fbpx
টাইমলাইনভারতরাজনীতি

এই বিল ভারতের সংবিধান বিরোধী, ব্রিটিশরা বাঙালিদের তাড়াতে পারেনি- ডেরেক ও ব্রায়েন

বাংলাহান্ট-রাজ্যসভায় নাগরিকত্ব বিল পাস করতে বেশ কিছুটা চাপের মধ্যে পড়তে হচ্ছে বিজেপিকে। কারণ ২২১ ম্যাজিক ফিগার থাকলেও তাদের কাছে সেই সংখ্যা কার্যত নেই ফলে বিজেপি। সমর্থিত অন্য দলের সমর্থন নিয়ে বিল পাসের জন্য মরিয়া চেষ্টা করছে বিজেপি।

এই নাগরিকত্ব বিল নিয়ে আজ তৃণমূলের পক্ষ থেকে ডেরেক ওব্রায়েন বলেন অমিতজি বাঙ্গালীদের দমিয়ে রাখা যাবে না ব্রিটিশরা পারেনি, আপনারাও পারবেন না। এছাড়া আরও বলেন এই বিল সংবিধানবিরোধী। এই বিল পাস হলে একটা শ্রেণীর মানুষের বিপদের মুখে পড়বে। এখনই দেশের মানুষ সুরক্ষিত নয় ফলে কতটা সুরক্ষিত থাকবে সেই নিয়ে প্রশ্ন উঠে যাচ্ছে। এদিকে বিজেপি নাগরিকত্ব বিল পাস করানোর জন্য সব রকম চেষ্টা করছে। গতকাল লোকসভায় বিলের পক্ষে ভোট পড়ে৩১১ টি ভোট পড়ে ৮৮ টি. গতকাল বিজেপি কে সমর্থন করে মহারাষ্ট্রের শিবসেনা।

তারা যে রাজ্যসভায় সমর্থন করবে কিনা সেই দিকে তাকিয়ে গোটা রাজনৈতিক মহল কিন্তু বিজেপির সাথে তারা যেভাবে সমর্থন দিলে লোকসভায় ভোটে। মহারাষ্ট্রের সরকার নিয়ে একাধিক প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে। এদিকে তৃণমূল পক্ষ থেকে জানিয়ে দেওয়া হয়েছে। তারা এই বিলের সম্পূর্ণ বিরোধী করবে।

বিজেপির পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে। যদি কারোর রেশন কার্ডের না থাকে তাহলে তাকে নাগরিকত্ব দেওয়া হবে। নাগরিকত্ব দেওয়া হবে যারা পাকিস্তান, আফগানিস্তান, বাংলাদেশ অত্যাচারিত হিন্দু, খ্রিস্টান, বৌদ্ধ, ধর্মের মানুষ আছে। শুধুমাত্র মুসলিমদের কোন নাগরিকত্ব দেওয়া হবে না বলে বিলে উল্লেখ রয়েছে। এখানেই বিরোধিতায় সরব হয়েছে বিরোধীরা। ইতিমধ্যে আসাম গোহাটি দফায় দফায় রাস্তা অবরোধ করে আগুন জ্বালিয়ে স্থানীয় বাসিন্দারা। ইতিমধ্যে সেনা নামানো হয়েছে।

এখন দেখার বিষয় শেষ পর্যন্ত রাজ্যসভায় বিল পাস করতে পারে কিনা মোদি সরকার। তৃণমূলের পক্ষ থেকে ধর্মতলা গান্ধী মূর্তির পাদদেশে অবস্থান-বিক্ষোভ করছে। একাধিকবার জনসভাতে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায় বলেছেন তারা বিলের সর্মথন করবেন না। শেষ পর্যন্ত বিজেপি রাজ্যসভার ১২১এ ম্যাজিক ফিগার হতে পারে কিনা সেই দিকে তাকিয়ে গোটা রাজনৈতিক মহল.

Back to top button
Close
Close