টাইমলাইনআন্তর্জাতিক

ভারতের কূটনৈতিক জয়! ভারতের সমর্থনে আসতে চাইল মালয়েশিয়া

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ মালয়েশিয়া (Malaysia) থেকে মহাথিরের চলে যাওয়ায় সাথে সাথেই মালেয়শিয়ার ভোল বদলে যায়। পাকিস্তানের (pakistan) সাহায্য করা থেকে বিরত থেকে নতুন মালেয়শিয়া সরকার মত বদলে ফেলে। কারণ তাঁরা বুঝতে পারে যে প্রাক্তন সরকারের ভুলের ফলে তাঁদের কতটা পরিমাণ ক্ষতি হয়েছে। এই ক্ষতির পরিমাণ আগামী দিনে মালেয়শিয়ার উপর ভারী পড়তে পারে।

মালেশয়িয়ার নতুন প্রধানমন্ত্রী পদে মহিউদ্দিন ইয়াশিন (Mohiuddin Yashin) শপথ নেওয়ার পর থেকেই ভারতের (India) প্রতি ধারণা ধীরে ধীরে বদলাতে থাকে। এখন মালেশিয়ার সরকারের প্রধান লক্ষ্য ভারতের সঙ্গে সম্পর্ক ভালো করা এবং দ্বিতীয়বার পাম অয়েলের কাজ শুরু করা। এই জন্য নতুন সরকার এক মাসের টার্গেট স্থির করে নিয়েছে।

মালেশিয়ার খাদ্য মন্ত্রী দাতুক মহম্মদ খারুদ্দিন এক বৈঠকের ডাক দেন। এই বৈঠকে তিনি ভারতের সঙ্গে সম্পর্ক ভালো করার কথা বলেন। ভারতে খুব শীঘ্রই এক প্রতিনিধি মণ্ডল পাঠাতে চায় তাঁরা। এই প্রতিনিধি মণ্ডল ভারতের সঙ্গে তাঁদের সম্পর্ক স্থাপনে সচেষ্ট হবে। এর জন্য আগামী এক মাস সময় তাঁদের লাগবে।

মালেশিয়ার তৎকালীন প্রধানমন্ত্রী মহাথির ভারতের আভ্যন্তরীণ বিষয়ে টিপ্পনী করার পর থেকেই ভারতের সঙ্গে মালেয়শিয়ার সম্পর্ক আরও খারাপ হতে শুরু করে। পাকিস্তানকে সাহায্য করায় মালেয়শিয়ার পাম অয়েল বিষয়ে আগ্রহ দেখানোই বন্ধ করে দেয় ভারত। ইন্দোনেশিয়ার (Indonesia) পর মালয়েশিয়া বিশ্বের দ্বিতীয় বৃহতম পাম তেল উৎপাদনকারী দেশ। ভারতের আভ্যন্ত্যরীণ বিষয়ে মন্তব্য করার পর ভারত মালেয়শিয়া থেকে তেলের আমদানী বন্ধ করে দেয়।

মালেয়শিয়াকে বাদ দিয়ে ভারত যেদিন থেকে ইন্দোনেশিয়া থেকে তেলের আমদানী শুরু করেছে, সেদিন থেকে মালেয়শিয়ার কপালে চিন্তার ভাঁজ পড়তে শুরু করেছে। এর ফলে মালেয়শিয়ার পাম তেলের বাজার ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছে। ফেব্রুয়ারিতে এই পরিমাণ কমে গিয়ে ৪.০২ শতাংশ থেকে ১.৬৮ মিলিয়ন টন হয়েছে। এর ফলে বোঝা যাচ্ছে নিজেদের দেশের অর্থনৈতিক বৃদ্ধি করার জন্য মালেয়শিয়া এখন ভারতের সঙ্গে ফের বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক স্থাপনে উঠে পড়ে লেগেছে।

Back to top button