আন্তর্জাতিকটাইমলাইন

‘আমি বাঁচলাম কেন’- করোনা থেকে সুস্থ হওয়া বৃদ্ধকে ৮.৩৫ কোটি টাকার বিল ধরিয়ে দিল হাসপাতাল

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ ধরানো হল ১.১ মিলিয়ন ডলারের বিল। আমেরিকায় (America) এক করোনা আক্রান্ত ব্যক্তি (Corona Patient) সুস্থ হয়ে ওঠার পর বললেন, ”আমি বেঁচে কেন উঠলাম? মরে কেন গেলাম না?” বিলের চেহারা দেখে মহামারির থেকে বেঁচে ফেরার পরও ভিড়মি খেল রোগীর পরিবার।

গত ৪ ই মে করোনা আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হন এক মার্কিন প্রবীণ নাগরিক। তাঁর বয়স ৭০ বছর। সাধারণত করোনা ভাইরাসে সর্বাধিক আক্রান্ত এবং মৃতদের মধ্যে প্রবীণ নাগরিকদের সংখ্যা বেশি থাকলেও, কপাল জোরে সে বেঁচে যায়। কিন্তু হাসপাতালের বিল দেখে তিনি হতাশায় ভেঙ্গে পড়েন।

চলে দীর্ঘ ৬২ দিনের লড়াই
সিয়াটল শহরের সুইডিশ মেডিকেল সেন্টারে গত ৪ ই মে এক প্রবীণ নাগরিক করোনা আক্রান্ত হয়ে ভর্তি হন। তারপর তাঁর শারীরিক অবস্থার অবন্নতির কারণে চিকিৎসকরা তাঁর পরিবারকে জবাবও দিয়েছিয়েছিলেন। কিন্তু ভাগ্য জোরে তিনি আরও কিছুদিন চিকিৎসকদের অধীনে থাকার পর সম্পূর্ণ সুস্থ হয়ে ওঠেন। কিন্তু এই মারণ ব্যাধির সঙ্গে দীর্ঘ ৬২ দিন ধরে লড়াই করার পর সুস্থ হয়েও তিনি মানসিক দিক থেকে দুর্বল হয়ে পড়লেন।

বিল হল ৮.৩৫ কোটি
হাসপাতালের বিল দেখেই চক্ষু চড়ক গাছ হয়ে গেল তাঁর। বিলের পাহাড় ধরিয়ে দিল হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। ১৮১ পাতার এক লম্বা বিল ধার্য করা হল রোগীর সুস্থতার বিনিময়ে। প্রতিদিন আইসিইউ-এর ভাড়া বাবদ ধার্য করা হল ৭.৩৯ লক্ষ টাকা, ৪২ দিন জীবানুমুক্ত ঘরে থাকার জন্য বিল হল ৩.১০ কোটি টাকা এবং ২৯ দিন ভেন্টিলেটরে থাকার জন্য নির্ধারিত হল ৬২.২৮ লক্ষ টাকা। এবং সব শেষে সুস্থ হওয়ার পর ২ দিনের চিকিৎসার জন্য বল দেওয়া হল ৭৬ লক্ষ টাকা। মোট ৮.৩৫ কোটি টাকা।

হতবাক হল বৃদ্ধের পরিবার
বিমা পলিশি থাকা স্বত্বেও এই বিশাল পরিমাণ বলের বোঝা দেখে অবাক হয়ে যান ওই বৃদ্ধের পরিবারের লোকজন। পাশাপাশি কিন্তু প্রতিটি করোনা হাসপাতালকে এই সংকটের দিনে মার্কিন সরকার ১০ কোটি ডলার দিয়েও সাহায্য করেছেন।

Back to top button