টাইমলাইনভারতআন্তর্জাতিক

মত বদল ইমরান খানের, ভারত থেকে চিনি-তুলো আমদানিতে ফের নিষেধাজ্ঞা জারি পাকিস্তানের

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ মত বদল করলেন পাক সরকার ইমরান খান (imran khan)। ভারত (india) থেকে তুলো এবং চিনি আমদানীতে সায় দিয়েও আবার ২৪ ঘন্টা কাটতে না কাটতেই সিদ্ধান্ত বদল করলেন ইমরান খান। জম্মু কাশ্মীরের বিষয়ে সিদ্ধান্ত না নেওয়া পর্যন্ত ভারত থেকে কোন কিছুই আমদানি করা হবে না বলে স্পষ্ট জানিয়ে দিল পাক সরকার।

প্রতিবেশি দুই দেশ হলেও সৃষ্টির প্রথম থেকেই ভারত এবং পাকিস্তানের (pakistan) মধ্যে খুব একটা সুসম্পর্ক কোনদিনই দেখা যায় নি। তবে এই সমস্যা আরও বড় আকার ধারণ করে ২০১৯ সালে পুলওয়ামায় জঙ্গি হামলা এবং জম্মু কাশ্মীরের উপর থেকে ভারতের ৩৭০ ধারা তুলে নেওয়ার পর।

এই ঘটনার পরই ভারত থেকে কোন কিছু আমদানিতে সায় দেয়নি পাকিস্তান। ভারত থেকে আমদানির উপর সম্পূর্ণ নিষেধাজ্ঞা জারি করেছিল ইসলামাবাদ। তবে দু বছর পর ভারত পাক সম্পর্কের রয়াসন যখন এখন অন্যদিকে মোড় নিচ্ছে, এই সময় আবারও ভারত থেকে তুলো, চিনি আমদানি করতে চেয়েছিল পাকিস্তান।

পাকিস্তানের এই সিদ্ধান্তে সম্মতি জানিয়েছিল ভারত। কারণে ভারত জানিয়েছিল- পাকিস্তানে কোনকিছু রপ্তানি করতে ভারত কোনদিন নিষেধাজ্ঞা জারি করেনি, আপত্তি জানিয়েছিল পাকিস্তান। তাই ভারত থেকে চিনি, তুলো আমদানি করতেই পারে পাকিস্তান সরকার।

কিন্তু বুধবারই ভারতের উপর থেকে বাণিজ্য সংক্রান্ত নিষেধাজ্ঞা তুলে নেওয়ার ২৪ ঘন্টা কাটতে না কাটিতেই মত বদল করল পাক সরকার। পাক মন্ত্রীসভা ভারত থেকে দ্রব্য আমদানিতে সরকারের সঙ্গে সহমত পোষণ করতে পারছে না। মন্ত্রিসভার বৈঠকে মানবাধিকার মন্ত্রী শিরিন মাজ়ারি, শেখ রশিদ, মেহমুদ কুরেশি ও অর্থমন্ত্রী আসাদ উমর- এদের দাবী জম্মু-কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা যদি ভারত ফিরিয়ে দিতে না পারে, তাহলে তাদের সঙ্গে সম্পর্ক স্বাভাবিক করা সম্ভব নয়। মন্ত্রীসভার এই সিদ্ধান্তের পরবর্তীতেই পাক সরকার জানিয়ে দেয় ভারত থেকে চিনি, তুলো আমদানি করবে না পাকিস্তান।

Related Articles

Back to top button