টার্গেট ডায়মন্ড হারবার, অভিষেকের কেন্দ্রে নওশাদের পর ময়দানে নামছে ‘পীরজাদা’ আব্বাস!

বাংলাহান্ট ডেস্ক : লোকসভা নির্বাচন যত এগিয়ে আসছে ততই উত্তেজনা বাড়ছে ডায়মন্ড হারবার কেন্দ্রকে নিয়ে। এই কেন্দ্রে অভিষেকের বিরুদ্ধে লড়াই করতে চেয়েছিলেন ISF বিধায়ক নওশাদ সিদ্দিকি। বিরোধী রাজনৈতিক দলগুলিও নওশাদকে সমর্থন দিতে প্রস্তুত। এমন অবস্থায় এই কেন্দ্রে নওশাদের দাদা তথা ফুরফুরা শরিফের পীরজাদা আব্বাস সিদ্দিকী প্রার্থী দেওয়ার মনোভাব প্রকাশ করলেন।

   

তৃণমূলের বক্তব্য:

রাজনৈতিক মহল মনে করছে আব্বাস সিদ্দিকীর এই বক্তব্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। যদিও তৃণমূল এই ব্যাপারে গুরুত্ব দিতে নারাজ। তৃণমূলের রাজ্য সাধারণ সম্পাদক তথা মুখপাত্র কুণাল ঘোষ এই ব্যাপারে বলেছেন, “যদি ক্ষমতা থাকে নিজে ভোটে লড়াই করুক আব্বাস। ওকে ৪ লক্ষ ভোটে হারাব। নওশাদ বনাম আব্বাস সিদ্দিকীর মধ্যে লড়াই এটা।”

আরোও পড়ুন : আজব কাণ্ড! দোষ করলেই মিলবে শাস্তি, “অদ্ভুত অপরাধে” ১ বছর জেল খাটল ৯ টি ছাগল

আব্বাসের মন্তব্য:

সমাজ মাধ্যমে ভাইরাল হওয়া একটি ভিডিওতে আব্বাসের গলায় ডায়মন্ড হারবার কেন্দ্রে প্রার্থী দেওয়ার কথা শোনা গেছে। এই ভিডিওতে আব্বাস বলছেন, “আপনারা জেতাবেন তো যদি আমরা ডায়মন্ড হারবার কেন্দ্রে প্রার্থী দিই? আপনারা ভোট দেবেন আমাকে দেখে। যদি জেতান তাহলে প্রতিমাসে আপনাদের সমস্যা এখানে এসে শুনে যাব। সমাধান করব এক মাসের মধ্যে।”

Abbas Siddiqui,Naushad Siddiqui,Diamond Harbour,Abhishek Banerjee,Indian Secular Font,Bangla,Bengali,Bengali News,Bangla Khobor,Bengali Khobor

পীরজাদার প্রভাব: 

ডায়মন্ড হারবার, ফলতা, বিষ্ণুপুর, বজবজ, মহেশতলা, সাতগাছিয়া এবং মেটিয়াব্রুজ, এই সাতটি বিধানসভা অন্তর্গত ডায়মন্ড হারবার লোকসভা কেন্দ্রে। এগুলির মধ্যে অধিকাংশ অঞ্চলেই আধিক্য বাংলাভাষী মুসলিম সম্প্রদায়ের। অনেকের দাবি ফুরফুরা শরীফের প্রভাব তাদের মধ্যে বেশ চোখে পড়ার মতো। তাই অনেকের ধারণা যদি এই কেন্দ্রে ফুরফুরার পীরজাদা লোকসভা ভোটে প্রার্থী দেন, তাহলে বেশ বদল আসতে পারে নির্বাচনের ফলের অঙ্কে।