বিশ্বকাপের আগে হারান মা-কে, তাও আফগানদের টানছেন সেমির দিকে! বাবর শিখুক, মন্তব্য ভারতীয় ভক্তদের

বাংলা হান্ট নিউজ ডেস্কঃ চলতি বিশ্বকাপে (2023 ODI World Cup) অসাধারণ ছন্দে রয়েছে আফগানিস্তান (Afghanistan Cricket Team)। আজ নেদারল্যান্ডসকে হারিয়ে ৮ পয়েন্ট নিয়ে সেমির দৌড়ে প্রবল ভাবে রয়েছেন তারা। চলতি টুর্নামেন্টে তারা ইংল্যান্ড, পাকিস্তান, শ্রীলঙ্কার মতো দলকে হারিয়েছে। ভারতের বিরুদ্ধেও কঠোর লড়াই করেছে। আর শুনতে আশ্চর্য লাগলেও এই মুহূর্তে তাদের দলের সবচেয়ে বড় নায়ক রশিদ খান বা মহম্মদ নবী বা রহমানুল্লাহ গুরবাজের মতো আইপিএল খেলা তারকা কোনও ক্রিকেটার নন, আফগান জার্সিতে যিনি সবচেয়ে ধারাবাহিক পারফরম্যান্স করছেন তিনি হলেন আফগান অধিনায়ক হাসমতউল্লাহ শাহিদী (Hashmatullah Shahidi)।

আজ নেদারল্যান্ডসের বিরুদ্ধে আফগানিস্তান অধিনায়ক ৫৬ রান করে দলের সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহক করেছেন। আর শুধু আজকেই নয়, এর আগে ভারতের বিরুদ্ধে ৮০, পাকিস্তানের বিরুদ্ধে ৪৮*, এমনকি শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধেও ৫৮* রান করেছিলেন তিনি। তার উপস্থিতি যেন বদলে দিয়েছে আফগানিস্তান দলের মিডল অর্ডারকে। আফগানিস্তানের মানুষকে তিনি যেন স্বপ্ন দেখাতে শুরু করেছেন।

এদিন জয়ের পর তিনি মুখ খুলেছেন আফগানিস্তানের পারফরম্যান্স নিয়ে। নিজের ব্যাটিংয়ের ব্যাপারে খুব বেশি মুখ না খুলে দলগত পারফরম‍্যান্সকে গুরুত্ব দিচ্ছেন আফগান অধিনায়ক। তার ব্যক্তিত্ব এবং পারফরমেন্স দেখিয়ে পাকিস্তান ভক্তদের এবং পাকিস্তানের অধিনায়ক বাবর আজমকে কিভাবে অজুহাত না দিয়ে নিজেদের কাজটা সঠিকভাবে করে যেতে হয় সেই ব্যাপারে শিখতে পরামর্শ দিচ্ছেন ভারতীয় ক্রিকেট ভক্তরা।

আরও পড়ুন: চুলোয় যাক বিশ্বকাপ, ভারতের মাটিতে সস্তায় বিয়ের শপিং করছেন বাবর আজম! কত খরচ করলেন?

দেশ এবং নিজের পরিবারের জন্য আলাদা করে তিনি শক্তি পাচ্ছেন বলে জানিয়েছেন হাসমতউল্লাহ। ম্যাচের পর আফগান অধিনায়ক জানিয়েছেন, “সেমিতে যাওয়ার শতভাগ চেষ্টা করছি আমরা। তিন মাস আগে আমার মাকে হারিয়েছি। আমার পরিবার বড় কষ্টে দিন পার করছে। তাই এটা করতে পারলে দেশের জন্য তো বড় অর্জন হবেই, আমার পরিবারের জন্যও হবে।”

আরও পড়ুন: সেমিফাইনালে উঠতে পারিনি, কিন্তু ভারতের চেয়ে আমাদের স্পিনাররা এগিয়ে! হুঙ্কার বাংলাদেশ ভক্তদের

তিনি আরও যোগ করে বলেছেন, “অনেক শরণার্থীদের এই সময়টায় দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে। আমরা তাদের ভিডিও দেখছি, দেখে খারাপ লাগছে। তাদের এই দুর্ভোগের সময়টায় আমরা তাদের পাশেই আছি। কষ্টে দিন পার করা সেই শরণার্থীদের জন্য আজকের এই জয়টা উৎসর্গ করছি; সেই সাথে জয়টা আমার দেশের মানুষদের জন্যও।”