কথা দিয়েও BCCI-এর বড় সমস্যা দূর করতে পারলেন না রোহিত! বিশ্বকাপের আগে চিন্তায় ভক্তরা

   

বাংলা হান্ট নিউজ ডেস্কঃ ভারতীয় দল (Indian Cricket Team) এশিয়া কাপের (2023 Asia Cup) ফাইনালে পৌঁছে গিয়েছে। বিশ্বকাপের (2023 ODI World Cup) আগে এই টুর্নামেন্ট ভারতের জন্য ভালো প্রস্তুতি মঞ্চ হয়ে উঠেছে। নেপাল পাকিস্তান এবং শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে বেশ দাপট দেখেই জয় পেয়েছে ভারতীয় দল। ব্যাটিংয়ের পাশাপাশি বোলিং ইউনিটও ভদ্রস্থ পারফরম্যান্স করেছে। কিন্তু ভক্তদের মনে একটা প্রশ্ন থেকেই যাচ্ছে।

ভারতীয় দল এই মুহূর্তে পেস আক্রমণে জন্য ব্যবহার করছে বুমরা-সিরাজ জুটিকে। দুজনেই সেই ভরসার মান রেখেছেন। কিন্তু বাংলাদেশের বিরুদ্ধে ম্যাচে দুই তারকা পেসারকে বিশ্রাম দিয়ে মহম্মদ শামিকে দলে ফেরানো হয়েছে। দলে ফিরে নতুন বল হাতে নিজের প্রথম স্পেলে অসাধারণ বোলিং করেছেন এই তারকা ও অভিজ্ঞ ফাস্ট বোলার। বাংলাদেশের বিরুদ্ধে ভারতকে হারতে হলেও নতুন বল হাতে শামির বোলিং দেখে ভক্তরা দাবি করছেন তাকে যদি ভারত বিশ্বকাপে কাজে না লাগায় তাহলে সেটা ভারতেরই ক্ষতি। কিন্তু ভারতীয় দল গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচগুলিতে আপাতত তিনজন বিশেষজ্ঞ বোলার নিয়ে মাঠে নামছে। সিরাজ, বুমরা ও কুলদীপ ছাড়া বাকি যারা বোলিং করছেন তারা প্রত্যেকেই হলেন অলরাউন্ডার।

shami

শামিকে ব্যবহার করতে চাইলে রবীন্দ্র জাদেজা, অক্ষর প্যাটেল বা শার্দূল ঠাকুরের মধ্যে কাউকে একটা বেঞ্চে বসতে হবে। কিন্তু ঘরের মাটিতে আয়োজিত হতে চলা বিশ্বকাপে ভারতীয় দল কি তিন জেনুইন পেসার নিয়ে মাঠে নামবে? কারণ দলে ইতিমধ্যেই থাকছেন হার্দিক পান্ডিয়া। তার সঙ্গে সঙ্গে শার্দূল ঠাকুরও যদি দলে থাকেন কোনও কোনও ম্যাচে, তাহলে শামিকে নেওয়ার অর্থ ৫ পেসার নিয়ে নামা। ভারতের মাটিতে ৫ বা ৪ পেসার এবং ২ স্পিনার নিয়ে নামাটা কিছুটা বোকামিই হবে বলে মনে করছেন অনেকে।

আরও পড়ুন: পাত্তা পাচ্ছেন না কোহলি, রোহিত! বিশ্বকাপের আগে BCCI-এর প্রধান ভরসা এই তারকা

শার্দূল ঠাকুরকে পুরোপুরি অগ্রাহ্য করা যায় না কারণ তিনি বল হাতে চমকে দিয়ে উইকেট তোলায় পারদর্শী হয়ে উঠেছেন। সেট হওয়া পার্টনারশিপ ভাঙতে এই মুহূর্তে তার জুড়ি মেলা ভার। ভারতের মাটিতে আয়োজিত বিশ্বকাপে একজন অতিরিক্ত স্পিনারও দলে প্রয়োজন সেটা মানছেন অনেকেই। তাই অক্ষর প্যাটেলের উপস্থিতিও প্রয়োজনীয় হয়ে উঠতে পারে বেশ কিছু ম্যাচে, এমনটা ধারণা সকলের। আর এই মুহূর্তে ছন্দে না থাকলেও ব্যাট হাতে শার্দূলের চেয়ে অক্ষর যে বেশ কিছুটা এগিয়ে তা বাংলাদেশ ম্যাচে অসাধারণ ব্যাটিং করে তিনি প্রমাণ করে দিয়েছেন। চোটের কারণে এশিয়া কাপ ফাইনালে হয়তো তিনি থাকবেন না কিন্তু বিশ্বকাপের আগে সুস্থ হয়ে উঠবেন। তাই এই মুহূর্তে শামির ভারতীয় দলে জায়গা হওয়াটা কঠিন।

আরও পড়ুন: কোহলিকে দিয়ে জল বয়ানোর সিদ্ধান্ত কি সঠিক ছিল? কি বললেন রোহিত

এশিয়া কাপ আরম্ভ হওয়ার আগে ২০১১ ওডিআই বিশ্বকাপের উদাহরণ প্রাক্তন ভারতীয় কোচ রবি শাস্ত্রী বলেছিলেন যে সেই দলে অনেক এমন ক্রিকেটের ছিলেন যারা ব্যাটিংয়ের পাশাপাশি বল হাতেও গুরুত্বপূর্ণ পারফরম্যান্স করতে সিদ্ধহস্ত ছিলেন। এরপর এশিয়া কাপে বিরাট কোহলি এবং রোহিত শর্মা নিজেও প্রয়োজনে হাত ঘোরাবেন এমনটা ইঙ্গিত দিয়েছিলেন ভারতীয় অধিনায়ক রোহিত। এভাবেই একজন অতিরিক্ত বোলারের অভাব মেটানো হবে বলে মন্তব্য করেছিলেন তিনি। কিন্তু এই টুর্নামেন্টে এখনো অবধি রোহিত বা কোহলিকে হাত ঘোরাতে দেখা যায়নি। অর্থাৎ রোহিত সেই সমস্যার সমাধান করে উঠতে পারেননি।

 

Avatar
Reetabrata Deb

সম্পর্কিত খবর