টাইমলাইনভারত

বিহার থেকে গ্রেফতার ৫৭ জন বিদেশী তাবলীগ সদস্য! সবার রিপোর্টই নেগেটিভ

বাংলা হান্ট ডেস্কঃ বিহারের (Bihar) বিভিন্ন জেলা থেকে পুলিশ তাবলীগ জামাতের (Tablighi Jamaat) সাথে যুক্ত ৫৭ জন বিদেশীকে গ্রেফতার করেছে। তাঁদের বিরুদ্ধে ভিসার নিয়ম লঙ্ঘনের অভিযোগ উঠেছে। পাটনার বরিষ্ঠ পুলিশ আধিকারিক উপেন্দ্র শর্মা বলেন, কির্গিস্তানের মোট ১৭ জন বাসিন্দা ট্যুরিস্ট ভিসায় ভারতে এসেছিল, আর তাঁরা এদেশে এসে ধার্মিক প্রচার করছিল। উনি বলেন, এদের বিরুদ্ধে বিদেশী আইন অনুযায়ী মামলা দায়ের করে জেলে পাঠানো হয়েছে।

উল্লেখনীয়, ২৩ মার্চ পুলিশ এদের পাটনার দীঘা আর ফুলবাড়িশরীফ থানা এলাকা থেকে হেফাজতে নিয়ে রাদের পাটনায় মেডিকেল পরীক্ষা করানো হয়েছিল। করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ না পাওয়ার পর তাঁদের আলাদা আলাদা জায়গায় কোয়ারেন্টাইনে পাঠানো হয়েছিল।

কিষাণগঞ্জের পুলিশ সুপার কুমার আশিস বলেন, পর্যটন ভিসায় ভারতে আসা ১০ ইন্দোনিশিয়ার আর এক মালয়েশিয়ার নাগরিককে ভিসার নিয়ম লঙ্ঘনের জন্য আর কিষাণগঞ্জে আসার পর পুলিশকে না জানানর পর এদের বিরুদ্ধে সদর থানায় মামলা দায়ের করে গ্রেফতার করা হয়। উনি বলেন, ৩১ মার্চ তাঁদের মেডিকেল পরীক্ষা করানো হয়েছিল, আর সেটির রিপোর্ট চারদিন পর আসে। ওই রিপোর্টে কারোর মধ্যে করোনার সংক্রমণ দেখা যায়নি। আশিস বলেন, এই সমস্ত বিদেশীদের সাবধানতামূলক একটি স্থানীয় মসজিদে কোয়ারেন্টাইনে রাখা হয়েছিল।

বিহারের অররিয়া জেলায় ভিসার নিয়ম লঙ্ঘন করার অভিযোগে তাবলীগ জামাতের সাথে জড়িত ১৮ জন বিদেশী নাগরিককে গ্রেফতার করা হয়েছে। পুলিশ সুপার ধুরত সায়লি জানান, গ্রেফতার করা বিদেশীদের মধ্যে ৯ জন মালয়েশিয়ার আর ৯ জন বাংলাদেশের। এদের মধ্যে মালয়েশিয়ার নাগরিকদের বিরুদ্ধে অররিয়া থানায় আর ৯ জন বাংলাদেশি নাগরিকদের মধ্যে নরপতগঞ্জ থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। দিল্লী থেকে অররিয়া পৌঁছান এই মালয়েশিয়ার নাগরিকদের ২৪ মার্চ মেডিকেল পরীক্ষা করানো হয়েছিল। কিন্তু এদের মধ্যে করোনার লক্ষণ পায়া গেছিল না।

Related Articles

Back to top button