‘কিছু অযৌক্তিক কথা তৈরি রাখুন, আর গোমূত্র পান করুন”, বিজেপিকে পরামর্শ মহুয়ার

   

বাংলাহান্ট ডেস্ক : আবারও সাহসী ট্যুইটের জেরে বিতর্কে তৃণমূল নেত্রী মহুয়া মৈত্র। এদিন লোকসভায় রাষ্ট্রপতির ভাষণের উপর ধন্যবাদজ্ঞাপক অনুষ্ঠানে অংশ নেওয়ার কথা তাঁর। আর সেখানেই যে মোদী সরকারের বিরুদ্ধে কড়া জবাব দেবেন, তা আগেই ট্যুইট করে ইঙ্গিতই দেন তিনি। এমনকি বিজেপি নেতাদের গোমূত্র পান করার পরামর্শ দিয়ে কটাক্ষও করেছেন তিনি।

গতকালই রাহুল গান্ধীর বক্তব্যকে ঘিরে বিতর্কের সৃষ্টি হয়েছিল লোকসভায়। এরপর কি তবে মহুয়া মৈত্রের পালা? এমনটাই জল্পনা জোরদার হয়েছে তাঁর স্যোশাল মিডিয়া পোস্টকে কেন্দ্র করে। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যেয় লোকসভায় বক্তব্য রাখার কথা তাঁর। তার আগেই কৃষ্ণনগরের সাংসদ ট্যুইট করে লেখেন, ‘ আজ সন্ধ্যেয় লোকসভায় রাষ্ট্রপতির ভাষণে বক্তব্য রাখছি। তাই আগে থেকেই বিজেপিকে সতর্ক করে দিতে চাই, তারা যেন তাদের হল্লা পার্টি এবং অযৌক্তিক যুক্তি সাজিয়ে তৈরি থাকে। চাইলে তারা গোমূত্রও পান করে আসতে পারে।’

তাঁর এহেন বক্তৃব্যের পর তিনি যে আজ নরেন্দ্র মোদীর বিরুদ্ধে গলা চড়াতে চলেছেন তা একপ্রকার স্পষ্টই। জানা যাচ্ছে এই অনুষ্ঠানে তৃণমূল নেতা সৌগত রায়ও থাকছেন তাঁর সঙ্গেই। লোকসভায় বিজেপিকে একহাত নিতে রীতিমতো ঘুঁটি সাজিয়েছেন তাঁরা।

প্রসঙ্গত, গতকাল রাহুল গান্ধীর বক্তব্যের পর থেকেই সরগরম জাতীয় রাজনীতি। কালই নরেন্দ্র মোদীকে একহাত নিয়েছেন রাহুল। তাঁর অভিযোগ পাকিস্তান এবং চিনকে একজোট হতে সাহায্য করছেন নরেন্দ্র মোদী। রাহুল গান্ধীর অভিযোগ, ‘বর্তমানে হুমকির মুখে দাঁড়িয়ে রয়েছে ভারত। ভারতের উচিত ছিল কৌশলে পাকিস্তান এবং চিনের বিবাদ জিইয়ে রাখা। কিন্তু আপনারা যা করেছেন তাতে দুই দেশ এককাট্টা হয়ে গিয়েছে। যা ভারতের জন্য অত্যন্ত বিপজ্জনক।’ ৩৭০ ধারার প্রসঙ্গ টেনে তিনি বলেন, ‘জম্মু ও কাশ্মীর নিয়ে কেন্দ্র যা করেছে তা বিশাল ভুল’। তিনি আরও বলেন , ‘আজকে ভারত সম্পুর্ন ভাবে একা এবং চারিদিক থেকে ঘেরা। শ্রীলঙ্কা, নেপাল, বর্মা, পাকিস্তান, আফগানিস্তান চারিদিক থেকে ঘিরে রেখেছে আমাদের। আমাদের বিরোধীরা আমাদের এই অবস্থানেরই ফায়দা ওঠাবে’।

অবশ্য তাঁর এই অভিযোগের সপাটে উত্তর দিয়েছেন কেন্দ্রীয় বিদেশমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর। তিনি একটি ট্যুইট করে বলেছেন, ‘রাহুল গান্ধী মনে হয় ইতিহাস জানেন না, তাই তাঁর খানিকটা ইতিহাস পড়া উচিত।’ গতকালের পর আজও যে আবার মহুয়া মৈত্রের সৌজন্যে সরগরম হতে চলেছে লোকসভা তা বলাই বাহুল্য।

Avatar
Katha Bhattacharyya

সম্পর্কিত খবর