হার্টে ৫০ শতাংশ ব্লকেজ, কিডনিতেও সমস্যা, বিচারকের কাছে চিকিৎসার জন্য কাতর আর্জি শঙ্করের

বাংলা হান্ট ডেস্কঃ রেশন দুর্নীতি মামলায় গ্রেফতারির পর থেকে একাধিক বার নিজের অসুস্থতার বিষয়টি আদালতে তুলে ধরেছেন জ্যোতিপ্ৰিয় (Jyotipriya Mallick) ঘনিষ্ঠ তৃণমূল নেতা তথা উত্তর ২৪ পরগনার (North 24 Pargana) বনগাঁ পুরসভার প্রাক্তন চেয়ারম্যান শঙ্কর আঢ্য (Shankar Adhya)। এরই মধ্যে এবার জেলে সুচিকিৎসা হচ্ছে না বলে অভিযোগ করলেন তৃণমূল নেতা শঙ্কর।

   

আদালতে শঙ্কর আঢ্যর অভিযোগ তার হার্টে ব্লকেজ রয়েছে কিন্তু জেলে তার প্রয়োজনীয় চিকিৎসা হচ্ছে না। শনিবার শঙ্কর আদালতে জানান, তার হৃদ্‌যন্ত্রের একটি ধমনীতে ৫০ শতাংশ ব্লকেজ রয়েছে। কিন্তু তার চিকিৎসার জন্য যে মেডিক্যাল টেস্টগুলি করানোর দরকার সেগুলি জেলে সম্ভব হচ্ছে না।

বিচারককে শঙ্কর বলেন, ‘‘আমার কিডনির সমস্যা রয়েছে, হার্টেও ৫০ শতাংশ ব্লক রয়েছে। অথচ যে টেস্টগুলো করানোর দরকার সেগুলো জেলে করানো সম্ভব হচ্ছে না।’’ প্রসঙ্গত, এর আগের শুনানিতেও আদালতে শঙ্করের শারীরিক অবস্থা নিয়ে সওয়াল করেন তার আইনজীবী।

গত ৩ ফেব্রুয়ারি বনগাঁ পুরসভার প্রাক্তন চেয়ারম্যান আদালতে বলেন, “জেলে আছি। জামিন চাইছি না। কিন্তু চিকিৎসা চাইছি। কিছু পরীক্ষা করার দরকার রয়েছে। আমি নিজের খরচেও করতে পারি।” জেলে ঠিকমতো পরিষেবা মিলছে না বলেও অভিযোগ করা হয়। সেদিনও শঙ্করের আবেদন গ্রাহ্য হয়নি। আর এদিনও তা হল না।

shankar ed

আরও পড়ুন: মহিলা ধর্ষণের অভিযোগ! অবশেষে গ্রেফতার সন্দেশখালির শিবু হাজরা, কোথায় লুকিয়ে ছিলেন?

শঙ্করের আর্জি শুনে বিচারক বলেন, ‘‘আপনার সমস্যা আগে জেলের চিকিৎসককে জানান। তাকে জানিয়েও যদি পর্যাপ্ত চিকিৎসা না হয় তখন আপনি আমাকে বলবেন।’’ শনিবার কলকাতার নগর দায়রা আদালতে শঙ্কর মামলার শুনানি ছিল। সেখানেই নিজের শারীরিক অসুস্থতার কথা তুলে ধরেন তিনি। তবে এদিনও শঙ্কর জামিনের আর্জি জানান নি।

Sharmi Dhar
Sharmi Dhar

শর্মি ধর, বাংলা হান্ট এর রাজনৈতিক কনটেন্ট রাইটার। উত্তরবঙ্গ বিশ্ববিদ্যালয় থেকে সাংবাদিকতায় স্নাতকোত্তর। বিগত ৩ বছর ধরে সাংবাদিকতা পেশার সঙ্গে যুক্ত ।

সম্পর্কিত খবর