‘আমাদের MP, MLA দের মারুন, কিন্তু কর্মীদের গায়ে যদি আঁচড়ও লাগে..’, কড়া ভিডিও বার্তা অভিষেকের

বাংলা হান্ট ডেস্কঃ তৃণমূলের হাইভোল্টেজ কর্মসূচী। কেন্দ্রীয় বঞ্চনার বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানাতে আগামী ২ এবং ৩ অক্টোবর দিল্লিতে ধারণা কর্মসূচী রয়েছে তৃণমূলের (Trinamool Congress)। বাংলা থেকে দলের কর্মী, জবকার্ড হোল্ডারদের নিয়ে বাসে চেপে রাজধানীর (Delhi) উদ্দেশে যাত্রা শুরু করেছে বাংলার শাসক শিবির।

   

শনিবার যাত্রা শুরুর আগে ভিডিও সম্প্রচারের মাধ্যমে কেন্দ্রের উদ্দেশে কড়া ভিডিও বার্তা দিয়েছেন তৃণমূলের সর্ব ভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। বাংলার শ্রমিক, কৃষকদের গাঁয়ে একটা আঁচড় পড়লেও যে ছেড়ে কথা বলা হবেনা সেই হুঁশিয়ারিই দিয়েছেন তৃণমূল সেকেন্ড ইন কমান্ড।

ভিডিও বার্তায় তিনি বলেন, “দিল্লিতে যাওয়া আমাদের একজনও সাধারণ কর্মীর গায়ে একটি আঁচড়ও যদি লাগে, সেটা ভাল হবে না। গণতান্ত্রিক পন্থাতেই আমরা তার জবাব দেব৷” সাংসদ বলেন, “মারলে আমাদের মারবেন। আমাদের বিধায়ক, সাংসদদের গায়ে হাত দিন। কিন্তু একটা গরিব মানুষের গাঁয়ে যদি হাত পড়ে ইঁটের জবাব পাথর দিয়ে কিকরে দিতে হয় সেটা গণতান্ত্রিকভাবে আগামী দিন মানুষ দেবে।”

আরও পড়ুন: ‘নিয়োগ দুর্নীতির তদন্তে দিল্লি থেকে আরও অফিসার আসছেন’, বিচারপতির চাপে দিনক্ষণ জানাল ED

কেন্দ্র সরকারের উদ্দেশে অভিষেক বলেন, “মনে রাখবেন এটা তৃণমূলের কর্মসূচী নয়, এটা মানুষের কর্মসূচী।” অভিষেক বলেন, “মোট ৮ হাজার ২০০ কোটি টাকা গাজোয়ারি করে আটকে রেখেছে কেন্দ্র সরকার। আজকের দিনে দাঁড়িয়ে রাজ্যের পাওনা ১ লক্ষ কোটি টাকার উপরে। এই টাকা আমরা কেন্দ্রের টাকা আদায় করেই ছাড়ব।”

abhishek delhi

অভিষেক বলেন, ” যদি ১০০ দিনের কাজের টাকায় দুর্নীতি হয়ে থাকে, তাহলে তাদের বিরুদ্ধে উপযুক্ত ব্যবস্থা নিন। কিন্তু ২ জন মানুষের দুর্নীতির জন্য ২ কোটি মানুষের টাকা আটকে রাখা হবে কেন?’ যতদিন বাংলার গরিব মানুষের অ্যাকাউন্টে টাকা ঢুকছে না ততদিন এই লড়াই চলবে বলেও হুঁশিয়ারি দিয়েছেন অভিষেক।

Sharmi Dhar
Sharmi Dhar

শর্মি ধর, বাংলা হান্ট এর রাজনৈতিক কনটেন্ট রাইটার। উত্তরবঙ্গ বিশ্ববিদ্যালয় থেকে সাংবাদিকতায় স্নাতকোত্তর। বিগত ৩ বছর ধরে সাংবাদিকতা পেশার সঙ্গে যুক্ত ।

সম্পর্কিত খবর