মহাকাশেও ধ্বজ উড়ল টাটা গ্রুপের, সরকারের সঙ্গে মিলে করল এই বিরাট কাজ

   

বাংলা হান্ট ডেস্ক: লবণ তৈরি থেকে শুরু করে একদম বিমান পরিষেবা, প্রতিটি ক্ষেত্রেই নিজের উপস্থিতি বজায় রেখেছে টাটা গ্রুপ (Tata Group)। তবে, এবার টাটা গ্রুপ মহাকাশ খাতেও একটি গুরুত্বপূর্ণ অংশীদারিত্ব অর্জন করেছে। মূলত, টাটা গ্রুপের কোম্পানি টাটা প্লে (পূর্বে টাটা স্কাই নামে পরিচিত) এখন মহাকাশে স্যাটেলাইটের ক্ষেত্রে তার উপস্থিতি জোরদার করেছে।

উল্লেখ্য যে, ইতিমধ্যেই সংস্থাটি ভারত সরকারের “মেক ইন ইন্ডিয়া’ লক্ষ্যের সাথে সঙ্গতিপূর্ণ, মহাকাশ বিভাগের সংস্থা NSIL (Newspace India Limited)-এর সহযোগিতায় ২০২২ সালের জুন মাসে GSAT-24 স্যাটেলাইট লঞ্চ করেছিল। এবার টাটা প্লে সোমবার থেকে কক্ষপথে স্থিত এই স্যাটেলাইট ব্যবহার শুরু করার ঘোষণা করেছে।

হবে এই লাভ: সোমবার নতুন দিল্লির ছাতারপুরে টাটা প্লে ব্রডকাস্ট সেন্টারে এই ঘোষণা করেছে সংস্থাটি। এই অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রকের সচিব অপূর্ব চন্দ্র এবং ISRO-র চেয়ারম্যান এস. সোমনাথ সহ আরও অন্যান্য বিশিষ্ট ব্যক্তিরা। সেখানে জানানো হয় যে, এখন টাটা প্লে-র ব্যান্ডউইথ ক্ষমতা উল্লেখযোগ্যভাবে বৃদ্ধি পেয়েছে। এই বর্ধিত ব্যান্ডউইথের সাথে, কোম্পানি তার ব্যবহারকারীদের আরও ভালো ছবি এবং সাউন্ড প্রদান করতে সক্ষম হবে। এছাড়াও, টাটা প্লে এখন সব DTH প্ল্যাটফর্মের মধ্যে সবথেকে বড় স্যাটেলাইট ব্যান্ডউইথ প্রদানকারী হয়ে ৫০ শতাংশ বেশি চ্যানেল সম্প্রচার করতে সক্ষম হবে বলেও জানা গিয়েছে।

আত্মনির্ভর ভারতের দিকে শক্তিশালী পদক্ষেপ: এই অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখতে গিয়ে তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রকের সচিব অপূর্ব চন্দ্র বলেন যে, GSAT-24-এর সফল উৎক্ষেপণের জন্য মহাকাশ বিভাগ এবং টাটা প্লে-কে অভিনন্দন। এই ঘটনা মহাকাশ ও যোগাযোগের ক্ষেত্রে আত্মনির্ভর ভারতের দিকে এটি আরও একটি পদক্ষেপ নিয়েছে। পাশাপাশি, ISRO-র চেয়ারম্যান এস. সোমনাথ বলেন, GSAT-24 হল একটি ৪ টন শ্রেণির কমিউনিকেশন স্যাটেলাইট। যা DTH পরিষেবা প্রদানের জন্য ডিজাইন করা হয়েছে। এটি তার সর্বোচ্চ স্যাটেলাইট ক্ষমতা নিয়ে কাজ শুরু করেছে।

এদিকে, NSIL-এর চেয়ারম্যান এবং ম্যানেজিং ডিরেক্টর, রাধাকৃষ্ণান দুরাইরাজ জানিয়েছেন যে, GSAT-24 হল মহাকাশ খাতে সংস্কারের পরে NSIL-দ্বারা চালু করা প্রথম চাহিদা ভিত্তিক যোগাযোগ উপগ্রহ মিশন। GSAT-24 স্যাটেলাইট ভারতে স্যাটেলাইট টেলিভিশনের একটি নতুন যুগের সূচনা করতে প্রস্তুত। পাশাপাশি, তিনি আরও জানান, “মেক ইন ইন্ডিয়া” উদ্যোগের সাফল্য প্রমাণ করে, স্যাটেলাইটটি অত্যাধুনিক ডিজিটাল টিভি সম্প্রচারের ক্ষমতা সহ দেশীয় সম্প্রচার পরিষেবাগুলিকে সাহায্য করবে।

This time Tata is also expanding its power in space

GSAT-24: উল্লেখ্য যে, GSAT-24 হল একটি 24-কে ইউ ব্যান্ড কমিউনিকেশন স্যাটেলাইট। এটি শুধুমাত্র টাটা প্লে-এর DTH পরিষেবার জন্য ভারত সরকার লঞ্চ করেছে। এদিকে, NSIL হল মহাকাশ বিভাগের অধীনে থাকা একটি কেন্দ্রীয় পাবলিক সেক্টর এন্টারপ্রাইজ (CPSE) এবং মহাকাশ বিভাগের বাণিজ্যিক শাখা। GSAT-24 স্যাটেলাইটের সম্পূর্ণ ক্ষমতা তার প্রতিশ্রুতিবদ্ধ গ্রাহক টাটা প্লে-এর কাছে লিজ দেওয়া হয়েছে।

Sayak Panda
Sayak Panda

সায়ক পন্ডা, মেদিনীপুর কলেজ (অটোনমাস) থেকে মাস কমিউনিকেশন এবং সাংবাদিকতার পোস্ট গ্র্যাজুয়েট কোর্স করার পর শুরু নিয়মিত লেখালেখি। ২ বছরেরও বেশি সময় ধরে বাংলা হান্ট-এর কনটেন্ট রাইটার হিসেবে নিযুক্ত।

সম্পর্কিত খবর