড়াতে যেতে পছন্দ করেন বাঙালি। লম্বা ছুটি না পেলেও দুদিনের ছুটিতেও ঘুরতে যেতে ছাড়েন না। শুধু ঘুরতে যাবো বললেই তো আর হয় না। পকেটের কথাটাও তো চিন্তা করতে হবে। তবে আর সে চিন্তা না করলেও চলবে। এখানে আপনারা চাইলে দু-দিনের ছুটি কিংবা একদিনের ডে-ট্রিপের (Day Trip) জন্যও আসতে পারবেন। কোন জায়গা? চলুন দেখেনি।

   

এবারে আর দীঘা (Digha), মন্দারমণি (Mondarmoni) না এগুলো ছাড়াও রয়েছে একটি সুন্দর নিরিবিলি সমুদ্র সৈকত। সেখানে যদি ঘুরতে যেতে ইচ্ছুক হন আপনারা তাহলে, খুব সহজেই সেখানে পৌঁছতে পারবেন। এই সমুদ্র সৈকতটির নাম হল লালগঞ্জ (Lalganj)। এখান অবধি পৌঁছবেন কীভাবে? প্রথমে শিয়ালদহ স্টেশন (Sealdah Station) থেকে ২৫ টাকার টিকিট কেটে ট্রেনে করে নামখানা (Namkhana) পৌঁছবেন। তারপর সেখান থেকে শেয়ারে বা রিসার্ভ করে পৌঁছে যান লালগঞ্জ ক্যাম্পে (Lalganj Camp)।

এই লালগঞ্জে যদি আপনারা এক দুদিন থাকতে চান, তার সুবিধাও রয়েছে। এখানে থাকার জন্য বিচ ক্যাম্পের ব্যবস্থাও রয়েছে। এগুলিতে প্রায় খরচ পড়বে মাথাপিছু ১২০০ থেকে ১৫০০ টাকার মতো। আপনি চাইলেই এখানে থাকতে পারবেন। এখানে ক্যাম্পগুলিতে একজন, দুজন বা দুইয়ের বেশিও থাকতে পারেন। এই ক্যাম্প থেকে সমুদ্রের দূরত্ব মাত্র ২০০ মিটার।

samudra

এখানে আপনি সাদা বালি, সমুদ্র সৈকত, লাল কাঁকড়াও দেখতে পাবেন। যা দেখলে হয়তো এই ব্যস্ত জীবনে একটু হলেও আনন্দ ভরে উঠবে। এখানে ক্যাম্পগুলিতে আপনারা নানা ধরণের খাবারের সুযোগ সুবিধাও পাবেন। চা থেকে শুরু করে কফি, মুড়ি, পকোড়া ইত্যাদি আপনার সন্ধেটাকে জমিয়ে তুলবে। তাছাড়া ক্যাম্পগুলিতে বারবিকিউয়েরও ব্যবস্থা রয়েছে। আপনি চাইলেই সেই সুযোগ উঠাতে পারবেন।

সম্পর্কিত খবর