টাইমলাইনপশ্চিমবঙ্গবিনোদনভারতরাজনীতি

‘রক্তখেকো রাক্ষসী’, শক্তি দিয়ে আমাকে চুপ করাতে চাইছেন- মমতাকে আক্রমণ কঙ্গনার

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ এবার সরাসরি বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জিকে (Mamata Banerjee) ‘রাক্ষসী’ বলে আক্রমণ করলেন বলি অভিনেত্রী কঙ্গনা রানাওয়াত (Kangana Ranaut)। স্যোশাল মিডিয়া ট্যুইটার তাঁকে থামিয়ে দিলেও, ইনস্টাগ্রামকে হাতিয়ার করে এগিয়েই বিতর্কিত মন্তব্যে জড়ালেন কঙ্গনা রানাওয়াত।

বাংলায় তৃণমূল সরকার আবারও ক্ষমতায় ফেরার পর থেকেই নানাভাবে রাজ্য সরকারকে আক্রমণ করেছেন এই বলি অভিনেত্রী। এমনকি তাঁর করা পোস্ট হিংসার জন্ম দিচ্ছে- এমনটা অভিযোগ করে ট্যুইটার কর্তৃপক্ষ তাঁর ট্যুইটার অ্যাকাউন্ট সাসপেন্ডও করে দেয়। কিন্তু তাতেও দমেনি এই সাহসী অভিনেত্রী, ইনস্টাগ্রামকে হাতিয়ার করেই এবার এগিয়ে যাচ্ছেন, আক্রমণ করলেন মমতা ব্যানার্জিকে।

তৃণমূলের একাংশের দাবি, জাতীয় পুরস্কারপ্রাপ্ত একজন অভিনেত্রী এই ধরণের আচরণ একদমই অপ্রত্যাশিত। কিন্তু অন্যদিকে কঙ্গনার অভিযোগ, বাংলায় ভোট পরবর্তী যে হিংসার আগুন জ্বলে উঠেছে, তাতে আক্রান্ত হচ্ছেন তৃণমূল বিরোধী দলের কর্মীরা। গণহত্যা করা হচ্ছে হিন্দুদের, হামলা চালানো হচ্ছে তাঁদের বাড়িতেও। এইসবের জন্য সরাসরি মমতা ব্যানার্জিকেই দায়ী করেছেন অভিনেত্রী কঙ্গনা রানাওয়াত।

সাম্প্রদায়িক বিভেদ সৃষ্টির অভিযোগে গত বৃহস্পতিবার বিধাননগর থানায় কঙ্গনার বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের করেন তৃণমূলের মুখপাত্র ঋজু দত্ত। শুক্রবার নিজের ইনস্টা স্টোরিতে সেই এফআইআরের ছবি এবং সেইসঙ্গে হিংসার কিছু ছবিও আপলোড করেন তিনি। পাশাপাশি বিজেপি রাজ্যসভার সাংসদ রূপা গাঙ্গুলি ও বিজেপির নব নির্বাচিত বিধায়ক অগ্নিমিত্রা পালকে আটক করার বিরুদ্ধেও গর্জে ওঠেন।

শুধুমাত্র তৃণমূলকে আক্রমণ করেই ক্ষান্ত থাকেননি এই বলি অভিনেত্রী। ট্যুইটার অ্যাকাউন্ট সাসপেন্ড করে দেওয়ার পর নিজের ইনস্টাগ্রাম থেকেই মমতা ব্যানার্জির বিকৃত ছবি পোস্ট করেই আক্রমণ করে চলেছেন এই অভিনেত্রী। সেইসঙ্গে করেন এক বিতর্কিত পোস্ট। সেখানে লেখেন- ‘রক্তখেকো রাক্ষসী মমতা, নিজের শক্তি দিয়ে আমায় চুপ করাতে চাইছেন’।

Related Articles

Back to top button