টাইমলাইনভারত

প্রশিক্ষণ ছাড়াই মৃত গর্ভবতী বিড়ালের সার্জারি করলেন, ৪ ছানাকে বাঁচালেন কেরালার শ্রমিক

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ কোনরকম চিকিৎসা প্রশিক্ষণ ছাড়াই এক মৃত বিড়ালের পেট কেটে ৪ সন্তানকে বাঁচালেন কেরালার (kerala) এক শ্রমিক। পশুচিকিতসা সম্পর্কে কোনরকম জ্ঞান ছিল না তাঁর। কিন্তু মানবিকতা এবং হৃদ্দতা দিয়ে মৃত বিড়ালের পেট কেটে ‘সিজারিয়ান’ করে ৪ টে বিড়ালছানাকে বাঁচিয়ে সকলকে অবাক করে দিলেন তিনি।

ঘটনাটি কেরালার কুন্ডাগালুরের আঁচামপাড়াথির রাস্তায় ঘটে। শুক্রবার রাতে শ্রমিক হরিদাস বাইকে করে কাজ থেকে বাড়িতে ফিরছিলেন। এমন সময় তিনি দেখলেন একটি দ্রুতগতি সম্পন্ন গাড়ির ধাক্কায় রাস্তাপার করতে আসা একটি বিড়াল ছিটকে রাস্তার অপর প্রান্তে গিয়ে পড়ল।

এই মর্মান্তিক দৃশ্য দেখে তাঁর হৃদয় কেঁপে উঠল। সঙ্গে সঙ্গে রাস্তার পাশে নিজের গাড়ি থামিয়ে বিড়ালটাকে উদ্ধার করতে গেলেন হরিদাস। গিয়ে দেখলেন বিড়ালটি ততক্ষণে ইহজগতের মায়া ত্যাগ করে ফেলেছে। কিন্তু হরিদাস লক্ষ্য করলেন বিড়ালটি সন্তান সম্ভবা ছিল।

তখন চিন্তায় পড়ে গেলেন হরিদাস। মাথা ঠাণ্ডা করে উপায় ভেবে পাশের দোকান থেকে একটি ব্লেড কিনে বিড়ালটিকে নিয়ে নিজের বাড়িতে গেলেন। কোনরকম চিকিৎসা প্রশিক্ষণ ছাড়াই বাড়িতে গিয়ে তিনি মৃত বিড়ালের পেট কেটে ‘সিজারিয়ান’ করলেন। ৪ টি ফুটফুটে বিড়াল ছানার প্রাণ বাঁচালেন তিনি। কোনরকম প্রশিক্ষণ ছাড়াই এই কাজ করে তিনি তাক লাগিয়ে দিলেন। এখন বিড়াল ছানাগুলো তাঁর সঙ্গেই রয়েছে।

বিড়াল ছানাদের বড় করার দায়িত্ব নিয়ে তাদের সেবা যত্নও করছেন হরিদাস। সদ্য বিড়ালছানাদের দুধ খেতে যাতে কোন সমস্যা না হয়, সে জন্য তিনি তুলো ভিজিয়ে দুধও খাওয়াচ্ছেন।

Back to top button