DA নিয়ে ‘ভুল অঙ্ক’ মমতার! ১৩৫% দিলে আরো ৮২% মহার্ঘ ভাতা বাকি, বলল যৌথ মঞ্চ

বাংলাহান্ট ডেস্ক : পার্ক স্ট্রিটে দাঁড়িয়ে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সরকারি কর্মচারীদের ৪ শতাংশ মহার্ঘ ভাতা বৃদ্ধির ঘোষণা করেন। এই মহার্ঘ ভাতা বৃদ্ধির পর যদিও খুশি নন রাজ্য সরকারি কর্মচারীরা। রাজ্য সরকারি কর্মচারীদের দাবি কেন্দ্রীয় হারে মহার্ঘ ভাতা তাদের মেটাতে হবে। এই আবহে রাজ্যের মন্ত্রী মানস ভুঁইয়া আক্রমণ করে বসলেন সংগ্রামী যৌথ মঞ্চকে।

   

হিসেব দিয়ে তিনি বললেন রাজ্য সরকার ১৩৫ শতাংশ মহার্ঘ ভাতা দিয়েছে কর্মচারীদের। তার জবাবে যৌথ মঞ্চের দাবি তাহলে এখনো ৮২ শতাংশ মহার্ঘ ভাতা বাকি রয়েছে। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় মহার্ঘ ভাতার ঘোষণা করার দিন বলেন, “ইতিমধ্যেই ১৩৫ শতাংশ মহার্ঘ ভাতা ঘোষণা করেছি। ২০১৯ সাল থেকে নতুন বেতন কমিশনের আওতায় ৬ শতাংশ মহার্ঘ ভাতা দেওয়া হচ্ছে।”

আরোও পড়ুন : একবার TET হলেই সরকারের কোষাগারে ঢোকে এত্ত টাকা! হিসেব দেখলে মাথা ঘুরে যাবে আপনার

সংগ্রামী যৌথ মঞ্চের আহ্বায়ক ভাস্কর ঘোষ গতকাল এরপর পাল্টা উত্তর দিয়ে বলেছেন, মানস ভুঁইয়া বা মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় যে হিসাব দিচ্ছেন তাতে ৮২ শতাংশ মহার্ঘ ভাতা বাকি রয়েছে। আসলে এটি হল বিষয়। আর উনি বলছেন মিলেমিশে গেছে বিজেপি-সিপিএম। ঠিকই বলেছেন, সব রং মিশে গেলে সদাই হয়।

Dearness Allowance,Mamata Banerjee,State Government,West Bengal,মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়,মহার্ঘ্য ভাতা,রাজ্য সরকার,Bangla,Bengali,Bengali News,Bangla Khobor,Bengali Khobor

ডিএ আন্দোলনকারীদের উদ্দেশে সম্প্রতি রাজ্যের মন্ত্রী মানস ভুঁইয়া বলেছেন, পঞ্চম পে কমিশনের শেষ ও ষষ্ঠ পে কমিশনের সূচনা পর্যন্ত ১২৫ শতাংশ বেসিক পে এর সাথে যোগ করে দেওয়া হয়েছে। এবার আরো দেওয়া হচ্ছে ১০%। ১৩৫% হয়ে গেল মোট। আমরা দেব ২৭৭৮ কোটি টাকা। এর পাল্টা ডিএ আন্দোলনকারীরা বলেন, তাহলে সেই হিসাব অনুযায়ী বাকি আছে ৮২% মহার্ঘ ভাতা।