NASA-র বিজ্ঞানীদের ডায়েট মেনে মহাজাগতিক গোল করে রেকর্ড রোনাল্ডোর! ভাইরাল ভিডিও

বাংলা হান্ট নিউজ ডেস্কঃ মাঝে আর মাত্র দুটো মাস। তারপরেই ৩৯-এ পা দেবেন পর্তুগিজ মহাতারকা ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো (Cristiano Ronaldo)। কিন্তু তার খেলা দেখে এখনো সেটা বোঝার উপায় নেই। প্রায় প্রতিমাসেই কোনও না কোনও নতুন রেকর্ড গড়ে চলেছেন সিআরসেভেন। গতকাল রাতে সৌদি আরবের (Saudi Arabia) লিগে নিজের দল আল নাসেরের (Al Nassr) হয়ে দুটি বিশ্বমানের গোল করার পাশাপাশি একটি অভূতপূর্ব রেকর্ড করে ফেলেছেন তিনি।

   

happy ronaldo

প্রথম ডিভিশনে সর্বোচ্চ গোলস্কোরার:

ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো কাল ম্যাচের ৭৭ এবং ৮০ মিনিটে দুটি গোল করেছেন। সেগুলি ছিল তার সিনিয়র লিগ কেরিয়ারের ৫২৬ এবং ৫২৭ তম গোল। এর আগে লিগ ফুটবলে সর্বোচ্চ গোল সংগ্রাহকের রেকর্ড ছিল অস্ট্রিয়া এবং চেকোস্লোভাকিয়ার কিংবদন্তি জোসেফ বিকানের। তাকে এদিন পেছনে ফেলে দিয়েছেন ক্রিশ্চিয়ানো।

লিগে সর্বোচ্চ গোল ও অ্যাসিস্ট:

চলতি মরশুমের শুরুতে সৌদি প্রো লিগে একাধিক মহতারকা যোগ দিয়েছেন ইউরোপিয়ান ফুটবল থেকে। নেইমার জুনিয়র, করিম বেনজেমা, আলেকজান্ডার মিত্রোভিচ, সাদিও মানের মতো একাধিক তারকা ফরোয়ার্ডও রয়েছেন এখন সেই লিগে। কিন্তু তাদের সকলকে পেছনে ফেলে ১৩ ম্যাচে ১৫ গোল ও ৭ অ্যাসিস্ট করে আপাতত লিগের সর্বোচ্চ গোল ও অ্যাসিস্ট সংগ্রাহক।

পর্তুগালের জার্সিতেও অনবদ্য:

ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডোর নিন্দুকের অভাব নেই। তাদের মধ্যে অনেকেই দাবি করছেন যে পর্তুগিজ তারকা একটি দুর্বল লিগে খেলছেন বলেই এমন দাপট দেখাতে পারছেন। কিন্তু তাদেরকে ভুল প্রমাণ করে পর্তুগালের জার্সিতেও বিশ্বকাপের যোগ্যতা অর্জন করবে ১০ ম্যাচে ১০ গোল এবং ২ টি অ্যাসিস্ট করেছেন তিনি। লিথুয়ানিয়া বা লিখটেনস্টাইনের মতন দুর্বল দলের বিরুদ্ধেও যেরকম গোল করেছেন তিনি তেমনি বসনিয়া হার্জেগোভেনিয়া, স্লোভাকিয়া, আইসল্যান্ডের মতন ফুটবল বিশ্বের জায়ান্ট কিলার দলগুলির বিরুদ্ধেও তিনি সমান স্বাচ্ছন্দ‍্যবোধ করছিলেন।

আরও পড়ুন: গায়ে হাত না! মারমুখী ব্রাজিল পুলিশের লাঠি থেকে আর্জেন্টিনা ভক্তদের বাঁচাতে মার্টিনেজের ভূমিকায় মুগ্ধ বিশ্ব

নাসার বিজ্ঞানীদের ডায়েট মানছেন রোনাল্ডো?

কিছুদিন আগে ক্রিশ্চিয়ানো তাদের সম্পর্কে প্রাক্তন পাকিস্তান ক্রিকেটার এবং প্রাক্তন পিসিবি প্রধান রামিজ রাজার একটি মন্তব্য ফাইনাল হয়েছিল। কথা প্রসঙ্গে তিনি বলেছিলেন রোনাল্ডোর ডায়েট নির্ধারণ করে দেন নাসার বিজ্ঞানীরা। এই কথা নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় ঝড় উঠেছিল। হাসির পাত্র হয়েছিলেন রামিজ। কিন্তু এই দিন রোনাল্ডোর দ্বিতীয় গোলটি দেখার পর নাসার প্রসঙ্গ টেনে এনে ওই গোলটির তুলনা করছেন নাসার মহাকাশযানের সঙ্গে। এদিন প্রতিপক্ষ আল আখদাউদ গোলরক্ষক প্রোডাক্ট দলের একটি আক্রমণ ভেঙে বক্সের বাইরে বেরিয়ে এসেছিলেন। বলটি এসে ছিটকে পড়েছিল রোনাল্ডোর পায়ের কাছে। ঠান্ডা মাথায় রোনাল্ড যেন নিজেরা ডান পা দিয়ে একটি রকেট নিক্ষেপ করেছিলেন যেটি মহাশূন্যে উঠে গোত্তা খেয়ে ফের নীচে নেমে এসে জালে জড়িয়ে। ৪০ গজ দূর থেকে করা রোনাল্ডোর এই গোল এখন সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল।

রোনাল্ডোর পরবর্তী লক্ষ্য:

এই মুহূর্তে সৌদি লিগ এবং এশিয়ান চ্যাম্পিয়ন্স লিগ জয়ের দৌড়ে রয়েছে রোনাল্ডোর ক্লাব আল নাসের। সেইসঙ্গে সৌদি আরবের ফুটবলের অন্যান্য ঘরোয়া প্রতিযোগিতাগুলোতেও টিকে রয়েছে তার ক্লাব। শেষপর্যন্ত তিনি মরশুমে তিনি কটি ট্রফি তুলতে পারেন সেদিকে নজর থাকবে সকলের। সেই সঙ্গে ক্লাব ফুটবলের মরশুম শেষে আগামী জুন মাসে আরম্ভ হবে ইউরো কাপ। পর্তুগাল আপাতত তুলনামূলক পিছিয়ে থাকা দলগুলির বিরুদ্ধে অসাধারণ ফুটবল খেলেছে। কিন্তু নতুন কোচ রবার্টো মার্টিনেজের নেতৃত্বে বড় মঞ্চে রোনাল্ডোরা কি জ্বলে উঠতে পারবেন? নাকি ২০২২ সালের ফুটবল বিশ্বকাপের মতোই হতাশা অপেক্ষা করছে তাদের জন্য? সেই দিকেও নজর থাকবে।