টাইমলাইনভারতখেলাক্রিকেট

কোহলির হয়ে ব্যাট ধরলেন কপিল দেব, বললেন পুরনো ফর্মে ফিরে এলে ৩০০ করবেন

বাংলা হান্ট ডেস্কঃ ভারত অধিনায়ক বিরাট কোহলি এই মুহূর্তে একটি ব্যাড প্যাচের মধ্য দিয়ে চলেছেন। গত বেশ কয়েকটি সফর ধরেই তার ব্যাট থেকে কোন শতরান আসেনি। ক্রমশ সময়টা আরও লম্বা হচ্ছে। অনেকেই আশা করেছিলেন ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে পাঁচ ম্যাচের দীর্ঘ সিরিজে হয়তো শতরানের খরা কাটবে। কিন্তু অর্ধশতরান এলেও কাঙ্ক্ষিত শত রান আসেনি কোহলির ব্যাট থেকে। যার জেরে আইসিসি র‍্যাঙ্কিংয়েও বেশ কিছুটা নিচে নেমে গিয়েছেন তিনি।

ফলত অনেকেই বলতে শুরু করেছেন অধিনায়কত্ব তার উপর অতিরিক্ত বোঝা হয়ে দাঁড়াচ্ছে। যার ফলে ব্যাটে রান আসছে না রান মেশিনের। তবে এই তত্ত্ব মানতে নারাজ ভারতের বিশ্বকাপজয়ী প্রাক্তন অধিনায়ক কপিল দেব। সম্প্রতি একটি অনুষ্ঠানে এ বিষয়ে কথা বলতে গিয়ে তিনি বলেন, “বিরাট কোহলি বহু বছর ধরে রান করেছেন এবং তখন কেউ বলেননি যে তার অধিনায়কত্ব ব্যাটিংয়ের উপর অনেক বেশি বোঝা তৈরি করছে। এখন হঠাৎ করে সকলের মতামত বদলে গেছে কারণ বেশ কিছুটা সময় ধরে তার ব্যাটিংয়ের গ্রাফ নিচে নেমে গিয়েছে। যখন তিনি ডাবল সেঞ্চুরি করেছিলেন এবং লাগাতার রান করেছিলেন তখন কি চাপ ছিল না?”

কপিল মনে করিয়ে দেন আসল কথা হল বয়স। ২৮ থেকে ৩২ বছর বয়সে যে কোন খেলোয়াড়ই তার চূড়ান্ত ফর্মের মধ্য দিয়ে যান। তারপর একটা সময়ের পর থেকে তার খেলা পরতে থাকে। তখন ফর্ম হারানো খুবই স্বাভাবিক। তবে কপিল আশাবাদী বিরাট আবার ফর্মে ফিরবেন এবং শুধু সেঞ্চুরি বা ডবল সেঞ্চুরি নয়, ট্রিপল সেঞ্চুরি করেও জবাব দেবেন তার সমালোচকদের।

কপিল বলেন, ‘স্পষ্টতই কোহলির গ্রাফ নিচে যাচ্ছে কিন্তু এটা কতদিন চলবে? ২৮ থেকে ৩২ বছর বয়সটা এমন, যখন আপনি সত্যিই ভাল পারফরম্যান্স দেন। এখন কোহলিও অভিজ্ঞ এবং পরিণত হয়েছেন। যদি তিনি তার পুরানো ফর্ম ফিরে পান, তিনি সেঞ্চুরি করবেন, ডাবল সেঞ্চুরি করবেন এবং ৩০০ রানও করবেন। কারণ তিনি অনেক পরিনত হয়েছেন এবং তার ফিটনেস খুব ভালো।” কপিলের মতে বড় ইনিংস আর কিছুদিনের মধ্যেই আসবে। কোহলির এই ব্যাড প্যাচ কেটে যেতে বেশি সময় লাগবে না, আর তখনই ফের একবার লাগাতার রানের বন্যা বইবে তার ব্যাট থেকে। তবে সর্মথকরা অবশ্যই আশা করবেন টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপেই ফের একবার ফর্ম ফিরে পান কোহলি। কাটুক ভারতের বিশ্বকাপ জয়ের খরা।

 

Related Articles

Back to top button