‘আমি পসেসিভ বর…, পাত্তা দেয়না ম্যাডাম ডোনা’! দাদাগিরির মঞ্চে আক্ষেপ সৌরভের

বাংলা হান্ট ডেস্ক : জি বাংলার (Zee Bangla) অন্যতম জনপ্রিয় রিয়েলিটি শো ‘দাদাগিরি’তে (Dadagiri) চলে মহারাজ সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়ের (Sourav Ganguly) দাপট। প্রোগ্রামে যে কেবল দাদাই প্রতিযোগীদের প্রশ্ন করেন এমনটা নয়, অনেকসময় প্রতিযোগীরাও তাদের ঝাঁঝালো প্রশ্নে কাবু করে ফেলে সৌরভকে। এই যেমন দিনকয়েক আগেই ‘ইচ্ছে পুতুল’র (Icche Putul) মেঘের (Megh) প্রশ্নবাণে কুপোকাত হয়ে গেলেন দাদা।

   

dona and sourav ganguly

দাদাগিরির মঞ্চে হাজির ছিল ‘ইচ্ছে পুতুল’

যারা রোজ এই রিয়েলিটি শো-টি দেখেন তারা তো জানেনই যে, প্রায় সময় টেলিভিশনের কলাকুশলীরা দাদাগিরির মঞ্চ মাতাতে আসেন। এইদিন যেমন সৌরভের সঙ্গ দিতে হাজির হয়েছিল জি বাংলার (Zee Bangla) ‘ইচ্ছে পুতুল’ পরিবার (Icche Putul)। সেখানেই তিতিক্ষার প্রশ্নে রীতিমত ঘাবড়ে যান সৌরভ।

সৌরভের প্রতি তিতিক্ষার প্রশ্ন

এইদিন মঞ্চে দাঁড়িয়ে তিতিক্ষা (Titiksha Das) সৌরভকে প্রশ্ন করেন, ‘ইন্ডিয়ান ক্রিকেট টিমের জাঁদরেল শাশুড়ি এবং পসেসিভ বর কে?’ প্রথমে এই প্রশ্নের উত্তর দিতে গিয়ে খানিকটা ভ্যাবাচ্যাকা খেলেও সেটা সামলে নিয়ে মহারাজ বলেন, ‘ইন্ডিয়ান টিমে জাঁদরেল শাশুড়ি হল হরভজন সিং। আর পসেসিভ বর আমি। এমনিতে বাড়িতে তো কেউ আমায় পাত্তা দেয় না। কিন্তু খেলার মাঠে আমি ভীষণ পসেসিভ।’

দাদাকে পাত্তা দেয়না ম্যাডাম ডোনা

অর্থাৎ, মজার ছলে হলেও তিনি স্পষ্ট করে দিলেন যে, সাংসারিক জীবন ডোনা গঙ্গোপাধ্যায় তার কথাকে বিশেষ গুরুত্ব দেননা। অর্থাৎ বাড়িতে ম্যাডামের ছড়িই ঘোরে এটা স্পষ্ট। সৌরভের এই কথায় হো হো করে হেসে ওঠে সমস্ত দর্শক। যদিও এটাই প্রথম নয়, ‘দাদাগিরি’র মঞ্চে সৌরভ প্রায়শই ম্যাডাম ডোনার কথা বলে থাকেন। দাদা জানান, তার জীবনের উত্থান পতনে সবসময় পাশে থেকেছেন ডোনা।

আরও পড়ুন : আজকের আবহাওয়া : আগামীকালই তৈরি হচ্ছে নিম্নচাপ, দুর্যোগের আশঙ্কা বাংলায়! তোলপাড় করা আপডেট

984113 dona sourav

এই তো দিনকয়েক আগেই তিনি জানান, আজকাল মা আর মেয়ে মিলে তার রূপচর্চাও করে থাকেন। মেয়ে সানা সদ্যই বড় চাকরিতে জয়েন করেছেন। বাবার জন্য গিফটও কিনতে চেয়েছিলেন সানা। তবে দাম শুনে সৌরভ নিজেই তা কিনতে মানা করেন। প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, এই মুহূর্তে জি বাংলার পর্দায় সম্প্রচারিত হচ্ছে ‘দাদাগিরি’ সিজন ১০। এই সপ্তাহ থেকে শনি এবং রবিবার রাত সাড়ে নয়টায় দেখানো হবে ‘দাদাগিরি’।