‘তোমার রক্ষা নেই, ED কোর্টে জানিয়েছে…’, সন্দেশখালি প্রসঙ্গে চরম হুঁশিয়ারি শুভেন্দুর

বাংলা হান্ট ডেস্ক : গত বছরের শেষের দিকে রেশন দুর্নীতির মামলার তল খুঁজতে উঠে পড়ে লেগেছিল কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা ইডি। বিভিন্ন তথ্যপ্রমাণের ভিত্তিতে রাতারাতি ইডির (Enforcement Directorates) হাতে গ্রেফতার হন রাজ্যের প্রাক্তন খাদ্যমন্ত্রী তথা বর্তমান বনমন্ত্রী জ্যোতিপ্ৰিয় মল্লিক (Jyotipriya Mallick) ওরফে বালু। তার আগেই গ্রেফতার হয়েছিলেন বাকিবুর রহমান নামের এক ব্যবসায়ী। সেখান থেকেই উঠে আসে একটার পর একটা চাঞ্চল্যকর তথ্য।

   

বালু-বাকিবুর জুটির হাত ধরেই দুর্নীতির আরও গভীরে পৌঁছায় কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থাটি। অবশ্য তার খেসারতও দিতে হয়েছে বৈকি! গতকাল তৃণমূল নেতা শাহজাহান শেখের বাড়িতে হানা দিতে গিয়ে আক্রান্ত হন খোদ ইডি আধিকারিকরাই। গুরুতর জখম হন তিন অফিসার। একজনের মাথায় ৬টি সেলাই পড়েছে বলে খবর। আর এবার সেই ঘটনা নিয়েই বিস্ফোরক মন্তব্য করলেন বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী।

এইদিন এক সভামঞ্চে দাঁড়িয়ে শুভেন্দু অধিকারী বলেন, ‘সংবাদ মাধ্যম বলছে, ১০ হাজার টাকার রেশন কেলেঙ্কারি হয়েছে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের রাজত্বে।’ সেই সাথে শাহজাহান শেখকে নিয়ে তিনি বলেন, ‘দেশদ্রোহী শাহজাহান শেখ কোথায় পালাবে? গেছে বাংলাদেশের বরিশালে। আপনার সঙ্গে জুনায়েদ খান আছে। আরে যেখানেই থাকুন, মাটির নিচে থাকলেও নরেন্দ্র মোদীর এজেন্সি আপনাকে খুঁজে বের করবে। বাঁচার কোনও রাস্তা নেই।’

আরও পড়ুন : ইতিহাস গড়ল ISRO, চাঁদের পর এবার সূর্য নমস্কার! অভিযান সফল হতেই শুভেচ্ছা মোদীর

ed officers

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, এদিন আদালতে দাঁড়িয়ে স্পষ্ট ভাবেই ED জানায়, রেশনে এখনও পর্যন্ত ১০ হাজার কোটি টাকার দুর্নীতি হয়েছে। এবং তদন্ত এগোলে এই পরিসংখ্যান আরও বাড়বে। সেই সাথে ইডি আরও জানিয়েছে, শঙ্করের সঙ্গে সংযুক্ত ৯০টি বিদেশি মুদ্রা বিনিময় সংস্থার খোঁজ মিলেছে। এবং প্রায় ২০ হাজার কোটি টাকা বিদেশে পাচার করা হয়েছে এই সংস্থাগুলির মাধ্যমে। যা শুনে কার্যত ‘থ’ হয়ে যান খোদ বিচারপতি। এবং গত শুক্রবার এই রেশন দুর্নীতি সংক্রান্ত তদন্ত করতেই শাহজাহান শেখের বাড়িতে পৌঁছেছিলেন ইডি আধিকারিকরা।

আরও পড়ুন : ফের আক্রান্ত ইডি! সন্দেশখালির ছায়া বনগাঁতেও, আইনি পথে হাঁটছে কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা

তবে এইদিন সকাল থেকেই রণক্ষেত্র সন্দেশখালি। তদন্ত চালাতে গিয়ে মাথা ফাটে ইডি সহকারী ডিরেক্টর রাজকুমার রামের। এই ঘটনার পর থেকেই উত্তাল হয়ে রয়েছে রাজ্য রাজনীতি। যদিও ইডিও ছেড়ে কথা বলার পাত্র যে নয় তা ভালোই বুঝিয়ে দিয়েছে। গতকালকেই দায়ের হয়েছে এফআইআর। আর তারপর থেকেই ফেরার হয়ে রয়েছেন তৃণমূল নেতা শাহজাহান। সূত্রের খবর, তিনি নাকি দেশ ছেড়ে বাংলাদেশে গা ঢাকা দিয়েছেন। যদিও কিছু মিডিয়ার দাবি, তিনি কোথাও যাননি, তার এলাকাতেই রয়েছেন।