প্রধানমন্ত্রীর দেওয়া শিল্পের প্রতিশ্রুতি হয়নি পূরণ! নির্বাচনের আগেই দাবি করলেন গবেষকরা

বাংলা হান্ট ডেস্ক: লোকসভা নির্বাচনের আগে BJP (Bharatiya Janata Party) যা কিছু দাবি করছে তার একাংশ নিয়ে বিতর্ক সৃষ্টি হয়েছে। দেশের উত্তর-পূর্বের ৮ টি রাজ্যে মোদী জমানার আগে BJP তেমন শক্তিশালী ছিল না। এদিকে, দেশের (India) উত্তর-পূর্বের একাধিক রাজ্যে BJP শাসিত সরকার চলছে ২০১৪ সালে এনডিএ জেতার পরে। গত কয়েক দশকে বিভিন্ন গবেষণায় BJP শাসিত উত্তর-পূর্বের উন্নয়ন নিয়ে পরস্পর বিরোধী তথ্য মিলেছে।

   

তবে কেন্দ্রীয় সরকার তথা প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী দাবি করেছেন, উত্তর-পূর্বে এনডিএ জমানায় ব্যাপক উন্নতি হয়েছে। পাশাপাশি হয়েছে শিল্পও। কেন্দ্রের BJP শাসিত সরকার অসম, ত্রিপুরা-সহ একাধিক রাজ্যে ক্ষমতাসীন। ২০১৪ সাল থেকে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর নেতৃত্বে ভারত শাসিত হওয়া প্রসঙ্গে প্রধানমন্ত্রী নিজেই দাবি করছেন, উত্তর-পূর্বের প্রভূত উন্নয়ন হয়েছে তাঁর আমলে। এদিকে, মোদীর এই দাবি নিয়ে তৈরি হয়েছে বিতর্কও।

২০১৭ সালে কেন্দ্রীয় সরকার নর্থ ইস্ট ইন্ডাস্ট্রিয়াল স্কিম চালু করার পর উত্তর-পূর্বের জন্য ৩,০০০ হাজার কোটি টাকা ব্যয় হবে বলে জানালেও সেটা নেহাত কথার কথা হিসেবে থেকে যায়। বরাদ্দ হয় নামমাত্র টাকা। প্রধানমন্ত্রীর “ডবল ইঞ্জিন”-এর সরকারের তত্ত্বও খারিজ হয়। হাজার হাজার কোটি টাকা ব্যয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে উত্তর-পূর্বের রাজ্যগুলিতে ক্ষমতায় আসার পরে কেন্দ্রীয় সরকার বলেছিল প্রতিশ্রুতিমাফিক টাকা বরাদ্দ করা যাচ্ছে না ফান্ডের অভাবে। ফলে উত্তর-পূর্বের রাজ্যগুলি দেশের স্বাধীনতার আগে ১৯০ বছর ধরে যেমন অবহেলিত ছিল সেই অবস্থার তেমন ঊনিশ-বিশ হয়নি।

Prime Minister's promise not fulfilled! The researchers claimed.

এদিকে, অসমের ডিব্রুগড় বিশ্ববিদ্যালয় উত্তর-পূর্বের শিল্পায়ন নিয়ে গবেষণাপত্র প্রকাশ করেছে। অর্থনীতি বিভাগের পরিচালনায় সংশ্লিষ্ট গবেষণায় ধরা পড়েছে, দেশের উত্তর-পূর্বের রাজ্যগুলিতে স্বাধীনতার পর শিল্পায়নের গতি অত্যন্ত দুর্বল। অর্থাৎ, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর উত্তর-পূর্ব শিল্পায়নে গতিশীল হওয়ার যে প্রতিশ্রুতি তা তাঁর ২ কোটি চাকরির মতো প্রতিশ্রুতির মতোই ব্যর্থ হয়েছে। নির্বাচনের আগে কেন্দ্রীয় সরকার নর্থ ইস্ট ইন্ডাস্ট্রিয়াল স্কিম চালু করলেও তা কাজের কাজ না হওয়ায়নিতান্ত আনুষ্ঠানিকতায় পর্যবসিত হয়েছে।

আরও পড়ুন: মোদীর প্রিয় কোম্পানি বলে কথা! বিশ্বজুড়ে বাজবে ডঙ্কা, হয়ে উঠল সবথেকে শক্তিশালী ব্র্যান্ড

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী দাবি করেছেন, উত্তর-পূর্বের শিল্পায়নের ক্ষেত্রে যে ইকোসিস্টেম তাঁর জমানায় গড়ে তোলা হয়েছে তা আশাপ্রদ। জোড়হাটে জনসমাবেশে এই দাবি করেন প্রধানমন্ত্রী। খতিয়ান পেশ করে মোদী জানিয়েছেন, প্রধানমন্ত্রী আবাস যোজনায় গ্রামীণে অসমে ৫ লক্ষ ৫০ হাজার পরিবারকে বাড়ি বানিয়ে দেওয়া হয়েছে। রেল যোগাযোগ ব্যবস্থা উন্নত করা হয়েছে। ফলে শিল্পক্ষেত্রে গোটা উত্তর-পূর্ব উপকৃত হয়েছে।

আরও পড়ুন: রুদ্ধশ্বাস IPL-এ জমজমাট লড়াই, রিঙ্কুর এই রেকর্ড ভেঙে দিলেন দীনেশ কার্তিক

তবে, ডিব্রুগড় বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকদের বক্তব্য, চা, পেট্রোলিয়াম, কয়লা, পাটশিল্প এবং অরণ্য এলাকায় অর্থনীতিকে বিকশিত করার প্রভূত সম্ভাবনা থাকা সত্ত্বেও উত্তর-পূর্বের উন্নয়ন অবহেলিত থেকে গিয়েছে। এই এলাকায় অর্থনৈতিক উন্নয়ন হলে সারা ভারত অর্থনৈতিকভাবে উপকৃত হত। গবেষকরা জানিয়েছেন, সারা দেশের মধ্যে সবচেয়ে অনগ্রসর এলাকা উত্তর-পূর্ব অংশ। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী উত্তর-পূর্বের উন্নয়নের দাবি করছেন। উল্লেখ্য যে, উত্তর-পূর্বে গত কেন্দ্রীয় বাজেটে দ্বিগুণ করা হয়েছে আর্থিক বরাদ্দ। কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামন ৫,৮৯২ কোটি টাকা বরাদ্দ করেছেন।

Sayak Panda
Sayak Panda

সায়ক পন্ডা, মেদিনীপুর কলেজ (অটোনমাস) থেকে মাস কমিউনিকেশন এবং সাংবাদিকতার পোস্ট গ্র্যাজুয়েট কোর্স করার পর শুরু নিয়মিত লেখালেখি। ২ বছরেরও বেশি সময় ধরে বাংলা হান্ট-এর কনটেন্ট রাইটার হিসেবে নিযুক্ত।

সম্পর্কিত খবর