পেট্রল-ডিজেলের দাম কমল পাকিস্তানে, তবে সবার জন্য নয়! আজব সিদ্ধান্ত শেহবাজ সরকারের

বাংলাহান্ট ডেস্ক: পাকিস্তানের অর্থনৈতিক দুরবস্থা দিন দিন আরও খারাপ হচ্ছে। খাদ্য থেকে জ্বালানি, সব কিছুর দাম আকাশ ছুঁয়ে গিয়েছে। সাধারণ মানুষকেও দারিদ্রের দিকে ঠেলে দেওয়া হয়েছে। গত ৫০ বছরে এমন অর্থনৈতিক সঙ্কট দেখেনি পাকিস্তান (Pakistan)। এমনও মন্তব্য করেছেন সেখানকার অর্থনীতিবিদরা। দেশের অনেক জায়গায় জ্বালানি সঙ্কটের কারণে পেট্রোল পাম্পগুলিও বন্ধ হয়ে গিয়েছে। আন্তর্জাতিক মুদ্রা তহবিলের (International Monetary Fund) কাছে আর্থিক সাহায্য চেয়েও পাচ্ছে না পাকিস্তান। এই অবস্থায় নাগরিকদের কিছুটা স্বস্তির খবর শোনাল শেহবাজ শরিফ সরকার। 

এখন চলছে পবিত্র রমজান মাস। মাস ফুরোলেই ইদের আনন্দে মেতে উঠবেন বিশ্বের ইসলাম ধর্মাবলম্বী মানুষ। যদিও এ বছর পাকিস্তানের আমজনতা কতটা খুশির সঙ্গে ইদ পালন করতে পারবেন তা বলা যাচ্ছে না। তবে চূড়ান্ত খারাপ অবস্থাতে পেট্রোলের উপর ৫০ টাকা ভর্তুকি ঘোষণা করল পাক সরকার। যদিও দেশের প্রতিটি নাগরিক এই সুবিধা পাবেন না বলে জানানো হয়েছে। শুধুমাত্র স্বল্প আয়ের নাগরিকরদেরই এই সুবিধা দেওয়া হবে। 

   

pak petrol pump

পাক মিডিয়া রিপোর্ট অনুযায়ী, পাঞ্জাব প্রদেশের রাজধানীতে এই প্যাকেজের বিষয়ে একটি রিভিউ বৈঠক করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেহবাজ শরিফ (Shehbaz Sharif)। রিপোর্টে বলা হয়েছে, এই মুহূর্তে পাকিস্তান তীব্র অর্থনৈতিক, মানবিক ও রাজনৈতিক সঙ্কটে বিপর্যস্ত। তাদের বিদেশি মুদ্রার ভাণ্ডার আর মাত্র তিন সপ্তাহের আমদানির জোগান দিতে পারবে। তারপর পুরোপুরি বন্ধ হয়ে যাবে সামগ্রীর আমদানি। এর মধ্যেও দেশের দরিদ্র শ্রেণির জন্য একটি ভর্তুকি প্যাকেজের ঘোষণা করলেন প্রধানমন্ত্রী।

প্রধানমন্ত্রী শেহবাজ শরিফ বলেছেন, “স্বল্প আয়ের নাগরিকদের এই প্যাকেজের সুবিধা দেওয়া হবে। মোটরসাইকেল, রিকশা, ৮০০ সিসি ইঞ্জিনের গাড়ি অথবা অন্যান্য গাড়ি যাঁদের আছে, তাঁরাই এই প্যাকেজের সুবিধা পাবেন।” এই প্রকল্পটি শীঘ্রই চালু করা হবে বলে জানিয়েছেন তিনি। একইসঙ্গে এই প্রকল্পের সঠিক বাস্তবায়নের জন্যে বেশ কিছু পদক্ষেপ করা হবে। শেহবাজ শরিফের মতে মোটরসাইকেল, রিকশা এবং ছোট গাড়ি স্বল্প আয়ের নাগরিকরাই ব্যবহার করেন।

বর্তমানে পেট্রোলের আকাশছোঁয়া দামের কারণে এই শ্রেণির নাগরিকরা প্রচণ্ড অসুবিধার মধ্যে পড়েছেন। কারও কারও রুজিরুটিও বন্ধ হয়ে গিয়েছে। তাই তাঁদের সুবিধার্থে এই প্রকল্প চালুর সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। প্রসঙ্গত, গত সপ্তাহে পেট্রোলের দাম লিটারপ্রতি ৫ টাকা করে বাড়িয়েছে। পাশাপাশি ডিজেলের দামও বেড়েছে ১৩ টাকা লিটার। এই মুহূর্তে পাকিস্তানে পেট্রোলের দাম লিটারপ্রতি ২৭২ পাক রুপি। ডিজেল বিকোচ্ছে ২৯৩ টাকা প্রতি লিটার দামে। 

Avatar
Subhraroop

সম্পর্কিত খবর