মরণোত্তর সম্মাননা পেলেন ঐন্দ্রিলা, প্রেমিক সব্যসাচীর কাণ্ড দেখে ‘থ’ নেটজনতা

বাংলা হান্ট ডেস্ক : আজ প্রায় এক বছর হতে চলল ঐন্দ্রিলা শর্মা (Aindrila Sharma) আমাদের মধ্যে নেই। অভিনেত্রী প্রয়াত হয়েছেন প্রায় বছর ঘুরতে চলল, যদিও দর্শকরা তাকে আজও ভুলতে পারেনি। ঐন্দ্রিলা (Aindrila Sharma) আজও বেঁচে আছেন সব্যসাচীর (Sabyasachi Chowdhury) স্মৃতিতে এবং নিজের কাজের মধ্যে দিয়ে। অন্যদিকে সব্যসাচীও বাকি জীবনটা ঐন্দ্রিলার স্মৃতি আঁকড়ে বেঁচে থাকার জন্য প্রস্তুত।

অন্যদিকে ভক্তরা মাঝেমাঝেই সব্যসাচী আর ঐন্দ্রিলার পুরনো ভিডিও শেয়ার করে স্মৃতি রোমন্থন করে থাকে। তবে এইদিন সোশ্যাল মিডিয়ায় একটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছে যেখানে আবারো দেখা মিলেছে এই দুই প্রেমিক প্রেমিকার। চমক লাগলেও সোশ্যাল মিডিয়া এটি করে দেখিয়েছে। টেলি অ্যাওয়ার্ডস অনুষ্ঠানে (Tele Awards) ঐন্দ্রিলাকে মরণোত্তর কৃতি সম্মাননা জানানোর সময় ঘটেছে এই ঘটনা।

   

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, ২০২২ সালের ২০ নভেম্বর সবাইকে ছেড়ে পরলোকের উদ্দেশ্যে পাড়ি দেন নায়িকা। মৃত্যুর আগে প্রায় ২০ দিন ধরে মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়েছিলেন তিনি। এর আগে দু’দুবার ক্যান্সারকে হারিয়ে জীবনে ফিরেছিলেন অভিনেত্রী। তবে শেষমেশ হার মেনে যান ব্রেন স্ট্রোকের কাছে। এই ২০ টা দিন, অসুস্থ প্রেমিকার ছায়াসঙ্গী হয়েছিলেন অভিনেতা।

আরও পড়ুন : বড় ছক্কা হাঁকালেন প্রসেনজিৎ! তৈরি করছেন ‘নটী বিনোদিনী’র হিন্দি ভার্সন, অভিনেত্রী কে শুনলে চমকে যাবেন

সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় একটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছে যেখানে অ্যাওয়ার্ডসে মরণোত্তর কৃতী সম্মান দেওয়া হয় ঐন্দ্রিলাকে। সেইসময় পুরস্কার নিতে মঞ্চে আসেন ঐন্দ্রিলার বাবা ও মা। এইদিন অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন সব্যসাচী নিজেও‌। দর্শকাসনে বসেছিলেন তিনি। বরাবরের মত ধীরস্থির শান্ত হয়ে বসে এই বিশেষ মুহুর্তটিকে নিজের মুঠোফোনে বন্দি করে নিলেন।

আরও পড়ুন : বাম্পার খবর, রাজ্য পুলিশে কর্মখালির বিজ্ঞপ্তি! বেতন মাসিক ৪০ হাজার, এভাবে করুন আবেদন

how is aindrila sharma sabyasachi chowdhury now

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, অসুস্থতার আগে ঐন্দ্রিলা নিজে গিয়ে টেলি অ্যাওয়ার্ডসে বিশেষ সম্মান গ্রহণ করেছিলেন। সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল এই ভিডিওতে সেই দৃশ্যও ফুটে ওঠে‌। আর এভাবেই মৃত্যুর প্রায় একবছর পর সব্যসাচী আর ঐন্দ্রিলাকে একফ্রেমে নিয়ে এল সোশ্যাল মিডিয়া। যা দেখার পর থেকে আবেগে ভাসছে গোটা নেটদুনিয়া। অন্যদিকে অভিনেত্রীর স্মৃতি নিয়ে বেঁচে রয়েছেন তাঁর পরিবার এবং সব্যসাচী।

Moumita Mondal
Moumita Mondal

মৌমিতা মণ্ডল, গ্র্যাজুয়েশনের পর শুরু নিয়মিত লেখালেখি। বিগত ৩ বছরেরও বেশি সময় ধরে লেখালেখির সাথে যুক্ত। প্রায় ২ বছর ধরে বাংলা হান্ট-এর কনটেন্ট রাইটার হিসেবে নিযুক্ত।

সম্পর্কিত খবর