টাইমলাইনপশ্চিমবঙ্গরাজনীতি

বাঙালির পুজো নিয়ে বিজেপিকে কটাক্ষ করলেন মমতা

বাংলা হান্ট ডেস্ক: বাঙালির প্রিয় প্রিয় উৎসব দুর্গাপূজো, সরস্বতী পুজো করতে দিচ্ছে না তারা! গঙ্গাতীরে হতে দিচ্ছেনা ছট পুজো! পোস্তাবাজারের জগদ্ধাত্রী পূজার উদ্বোধনে গিয়ে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এমনই তোপ দাগলেন বিজেপির বিরুদ্ধে।

মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের গায়ে লোকসভা ভোটের আগে ‘হিন্দুবিরোধী’ তকমা সেঁটে দিতে অনেক চেষ্টা করেছিল বিজেপি। দিলীপ ঘোষ, রাহুল সিনহা তো বটেই, এমনকি নরেন্দ্র মোদী, অমিত শাহরা দাবি করেছেন, মহরমের কারণে এরাজ্যে দুর্গাপুজোর বিসর্জন আটকে দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। সরস্বতী পুজো করতে দিচ্ছেননা তিনি স্কুলে। সেই একই অভিযোগ নিয়ে এবার বিজেপিকে নিশানা করলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এদিন তিনি বললেন, গঙ্গায় দুর্গাপুজো, সরস্বতী প্রতিমার বিসর্জন ও ছটপুজোয় বিধিনিষেধ চাপানো হয়েছে। ‘এভাবে চললে মানুষ বাঁচবে কি করে’ বলে প্রশ্নও করেন তিনি।

এদিন পোস্তায় মমতা বলেন, কেন্দ্রের নির্দেশ গঙ্গাবক্ষে কোনরকম ছট পুজো বা দূর্গা প্রতিমা ,সরস্বতী প্রতিমা বিসর্জন করা যাবে না ।আরও বলেন,”পাঁচশো ঘাট তৈরি করে দিয়েছি। ঠাকুর বিসর্জন হয় সেখানে। পরিষ্কার করে দিই। কত সাফ করেছেন বেনারসে? আরবিআই, কেন্দ্রে টাকা থাকা সত্ত্বেও কেন গঙ্গা পরিষ্কার করলেন না? কাঠামো উঠিয়ে ফেলে দিই আমরা। ছট পুজোয় কিছু পড়লে সাফ করে দেব। গঙ্গা মায়ের পুজোয় লোকে কোথায় যাবে? সব বন্ধ হয়ে যাবে! ”

ক কিন্তু পরিবেশ আদালতের নির্দেশের কি হবে !এর ব্যাখ্যায় মুখ্যমন্ত্রী বলেন “আদালতের রায়কে সম্মান করি। সরকারের তো বলা উচিত, এটা কোটি কোটি লোকের ব্যাপার। ১০-১৫ কোটি লোক ছট পুজো করে। ১৫ কোটি মানুষ দুর্গাপুজো করেন। আমরা পুজো করব না? বিসর্জন হবে না? কোথায় যাব আমরা? এসব বললে অনেক কথা হয়ে যাবে। আমার কাছে নির্দেশিকা আসেই। পর্যালোচনা করতে বলি তখন। না হলে আদালতের রায় মেনে নিই। রবীন্দ্র সরোবর কত নির্দেশিকা এসেছে। আমি কোর্টের নির্দেশ মানি। কিন্তু ১০ লক্ষ লোক গেলে কি গুলি চালিয়ে যাবে? বিজেপি আমায় গ্রেফতার করো। কিন্তু গুলি চালাতে পারব না।”

যদিও মুখ্যমন্ত্রীর এই নিশানার পরেও বিজেপিকে এখনও অব্দি কোন রকম মন্তব্য করতে শোনা যায়নি

Back to top button