ভারতের ক্ষতিতে উল্লসিত হওয়ার জের, একটা সিদ্ধান্তেই মাথায় হাত বাংলাদেশের ক্রিকেটারদের!

বাংলা হান্ট নিউজ ডেস্কঃ আইপিএল (IPL 2024) আরম্ভ হতে এখনো তিনমাস বাকি। তার আগে ফ্র্যাঞ্চাইজিগুলি নতুন করে নিজেদের দল তৈরি করে নিচ্ছে। বেশ কিছু তারকাকে ইতিমধ্যেই এই দলগুলি রিলিজ করে দিয়েছে। এর মধ্যে রয়েছে একগাদা বাংলাদেশের (Bangladesh Cricket Team) ক্রিকেটারও। তাদের দলে সামিল করে আর নিজেদের জায়গা নষ্ট করতে চাইছে না আইপিএলের দলগুলি।

গতবার সুযোগ পেয়েছিলেন কারা?

   

গত বছর আইপিএলে মোট তিনজন বাংলাদেশের ক্রিকেটার অংশগ্রহণ করেছিলেন। এর মধ্যে দুজন তারকা ক্রিকেটার সাকিব আল হাসান (Shakib Al Hasan) এবং লিটন দাস (Liton Das) কলকাতা নাইট রাইডার্স (KKR) শিবিরের অংশ হয়েছিলেন। সাকিব গোটা আইপিএলে থাকতে পারবেন না বলে তার কাছ থেকে রিলিজ চেয়ে নিয়েছিল কলকাতা। লিটন দাস কেবলমাত্র একটি ম্যাচ খেলতে পেরেছিলেন কেকেআর শিবিরের হয়ে। কিন্তু বাংলাদেশের তারকা বাঁ-হাতি পেসার মুস্তাফিজুর রহমান (Mustafizur Rahman) মোটামুটি ধারাবাহিকভাবে খেলেছিলেন গতবারের আইপিএলে দিল্লি ক্যাপিটালস (Delhi Capitals) দলের অংশ হিসেবে।

mustafizz vs liton

বড় সিদ্ধান্ত নিতে বাধ্য হয়েছে ফ্র‍্যাঞ্চাইজিগুলি:

আইপিএলের নিলামের আগে তিন বাংলাদেশী ক্রিকেটারকেই তাদের দল থেকে রিলিজ দিয়ে দেওয়া হয়েছে। পরের বছর তারা আইপিএল খেলতে চাইলে তাদেরকে আবার নতুন করে নিলামে নাম তুলতে হবে। কিন্তু তাদেরকে আর নতুন কোনও ফ্র‍্যাঞ্চাইজি দলে নেবে কিনা তাই নিয়ে বড় সন্দেহ রয়েছে। দলগুলি তাদের কাছ থেকে আসায় আরো পারফরম‍্যান্স বা সার্ভিস না পাওয়ায় এই সিদ্ধান্ত নিতে বাধ্য হয়েছে।

আরও পড়ুন: IPL-এ অধিনায়ক হয়ে মন জিতলেন শুভমান গিল! ২৬/১১-র শহীদদের পরিবারকে যা বললেন শুনলে অবাক হবেন

বাংলাদেশী তারকায় না ভারতীয় ভক্তদের:

ভারতীয় দল বিশ্বকাপ ফাইনালে অস্ট্রেলিয়া বিরুদ্ধে হারার পর উগ্র উল্লাসে মেতেছিলেন বাংলাদেশের সমর্থকরা। সেই ভিডিওগুলি দেখে মনক্ষুন্ন হয়েছিলেন ভারতীয় ক্রিকেটপ্রেমীরা। ফলস্বরূপ অনেকেই এখন দাবি করছেন যে আইপিএলে আর কোনও বাংলাদেশ ক্রিকেটারদের সুযোগ দেওয়ার প্রয়োজন নেই।

আরও পড়ুন: মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সে ফিরলেন হার্দিক! সুযোগ বুঝে রোহিতের হাত বড় অস্ত্র ছিনিয়ে নিলো কোহলির RCB

কারা সুযোগ পাবেন আসন্ন IPL-এ?

এই মুহূর্তে খুব কম বাংলাদেশী এমন ক্রিকেটারই রয়েছেন যারা আইপিএলে সুযোগ পেতে পারেন। তৌহিদ হৃদয়ের মতো দুই তিনজন প্রতিভাবান ক্রিকেটার বাংলাদেশ দলে আছেন ঠিকই, কিন্তু তারা কোনও প্রথম সারির আইপিএল দলে সুযোগ পেতে পারে এমনটা হয়তো বাংলাদেশের ক্রিকেট ভক্তরাও জোর দিয়ে বলতে পারবেন না।