fbpx
টাইমলাইনভারতরাজনীতি

রাজ্যের কাছে এখন টাকা নেই, মহার্ঘ ভাতা দিতে সময় লাগবেঃ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ রাজ্য সরকারি কর্মচারীদের মহার্ঘ ভাতা (DA) নিয়ে আবারও প্রশ্নের মুখে পড়তে হল মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে (Mamata Banerjee)। বেশ কিছুদিন ধরেই চলতে থাকা এই সমস্যার জন্য আবারও তাঁকে কাঠগড়ায় দাঁড় করাল বিরোধীপক্ষ। ১৭ শতাংশ বকেয়া মহার্ঘ ভাতা দিতে বেশ কিছুটা সময় লাগবে বলেও জানান তিনি।

শুক্রবার বিধানসভায় (The West Bengal Legislative Assembly) মহার্ঘ ভাতা নিয়ে মুখ্যমন্ত্রীর বিরুদ্ধে সরব হন বিরোধীরা। বিরোধীদের জবাবে তিনি জানান, ‘কেন্দ্রের সঙ্গে রাজ্যের তুলনা করলে চলে না। কেন্দ্রের কাছে একটা রিজার্ভ ব্যাঙ্ক রয়েছে। ওঁদের কাছে টাকার হুন্ডি আছে। তাই কেন্দ্র সরকার (The central government) বছরে দু’বার ডিএ দিতে পারলেও রাজ্য সরকার তা কখনই দিতে পারবে না। বর্তমানে রাজ্যের কাছে সেই পরিমাণ টাকা নেই।’ তিনি দাবি করেন, এখনও রাজ্যের প্রাপ্য ৩৮ হাজার কোটি টাকা দেয়নি মোদী সরকার। এমনকি সংশোধিত বাজেটের ১১ হাজার কোটি টাকা দেয়নি কেন্দ্র সরকার। ফলে রাজ্যের কাছে টাকার এখন একটু সমস্যা রয়েছে।

তিনি আরও বলেন, একবারে এই মহার্ঘ ভাতা দেওয়া সম্ভব নয়। এর আগেই সরকারী কর্মচারীদের বেতন বাড়ানো হয়েছে। বাকী থাকা মহার্ঘ ভাতা দিতে একটু সময় লাগবে। আস্তে আস্তে ধাপে ধাপে দেওয়া হবে বলে জানায় তিনি। ‘একবারে এত টাকা দিতে পারব না। রাজ্যের কাছে এখন অতো টাকা নেই’- এমনটা সবার সামনে সরাসরি জানিয়ে দেন তিনি।

এই ঘটনার জেরে তিনি জানান, ষষ্ঠ বেতন কমিশনের সুপারিশ মেনে নেওয়া হয়েছে নবান্ন থেকে। ইতিমধ্যে কর্মচারীদের ১২৫ শতাংশ ডিএ মিটিয়েও দেওয়া হয়েছে। মমতা বন্দ্যোপাধায় দাবী করেন তৃণমূল সরকার ক্ষমতায় আসার আগে ৯০ শতাংশ মহার্ঘ ভাতা বাকি ছিল।

Back to top button
Close
Close