টাইমলাইনখেলাক্রিকেট

ভারতের বিরুদ্ধে T-20 সিরিজ খেলতে এসে নবরাত্রির আনন্দ উদযাপন করছেন এই প্রোটিয়া তারকা

বাংলা হান্ট নিউজ ডেস্ক: বাংলায় পাঁচ দিনের দুর্গাপুজো চললেও দেশজুড়ে নবরাত্রির আনন্দ উদযাপন শুরু হয়ে গিয়েছে। নয় দিন ধরে চলবে শক্তির উৎসব। ইতিমধ্যেই উৎসব উপলক্ষ্যে মানুষের ভিড় চোখে পড়ার মতন। এরই মধ্যে নবরাত্রির প্রথম দিনে এক দক্ষিণ আফ্রিকান ক্রিকেটারও মন্দিরে গিয়েছিলেন মায়ের দর্শন করতে। এখানে প্রোটিয়া অলরাউন্ডার কেশব মহারাজের কথা বলা হচ্ছে। হিন্দু দেব-দেবী সম্পর্কে কেশবের মনে সবসময়ই বিশেষ ভক্তি ছিল, যা সকলেই জানেন

কেশব ভারতের বিরুদ্ধে তিন ম্যাচের টি-টোয়েন্টি এবং তারপরে ওডিআই সিরিজ খেলতে আসা দক্ষিণ আফ্রিকা দলের অংশ। তাকে সম্প্রতি তিরুবনন্তপুরমের পদ্মনাভস্বামী মন্দিরে প্রার্থনা করতে দেখা গিয়েছে। কেশব মহারাজ নিজেই সোশ্যাল মিডিয়ায় সকলকে নবরাত্রির শুভেচ্ছা জানিয়েছেন।

Keshav Maharaj,South Africa,Navratri,India vs South Africa

ডারবানে ৭ই ফেব্রুয়ারি ১৯৯০ সালে জন্মগ্রহণ করা কেশব মহারাজের পূর্বপুরুষ একসময় ভারতে থাকতেন। তাদের পরিবারকে ১৮৭৪ সালে উত্তর প্রদেশের সুলতানপুর থেকে কাজ করার জন্য দক্ষিণ আফ্রিকায় আনা হয়েছিল। কেশবের পরিবারে আপাতত চারজন সদস্য। তার নিজের বাবা-মা এবং একজন বোন রয়েছে, যিনি শ্রীলঙ্কার একজন ব্যক্তিকে বিবাহ করেছেন।

অনেকেই হয়তো শুনেছেন যে কেশব মহারাজের পিতা আত্মানন্দও একজন ক্রিকেটার ছিলেন, যিনি দক্ষিণ আফ্রিকার হয়ে ঘরোয়া ক্রিকেট অবধি খেলেছিলেন কিন্তু জাতীয় দলে খেলার সুযোগ পাননি। তার দাদুও ছিলেন ক্রিকেটার। কেশব মহারাজের পরিবার হনুমানজির একনিষ্ঠ সাধক। তাদের দক্ষিণ আফ্রিকার বাড়িতেও এই রীতিনীতি অনুসরণ করা হয়।

দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে টি-টোয়েন্টি সিরিজের প্রথম ম্যাচটি ২৮শে অক্টোবর তিরুবনন্তপুরমের গ্রিনফিল্ড স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত হবে। সেই ম্যাচে দেখা যেতে পারে কেশব মহারাজকে।

দক্ষিণ আফ্রিকা বনাম ভারত তিন ম্যাচের টি-২০ সিরিজের সূচি:
• প্রথম টি-টোয়েন্টি: ২৮শে সেপ্টেম্বর (বুধবার), তিরুঅনন্তপুরম
• দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টি: ২রা অক্টোবর(রবিবার), গুয়াহাটি
• তৃতীয় টি-টোয়েন্টি: ৪ঠা অক্টোবর (মঙ্গলবার), ইন্দোর

Related Articles