মহাকাশ গবেষণায় ফের নতুন সাফল্য ভারতের। গৌরবের পালক জুড়ল ISRO’র মুকুটে

বাংলাহান্ট ডেস্ক : চাঁদের মাটিতে পা রাখার পর বিশ্বের মহাকাশ গবেষণায় নতুন জায়গা করে নিয়েছে ভারতীয় মহাকাশ সংস্থা ইসরো (Indian Space Research Organisation)। মহাকাশ গবেষণার ক্ষেত্রে গোটা বিশ্বই এখন কুর্নিশ জানাচ্ছে ভারতকে। চাঁদের পাশাপাশি, সূর্যের উদ্দেশ্যে ভারতের পাঠানো ‘আদিত্য’ ভারতীয় মহাকাশ গবেষণার ক্ষেত্রে এনেছে নতুন জোয়ার।

এই আবহে ফের একবার ইসরোর মুকুটে নয়া পালক। রবিবার সেই তথ্যই সামনে এল। ভারতীয় মহাকাশ সংস্থা বিভিন্ন পরীক্ষা-নিরীক্ষা চালাচ্ছিল মহাকাশের জন্য পুনর্ব্যবহারযোগ্য বা রিইউজেবল লঞ্চ ভেহিকল (Reusable Launch Vehicles) পুষ্পক-এর অবতরণের বিষয়টি নিয়ে। এর আগে সফলভাবে দুটি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়েছিল পুষ্পক।

   

আরোও পড়ুন : দিঘা-পুরীর ট্রেনের টিকিট কাটা? মাথায় রাখুন, এই কদিন চলবে না বহু ট্রেন, লিস্ট দেখুন রেলের

রবিবার ছিল আরো একটি কঠিন পরীক্ষা। রবিবার পরীক্ষা করে দেখা হচ্ছিল হাওয়ার কঠিন বেগের মধ্যে পুষ্পক অবতরণ করতে সক্ষম কিনা? রবিবার বিজ্ঞানীদের পরিকল্পনা মতই পুষ্পক সকাল ৭টা ১০ মিনিটে কর্ণাটকের চিত্রদুর্গ-এ অ্যারোনটিক্যাল টেস্ট রেঞ্জে সফলভাবে অবতরণ করে। ভারতীয় বায়ুসেনার হেলিকপ্টার চিনুক এর আগে আকাশে উড়েছিল পুষ্পককে নিয়ে।

ISRO sets a new precedent with "Pushpak".

 মাটি থেকে প্রায় সাড়ে চার কিলোমিটার উঁচুতে নিয়ে গিয়ে ছেড়ে দেওয়া হয়। সফলভাবে দুটি পরীক্ষাতে উত্তীর্ণ হয় পুষ্পক। তৃতীয় বা গতকালের পরীক্ষাটি ছিল অত্যন্ত কঠিন। এই পরীক্ষায় সফলভাবে উত্তীর্ণ হয়েছে পুষ্পক। এই উত্তীর্ণ হওয়ার খবর ভারতীয় মহাকাশ গবেষণা সংস্থা ইসরো জানিয়েছে সবাইকে। গতকালের এই সফল পরীক্ষার ফলে ভারতের মহাকাশ গবেষণা সংস্থা নিঃসন্দেহে আরো একটি সফলতা অর্জন করল।

Avatar
Soumita

আমি সৌমিতা। বিগত ৩ বছর ধরে কর্মরত ডিজিটাল সংবাদমাধ্যমে। রাজনীতি থেকে শুরু করে ভ্রমণ, ভাইরাল তথ্য থেকে শুরু করে বিনোদন, পাঠকের কাছে নির্ভুল খবর পৌঁছে দেওয়াই আমার একমাত্র লক্ষ্য।

সম্পর্কিত খবর