উদ্বোধনের দিনই বোমা হামলার মুখে অযোধ্যার রাম মন্দির! হুমকি ই-মেইল ঘিরে শোরগোল

বাংলা হান্ট ডেস্ক : উদ্বোধনের আগেই বিপদের মুখে অযোধ্যার রাম মন্দির (Ayodhya Ram Mandir)। একদিকে যেখানে গোটা শহরজুড়ে সাজো সাজো রব, অন্যদিকে সেখানে আতঙ্ক ছড়িয়েছে এক হুমকি ইমেইল (Threatening e-mails)। সদ্যই মিলেছে অযোধ্যার রাম মন্দির বোমা মেরে উড়িয়ে দেওয়ার হুমকি। ই-মেল মারফৎ এই হুমকি এসেছে বলে সূত্রের খবর।

   

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, বহু তর্ক বিতর্কের পর অবশেষে আগামি ২২ জানুয়ারি রামলালা ফিরতে চলেছেন তার নিজের ঘরে। শেষ মুহুর্তের প্রস্তুতির জেরে কারোর নিঃশ্বাস নেওয়ার জো নেই এখন। গত শনিবার প্রধানমন্ত্রীও তাঁর ঝটিকা সফরে দেখে এসেছেন রাম মন্দিরের কাজ। গর্ভগৃহে কোন বিগ্রহ রাখা হবে সেই সিদ্ধান্তও চূড়ান্ত করে ফেলেছ মন্দির কমিটি। তার মাঝেই আতঙ্ক ছড়িয়েছে এই হুমকিভরা ইমেইল।

যদিও এ প্রসঙ্গে এখনও উত্তর প্রদেশের পুলিশ প্রশাসনের তরফ থেকে কোনও অফিসিয়াল প্রতিক্রিয়া আসেনি। তবে কানাঘুষা খবর, গত ২৭ ডিসেম্বর জুবের খান নামক এক ব্যক্তির ই-মেল থেকে দুটি ই-মেল এসেছে। সেই সাথে শোনা যাচ্ছে ই-মেল প্রেরক নাকি পাকিস্তানের (Pakistan) জঙ্গি সংগঠন ISI এর সক্রিয় সদস্য। আর এই দাবি করেছে ইমেইল প্রেরক নিজেই।

আরও পড়ুন : বছর শুরুতেই ফের ভিজবে বাংলা? বৃষ্টির সম্ভাবনা দক্ষিণবঙ্গের ৫ জেলায়, ভয়ঙ্কর রিপোর্ট IMD-র

সাথে এটাও বলা হচ্ছে যে, এই হুমকি ই-মেইলে উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ (Yogi Adityanath), এসটিএফ প্রধানের পাশাপাশি ভারতীয় কিষাণ মঞ্চের সর্বভারতীয় সভাপতিকেও বোমা দিয়ে উড়িয়ে ফেলার কথা বলা হয়েছে। এবং সেই সাথে দুস্কৃতিদের নিশানায় রয়েছে রাম মন্দিরও। এহেন বিষ্ফোরক একটা মেইল পাওয়া মাত্রই তৎপর হয়ে উঠেছে ভারতীয় তদন্তকারী সংস্থাগুলি।

আরও পড়ুন : টিকিট থাকতেও ২২০০০ টাকা ফাইন! নালিশ ঠুকতেই রেলকে ডাবল জরিমানা আদালতের

জুবের খান নামক সত্যিই কোনও ব্যক্তি বাস্তবে আছে কী না, এই ই-মেইল আইডি কোন এলাকা থেকে অপারেট করা হচ্ছে, এর আইপি অ্যাড্রেস থেকে শুরু করে লোকেশন সবকিছু সরেজমিনে তদন্ত করছে পুলিশ এবং কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থাগুলি। যদিও রাম মন্দির উদ্বোধনের দিন যে নানারকম বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করার চেষ্টা করা হবে তা ভালোই জানতো মন্দির কর্তৃপক্ষ। যে কারণে, ট্রাস্টি চম্পত রাই এবং প্রধানমন্ত্রী খোদ দেশবাসীর কাছে আবেদন জানিয়েছেন যে, ঐদিন যাতে মানুষজন অযোধ্যায় না আসেন। এর আগেও একাধিকবার অযোধ্যার রাম মন্দির বোমা মেরে উড়িয়ে দেওয়ার হুমকি এসেছে।