ক্রিকেটখেলাটাইমলাইন

ফের ক্রিকেট ম্যাচ চলাকালীন পাকিস্তানে জঙ্গি হামলা, এলোপাথাড়ি গুলি চালানো সন্ত্রাসবাদীরা

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ 2009 সালের সেই ভয়ঙ্কর হারহিম করা ঘটনা। যে ঘটনা এখনও পর্যন্ত ভুলতে পারেনি ক্রিকেটবিশ্ব। যে ঘটনা পুরোপুরিভাবে নাড়িয়ে দিয়েছিল ক্রিকেটপ্রেমীদের। পাকিস্তানের লাহোরে শ্রীলঙ্কা ক্রিকেট দলের ওপর হামলা চালায় জঙ্গিরা। সেই হামলায় প্রাণ হারিয়েছিলেন হাজার হাজার সমর্থক। ভাগ্য জোরে প্রাণে বেঁচে গিয়েছিলেন শ্রীলঙ্কান ক্রিকেটাররা। তবে শ্রীলঙ্কা ক্রিকেট দলের বেশ কয়েকজন ক্রিকেটার গুরুতর আহত হয়েছিলেন সেই জঙ্গি হামলায়।

সেই ঘটনার পর পাকিস্তানকে কার্যত নিষিদ্ধ করে দিয়েছিল ক্রিকেট বিশ্ব। সেই ঘটনার পর আর কোন ক্রিকেট খেলুড়ে দেশ পাকিস্তানে খেলতে যেতে রাজি হয়নি। দীর্ঘ 10 বছর পাকিস্তানে কোন আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ম্যাচ হয়নি। কোন ক্রিকেট খেলুড়ে দেশ পাকিস্তান সফরে যায়নি। অবশেষে 10 বছর পর পাকিস্তানের মাটিতে ক্রিকেট ফিরেছে। সেই শ্রীলঙ্কা দলই 2019 সালে পাকিস্তান সফরে গিয়েছিল।

সেই পাকিস্তানেই ক্রিকেট ম্যাচ চলাকালীন ফের জঙ্গী হামলা চলল। পাকিস্তানের খেবর প্রাখতনুখাওয়া প্রদেশের ওড়াকাইতে একটি ক্রিকেট টুর্নামেন্ট চলছিল, সেই সময় হঠাৎই জঙ্গি হামলা হয়। এইদিন এই টুর্নামেন্টের ফাইনাল ম্যাচ ছিল। এরফলে মাঠে উপস্থিত ছিলেন বেশ কয়েকজন রাজনৈতিক নেতৃত্ব, মিডিয়াকর্মীসহ হাজার হাজার দর্শক। আর সেই সময় আচমকাই জঙ্গিরা মাঠের ভেতর অবাধ গুলি চালাতে শুরু করেন। ভয়ে আতঙ্কে প্রাণ বাঁচানোর জন্য সকলে দৌড়াদৌড়ি শুরু করেন সকলে। কোনোক্রমে প্রাণে বেঁচে গিয়েছেন সেখানে উপস্থিত থাকা প্রধান অতিথি হাজি কাশিম গুল। এই ঘটনায় পুরো পাকিস্তান জুড়ে ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে।

Back to top button
Close