ভুল সময়ে ভাষণ! শুভেন্দুর সভায় বিজেপি কর্মীদের তাড়া করে নামিয়ে দিল পুলিশ, নন্দীগ্রামে ধুন্ধুমার

বাংলা হান্ট ডেস্ক: প্রশাসনের তরফে সময় বেঁধে দেওয়া হয়েছিল। সকাল ১০টার পর আর ওই কর্মসূচি করার অনুমতি ছিল না বিজেপির (BJP)। কিন্তু সেই সময়সীমা না মানার অভিযোগ উঠল রাজ্যের বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারীর (Suvendu Adhikari) বিরুদ্ধে। ‘শহিদ দিবসের’ মঞ্চে ভাষণ শেষ হতেই বিজেপি কর্মীদের তাড়া করে নামিয়ে দিল পুলিশ।

যদিও সময় মতো সভা শেষ না করার অভিযোগ অস্বীকার করেছে গেরুয়া শিবির। নন্দীগ্রামে রাজনৈতিক জমি ফিরে পাওয়ার আশায় ২০০৭ সালের ১০ নভেম্বর ‘সূর্যোদয়’ অভিযানের ডাক দিয়েছিল রাজ্যের তৎকালীন শাসকদল সিপিএম (CPIM)। কিন্তু সেই সময়ের রক্তাক্ত অভিযানে প্রাণ গিয়েছিল জমি আন্দোলনের একঝাঁক নেতা-কর্মী। এখনও বেশ কয়েকজনের হদিশও মেলেনি। তারপর থেকেই প্রতি বছর এই দিনটিতে নন্দীগ্রামের (Nandigram) করপল্লিতে শহিদ স্মরণ কর্মসূচির আয়োজন করা হয়। শুভেন্দু যোগ দেওয়ার পর থেকে বিজেপিও এখন এই কর্মসূচি করে।

   

পুলিশ সূত্রে খবর, তৃণমূল-বিজেপির (TMC vs BJP) সঙ্গে বৈঠকে প্রথমে সভা করার অনুমতি চায় বিজেপি। সেই মতো শুক্রবার সকাল ৮টায় করপল্লিতে শহিদবেদিতে স্মরণসভার আয়োজন করার কথা তাদের। এরপর ৯টা নাগাদ সভায় যোগ দেওয়ার কথা শুভেন্দুর। ১০টার মধ্যে অনুষ্ঠান শেষ হওয়ার কথা।

suvendu

কিন্তু অভিযোগ, বিজেপি সেই সময় লঙ্ঘন করেছে। বিরোধী দলনেতার আসার কথা ছিল সকাল ন’টা থেকে সাড়ে ন’টার মধ্যে। কিন্তু তিনি এসে পৌঁছন ৯টা ৪৫ মিনিটে। যার জেরে সভা দীর্ঘায়িত হয়। এরপরেই পুলিশ তৎপর হয়ে বিজেপি কর্মীদের মঞ্চ থেকে নামিয়ে দেয় বলে অভিযোগ। এমনকী, এরপরে তৃণমূলের সভা থাকায় শহিদ বেদিতে থাকা ফুলের মালা দ্রুত খুলে ফেলা হয়।

Avatar
Monojit

সম্পর্কিত খবর