টাইমলাইনবিনোদন

শহিদ ভগৎ সিং ‘মার্কসবাদী’, জাভেদ আখতারের কটাক্ষের পালটা তোপ কঙ্গনা রানাওয়াতের

বাংলাহান্ট ডেস্ক: সোশ‍্যাল মিডিয়ায় ফের রণরঙ্গিনী অবতারে হাজির হলেন কঙ্গনা রানাওয়াত (kangana ranawat)। এবার তাঁর নিশানায় জাভেদ আখতার (javed akhtar)। শহিদ ভগৎ সিংকে (bhagat singh) ‘মার্কসবাদী’ বলে সম্বোধন করায় তাঁর বিরুদ্ধে টুইটবাণ নিক্ষেপ করেন কঙ্গনা।

সোমবার ছিল শহিদ ভগৎ সিংয়ের জন্মবার্ষিকী। অনেকের মতো সোশ‍্যাল মিডিয়ায় কঙ্গনা রানাওয়াতও তাঁর উদ্দেশে শ্রদ্ধা জানিয়ে টুইট করেছিলেন। তারই পরিপ্রেক্ষিতে জাভেদ আখতার টুইট করে ভগৎ সিংকে ‘মার্কসবাদী’ বলে আখ‍্যা দেন।


তিনি লেখেন, ‘শহিদ ভগৎ সিং যে একজন মার্কসবাদী ছিলেন ও ‘আমি কেন নাস্তিক’ নামে একটি প্রবন্ধ লিখেছিলেন। এটা কিছু মানুষ মেনে নিতে পারে না এবং অন‍্যদের থেকেও লুকিয়ে রাখে। কে তারা বুঝতে পারছেন? আমি ভাবি তিনি যদি এখন বেঁচে থাকতেন তাহলে এরা তাঁকে কি বলে সম্বোধন করতেন।’

জাভেদ আখতারের টুইটটি নজর এড়ায়নি কঙ্গনা রানাওয়াতের। টুইটের উত্তরে অভিনেত্রী পালটা লেখেন, ‘আমিও ভাবি ভগৎ সিং আজ বেঁচে থাকলে গণতান্ত্রিক পদ্ধতিতে তাঁর নিজের মানুষরা যে সরকারকে নির্বাচন করেছে তার বিরোধিতা করতেন নাকি তাদের সমর্থন করতেন? ভারতমাতাকে ধর্মের ভিত্তিতে ভাগ হয়ে যেতে দেখেও কি তিনি নাস্তিক হয়ে থাকতেন নাকি নিজের বসন্তি চোলা পরে নিতেন?’

কঙ্গনার এই টুইটের পর অনেকেই মন্তব‍্য করেছেন, কুইন অভিনেত্রী ফের গেরুয়া শিবিরের পক্ষ টেনেই কথা বললেন। এর আগেও বহুবার প্রত‍্যক্ষ বা পরোক্ষ ভাবে কেন্দ্রীয় সরকারকে সমর্থন করতে দেখা গিয়েছে তাঁকে। এমনকি নেপথ‍্যে গেরুয়া শিবিরের শক্তি নিয়েই যে তিনি শিবসেনার বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষনা করেছেন তাও বলছেন অধিকাংশ নেটিজেনই।

প্রসঙ্গত, অফিস ভেঙে দেওয়ার অভিযোগে বম্বে হাই কোর্টে বিএমসির বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছিলেন কঙ্গনা। গতকাল ছিল তার শুনানির তারিখ। শিবসেনার মুখপাত্র সঞ্জয় রাউতের থেকে এদিন আদালত জবাব চায়, ‘হারামখোর’ কথাটি কার উদ্দেশে বলেছিলেন তিনি। সঞ্জয় রাউতের এই কথা নিয়ে বিতর্ক চরমে উঠেছিল।


আদালতের তরফে কঙ্গনার আইনজীবীকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে বিএমসির কর্মকাণ্ডের কাগজপত্র ও সঞ্জয় রাউতের বক্তব‍্যের ভিডিও ক্লিপ জমা দিতে। উপরন্তু ৫ সেপ্টেম্বর কঙ্গনার যে টুইটের জন‍্য এতসব কাণ্ড বলে অভিনেত্রীর দাবি, সেই টুইটের কপিও আদালতের সামনে রাখার কথা বলেন অভিনেত্রীর আইনজীবী।

এদিন আদালতে কঙ্গনার আইনজীবী সঞ্জয় রাউতের একটি বক্তব‍্যের অডিও ক্লিপ পেশ করেন। সেখানে তাঁকে ‘হারামখোর’ শব্দটি বলতে শোনা যায়। পালটা শিবসেনা নেতার আইনজীবী বলেন, তাঁর মক্কেল কারোর নাম উচ্চারণ করেননি। পালটা কঙ্গনার আইনজীবী আরো বলেন, এতে তাঁর মক্কেলের দু কোটি টাকার ক্ষতি হয়েছে। ফের মঙ্গলবার শুনানির তারিখ ধার্য হয়।

Back to top button