টাইমলাইনবিজ্ঞানভারত

বছরের প্রথম মিশনে সফল ISRO, দুটি উপগ্রহ নিয়ে EOS-04 এগিয়ে চলেছে মহাকাশের দিকে

বাংলা হান্ট ডেস্ক: ২৫.৩০ ঘন্টার দীর্ঘ কাউন্টডাউনের পর সোমবার ভারতীয় মহাকাশ গবেষণা সংস্থা ISRO চলতি বছরের প্রথম মিশনের সফল ভাবে উৎক্ষেপণ করেছে। এদিন, ভোর ৫টা ৫৯ মিনিটে ISRO স্যাটেলাইট EOS-04-এর উৎক্ষেপণ করে। অন্ধ্রপ্রদেশের শ্রীহরিকোটার সতীশ ধাওয়ান মহাকাশ কেন্দ্র থেকে PSLV-C52 দ্বারা এই উৎক্ষেপণটি সম্পন্ন হয়েছে।

এর সঙ্গে আরও দুটি ছোট স্যাটেলাইটও মহাকাশে পাঠানো হয়েছে। এই মিশনের সফল উৎক্ষেপণের পরই সবাই করতালির মাধ্যমে স্বাগত জানান একে অপরকে।এই মিশনের আওতায় মহাকাশে পাঠানো হয়েছে রাডার ইমেজিং EOS-04। ১,৭১০ কেজি ওজনের, EOS-04 একটি সূর্য-সিঙ্ক্রোনাস ধ্রুবীয় কক্ষপথে মহাকাশে ৫২৯ কিলোমিটার প্রদক্ষিণ করবে।

এই প্রসঙ্গে ISRO জানিয়েছে যে, EOS-04 একটি রাডার ইমেজিং স্যাটেলাইট। এটি পৃথিবীর উচ্চমানের ছবি তুলতে ব্যবহার করা হবে। পাশাপাশি এর সাহায্যে কৃষি, বনাঞ্চল, বৃক্ষরোপণ, মাটির আর্দ্রতা, জলের প্রাচুর্যতা এবং বন্যাপ্রবণ এলাকার মানচিত্র তৈরি করতেও সুবিধা হবে। এর বাইরে আরও দুটি স্যাটেলাইটও মহাকাশে পাঠানো হয়েছে।

জানা গিয়েছে যে, এটি PSLV-এর ৫৪ তম ফ্লাইট। পাশাপাশি, ৬ PSOS-XL (স্ট্র্যাপ-অন মোটর) সহ PSLV-XL কনফিগারেশন ব্যবহার করে ২৩ তম মিশন হল এটি। ISRO জানিয়েছে যে, ভারতের পোলার স্যাটেলাইট লঞ্চ ভেহিকেল PSLV-C52 আজ সতীশ ধাওয়ান মহাকাশ কেন্দ্র, শ্রীহরিকোটা থেকে ৬.১৭ মিনিটে ৫২৯ কিমি উচ্চতায় সূর্য-সিঙ্ক্রোনাস ধ্রুবীয় কক্ষপথে আর্থ অবজারভেশন স্যাটেলাইট EOS-04-এর প্রবেশ ঘটিয়েছে।

পাশাপাশি, যে দু’টি স্যাটেলাইট পাঠানো হয়েছে সেগুলির নাম হল: INSPIRE sat1 এবং INS-2TD। এর মধ্যে INSPIRE sat1 স্যাটেলাইটটি তৈরি করেছে ইন্ডিয়ান ইনস্টিটিউট অফ স্পেস সায়েন্স অ্যান্ড টেকনোলজির (IIST) ছাত্রছাত্রীরা। পাশাপাশি, এটি তৈরি করতে সহযোগিতা করেছে কলোরাডো বিশ্ববিদ্যালয়ের ল্যাবরেটরি অফ অ্যাটমোস্ফিয়ারিক এন্ড স্পেস ফিজিক্সও।

এছাড়াও, INS-2TD হল ISRO-এর দ্বিতীয় উপগ্রহ যা একইসাথে উৎক্ষেপণ করা হয়। ভারত ও ভুটানের যৌথ স্যাটেলাইট INS-2V-র আগে এটি তৈরি করে পাঠানো হয়েছে।

Related Articles

Back to top button