অজি বোলিংকে ধ্বংস করে ঐতিহাসিক সেঞ্চুরি রুতুরাজের! টানা ৩ ম্যাচে ২০০-র গণ্ডি পার করলো ভারত

বাংলা হান্ট নিউজ ডেস্কঃ টসে হেরে ব্যাটিং করতে নেমে খুব দ্রুত দুই উইকেট হারিয়ে হোক ফিরে একবার ২০০ রানের গণ্ডি পার করলো ভারতীয় দল (Indian Cricket Team)। সৌজন্যে রুতুরাজ গায়কোয়াডের (Ruturaj Gaikwad) অসাধারণ সেঞ্চুরি। খুব দ্রুত যশস্বী জয়সাওয়াল এবং ঈশান কিষাণকে হারানোর পরে আজ নিজের খেলাই বদলে দিলেন তরুণ ভারতীয় ওপেনার। প্রথম ভারতীয় ক্রিকেটার হিসেবে টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে (India vs Australia) শতরান করে বিশ্বকাপের (2024 T20 World Cup) আগে ভারতীয় দল যে তাকে সম্পূর্ণরূপে উপেক্ষা করতে পারবেন না সেটা খুবই ভালো করে বুঝিয়ে দিলেন তিনি।

আজ সিরিজের ভাগ্য নির্ধারিত হবে?

   

ভারতীয় দল যদি আজকে জয় পায় তাহলে সিরিজ দুই ম্যাচ বাকি থাকতে যেতে নেবেন তারা। এমন অবস্থায় গুয়াহাটির বর্ষাপাড়া ক্রিকেট স্টেডিয়ামে টসে হেরে প্রথমে ব্যাটিং করতে নেমে ৩ ওভারের মধ্যে ২ উইকেট হারিয়ে ফেলেছিল ভারত। অধিনায়ক সূর্যকুমার শুরুটা ভালো করলেও আজ ৩৯ রানের ব্যক্তিগত স্কোরে ড্রেসিংরুমে ফেরেন। এমন অবস্থায় ভারতীয় দলকে একটা মজবুত স্কোর অবধি পৌঁছে দেওয়ার দায়িত্ব এসে পড়ে রুতুরাজের কাঁধে।

বিধ্বংসী গায়কোয়াড:

সুপার কিংসের হলুদ জার্সিতে তাকে অনেকবার বিধ্বংসী কিছু ইনিংস খেলতে দেখা দিয়েছে। তবে ভারতীয় দলের হয়ে নিজের প্রতিভার যথাযথ যোগ্যতার পরিচয় যেন বহু সুযোগ পেয়েও দিতে ব্যর্থই ছিলেন তিনি। কিন্তু আজ পরিস্থিতি যখন তার পরীক্ষা নিচ্ছে তখন সেই পরীক্ষায় সফলভাবে উত্তীর্ণ হলেন তিনি। ৩২ বলে নিজের হাফ সেঞ্চুরি পূরণ করেছিলেন। তারপর আরও ২৫ বল খেলে শেষপর্যন্ত ১২৩ রানের ব্যক্তিগত করে অপরাজিত থাকলেন। ভারতীয় দল স্কোরবোর্ডে তুললো ২২২ রান।

গতি পরিবর্তনে চমক:

আজকের মরণ-বাঁচন ম্যাচে অস্ট্রেলিয়া বেশ চাপে ফেলে দিয়েছিল ভারতকে। প্রথম দশ ওভারে নিজের ইনিংসের প্রথম ২১ বল খেলে কেবলমাত্র ২১ রান করেছিলেন তিনি। কিন্তু পরের দশ ওভারে তিনি নিজের হাতে খেলা ঘুরিয়ে দেন সম্পূর্ণরূপে। সূর্যকুমার যাদব ড্রেসিংরুমে ফেরার পর তাকে এই কাজে সাহায্য করেন তিলক ভার্মা। ৩১ রান করে অপরাজিত থাকেন তিনি।

শেষ ওভারে বদলে গেল খেলা:

রুতুরাজ গায়কোয়াড আজ অসাধারণ ব্যাটিং করলেও ভারতীয় দল যে শেষপর্যন্ত ২০০ রানের গণ্ডি টপকাতে পারবেন এমনটা অনেকেই ভাবেননি। কিন্তু অস্ট্রেলিয়ান অধিনায়ক মেথো ওয়েট শেষ ওভারে ম্যাক্সওয়েলকে বোলিং দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেন এবং সেই ওভারে ৩০ রান তুলে খেলার প্রেক্ষাপট পুরোপুরি পরিবর্তন করে দেন রুতুরাজ। এখন জিতে গেলে ম্যাক্সওয়েলদের ২০ ওভারে ২২৩ সাল তুলতে হবে।