সাঁই সাঁই করে ছুটবে গাড়ি, ঘুচবে কলকাতা-শিলিগুড়ির দূরত্ব! নয়া সড়ক নির্মাণ করছে NHAI

   

বাংলা হান্ট ডেস্ক : সেই কোন ২০১৫ সালে জমি অধিগ্রহণ হয়েছিল। এরপর দীর্ঘ ৮ বছর পর অবশেষে সম্পন্ন হয়েছে বহরমপুর বাইপাসের (Baharampur Bypass) কাজ। চার লেনের এই বাইপাস সড়কটি সম্পন্ন করেছে ন্যাশনাল হাইওয়ে (National Highway) অথরিটি অফ ইন্ডিয়া। রাস্তার কাজ সম্পন্ন হলে কমবে কলকাতা ও শিলিগুড়ির দূরত্ব। ইতিমধ্যেই সড়কের একটি দিক যান চলাচলের জন্য খুলে দেওয়া হয়েছে বলে খবর।

জানা যাচ্ছে, এখনও কিছুটা কাজ বাকি রয়েছে। সমস্ত কাজ সম্পন্ন হলে দক্ষিণবঙ্গের সঙ্গে উত্তরবঙ্গের যোগাযোগ আরও মসৃণ হবে। এদিকে বহরমপুর শহরও মুক্তি পাবে যানজটের হাত থেকে। প্রশাসনিক সূত্রে খবর, রাস্তার বাকি অংশের কাজ শেষ হতে খুব বেশি সময় লাগবেনা। এদিকে ভাগীরথীর উপর দ্বিতীয় সেতুতে ডবল লেনের কাজও খানিকটা বাকি রয়েছে।

এমতাবস্থায়, বাইপাসের একদিকের লেনটা খুলে দেওয়া হয়েছে। তবে প্রশাসনিক সূত্রে জানা যাচ্ছে, এই অংশের কাজ শেষ হতে খুব বেশি সময় লাগেনা। কাজ শেষ হলেই, দু’দিকের লেন খুলে দেওয়া হবে। আর তারপর থেকেই বাইপাসের মাধ্যমে বহরমপুরকে সাইডে রেখে দ্রুত উত্তরবঙ্গে যাতায়াত পৌঁছে যেতে পারবে যাত্রীরা।

বহরমপুর শহর থেকে ৪ কিলোমিটার দূরত্বে বলরামপুর থেকে বাইপাসের রাস্তা শুরু হবে। রাস্তাটি শুরু হয়েছে ১২ নম্বর জাতীয় সড়কের সারগাছি থেকে। ন্যাশনাল হাইওয়ে অথরিটি অফ ইন্ডিয়া এই বাইপাস নির্মাণের পরিকল্পনা নিয়েছিল ২০০৯ সালে। এরপর ২০১৫ সাল থেকে জমি অধিগ্রহণের কাজ শুরু হবে।

nhai achieves highest ever construction of national highways in fy 2019 20

উল্লেখ্য, বহরমপুর শহরের মাঝ বরাবর দিয়ে গেছে ৩৪ নম্বর জাতীয় সড়ক। যানজটের সমস্যা এমনই যে গোটা শহর এখন জর্জরিত। কারণ এতদিন এই রাস্তা দিয়েই উত্তরবঙ্গের গাড়ি ছুটত। তবে এই বাইপাস তৈরি হয়ে গেলে জানযট সমস্যা অনেকটাই কমবে। স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলবে সাধারণ মানুষও।

Moumita Mondal
Moumita Mondal

মৌমিতা মণ্ডল, গ্র্যাজুয়েশনের পর শুরু নিয়মিত লেখালেখি। বিগত ৩ বছরেরও বেশি সময় ধরে লেখালেখির সাথে যুক্ত। প্রায় ২ বছর ধরে বাংলা হান্ট-এর কনটেন্ট রাইটার হিসেবে নিযুক্ত।

সম্পর্কিত খবর