fbpx
টাইমলাইনভারত

লাদাখে চীনের সেনা ছাউনি ভেসে গেলো বন্যায়, প্রকৃতির মারে পিছু হটতে বাধ্য লাল ফৌজ

বাংলা হান্ট ডেস্কঃ পূর্ব লাদাখে (Ladakh) ভারত আর চীনের মধ্যে উত্তেজনার (India China Standoff) পারদ চরে আছে। অনেকেই দাবি করেছিল যে, চীনের সেনা কয়েক কিমি ভিতরে ঢুকে এসেছিল। যদিও ভারতের তরফ থেকে এরকম দাবি নস্যাৎ করে দেওয়া হয়েছে। আর ভারতীয় সেনাও চীনের লাল ফৌজকে মোক্ষম জবাব দেওয়ার জন্য সম্পূর্ণ ভাবে প্রস্তুত। আর এরমধ্যে খবর আসছে যে, চীনের সেনা পিছু হটছে। আর এই পিছু হটার কারণ হল, যেই গালওয়ান নদীর (Galwan River) তীরে চীনের সেনা তাবু টানিয়ে বসেছে, সেখানে বন্যার পরিস্থিতি সৃষ্টি হয়েছে।

ইংরেজি সংবাদমাধ্যম হিন্দুস্তান টাইমস অনুযায়ী, গালওয়ান নদীর তীরে চীনের সেনার সমস্যা বাড়তে চলেছে। চীনের সেনা গালওয়ান নদীর তীরে আছে, আর নদীর জল দিনদিন বেড়েই চলেছে। সেনার এক বরিষ্ঠ আধিকারিক সাংবাদিককে জানান, এই সময় এলাকার তাপমাত্রা বেড়ে যায়, আর সেই কারণে আশেপাশের বরফ গলে নদীতে এসে পড়ে আর জলের স্তর বেড়ে যায়। উনি এই দাবি করেন যে, স্যটেলাইট আর ড্রোন থেকে নেওয়া ছবিতে এটা স্পষ্ট বোঝা যাচ্ছে যে, চীনের সেনা যেখানে তাবু গেঁড়ে বসেছিল, সেখানে এখন জল ঢুকে গেছে।

গালওয়ান নদী আকসাই চীন থেকে প্রভাবিত হয়। আর ওই এলাকা সবসময় বরফে ঢাকা থাকে। চীনের সেনা এই গালওয়ান নদীর তীরেই ঘাঁটি গেঁড়ে বসেছে। দুই পক্ষের কথাবার্তা হওয়ার পরেও চীনের সেনা সেখান থেকে পিছু হটেনি। তবে এবার প্রকৃতির মারে সেখান থেকে পিছু হটতে বাধ্য হচ্ছে। আপনাদের জানিয়ে দিই, এই গালওয়ান নদীর উপরে ভারত সামরিক দিকে গুরুত্বপূর্ণ একটি ব্রিজ তৈরি করেছিল। আর তারপর থেকেই চীন আর ভারতের মধ্যে বিবাদের সৃষ্টি হয়েছে।

 

Back to top button
Close