টাইমলাইনপশ্চিমবঙ্গকলকাতা

পথে নেমে আস্তে গাড়ি চালানোর অনুরোধ পুলিশের

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ পথসচেতনতা বাড়াতে রাস্তায় নামল পুলিশ। এতো নিত্য দিনের ঘটনা। কিন্তু আমতা-১ ব্লকের ভাণ্ডারগাছা তরুণ সংঘের প্ল্যাটিনাম জুবিলি উৎসব উপলক্ষ্যে ভান্ডারগাছা ব্রাহ্মণপাড়ায় পথসচেতনতা  শিবিরে পুলিশ পথে নামল শাসনের লাঠি হাতে নয় বরং অনুরোধ করতে। আমতা থানার ভারপ্রাপ্ত পুলিশ আধিকারিক টিম্পু দাস এদিন গতি পথ চলতি গাড়ির ড্রাইভারদের নিয়ন্ত্রন করার  অনুরোধ জানালেন পথে নেমে।

‘সেফ ড্রাইভ,সেভ লাইফ’ অনুষ্ঠানের অঙ্গ হিসাবে এই কর্মসূচী অনুষ্ঠিত হয়। এর আগে কলকাতা পুলিশের তরফে সচেতনামূলক বাইক মিছিলের আয়োজন করা হয়েছিল সচেতনার জন্য। তার উদ্বোধন করে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, রাজ্যে পথদুর্ঘটনায় মৃত্যুর সংখ্যা ১৭% কমেছে। ২০১৬ সালের থেকে ২০১৮ সালে কলকাতায় দুর্ঘটনা কমেছে ৩৫%। আর দুর্ঘটনার কারণে শহরে মৃত্যুও অনেক কমেছে। ২০১৬ সালে দুর্ঘটনায় শহরে প্রাণ যায় ৪০৭ জনের। ২০১৮ সালে সেই সংখ্যাটা কমে হয় ২৯৪। দুর্ঘটনায় আহত হওয়ার ঘটনাও ২০.২% কমেছে

গত বছর পথ দুর্ঘটনাকে কেন্দ্র করে উত্তপ্ত হয়েছিল ঢাকা। ২৯শে জুলাই ঐ দুর্ঘটনা হওয়ার পরে ছাত্র বিক্ষোভের খবর মূলত সামাজিক মাধ্যমে দ্রুত ছড়িয়ে পরে। এরপর প্রথম কয়েকদিন স্কুল-কলেজ শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ ও পরবর্তীতে কয়েকটি বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ হয় ঢাকায়।

যা ছড়িয়ে পড়েছিল দেশ জুড়ে। সড়কে জীবনের নিরাপত্তা নিশ্চিত করার দাবিতে যখন একটি দেশের স্কুল পড়ুয়া কিশোর শিক্ষার্থীরা রাস্তায় বিক্ষোভে নেমে আসে, তখন স্বাভাবিকভাবেই সেদেশের সড়ক পরিবহন খাতের অবস্থা কতটা বিপজ্জনক তা নিয়ে প্রশ্ন ওঠে।

Related Articles

Back to top button