এবার ইডির র‍্যাডারে জ্যোতিপ্রিয় ঘনিষ্ঠ কাউন্সিলর শ্রাবণী কাশ্যপি! তালিকায় আপ্ত-সহায়ক মৃন্ময়ও

   

বাংলা হান্ট ডেস্ক: রেশন দুর্নীতি (Ration Scam) কাণ্ডে ম্যারাথন জিজ্ঞাসাবাদের পর গ্রেফতার করা হয়েছে প্রাক্তন খাদ্যমন্ত্রী তথা রাজ্যের বর্তমান বনমন্ত্রী জ্যোতিপ্রিয় মল্লিককে (Jyotipriya Mallick)। তিন দিন রাখার পর সোমবার তাঁকে ছেড়েছে বেসরকারি হাসপাতাল। মঙ্গলবার সকাল থেকে টানা জেরা করা হচ্ছে বনমন্ত্রীকে (Forest Minister)।

আর এরমধ্যেই আরও একটি বিষয় সামনে এসেছে। দলের মহিলা কাউন্সিলরের (Councilor) নামেও কালো টাকা সাদা করা হয়েছে বলে সূত্রের খবর।

শুভেন্দু অধিকারী (Suvendu Adhikari) অভিযোগ করেছিলেন, দিঘাতে বেনামে জ্যোতিপ্রিয় মল্লিকের চারটি তিন তারা হোটেল রয়েছে। কিন্তু ওই হোটেলগুলির মালিকের খোঁজ করতে বারাসাতে পৌঁছয় এক সংবাদমাধ্যম। দেখা যায়, SAB উদ্যোগ নামে এক সংস্থা ওই হোটেলগুলির মালিক। ওই সংস্থার মালিক সম্রাট গুপ্ত। তিনি রোড কন্সট্রাকশন ব্যবসায়ী। যদিও সম্রাটের দাবি, তাঁর সঙ্গে জ্যোতিপ্রিয়র কোনও যোগ নেই। ওই হোটেলের আরও দুই মালিক অজয় দেব এবং শ্রাবণী কাশ্যপি (Srabani Kashyapi)। অজয়ও পেশায় কন্সট্রাকশন ব্যবসায়ী।

jyotipriya ed

কিন্তু কে এই শ্রাবণী কাশ্যপি? ইনি বর্তমানে তৃণমূলের কাউন্সিলর। এমনকী, জ্যোতিপ্রিয়র মেয়ে ও স্ত্রীয়ের সঙ্গে একাধিক সংস্থায় ডিরেক্টর পদে রয়েছেন তিনি। ইডি ইতিমধ্যেই রেশন দুর্নীতির তদন্তে নেমে একাধিক বিষয়ের হদিশ পেয়েছে। এদিকে এই শ্রাবণী কাশ্যপীর নাম উঠে আসায় এরও জল মাপছে এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট।

যদিও SAB উদ্যোগের দাবি, এই হোটেলের এক তৃতীয়াংশের অংশীদার ছাড়া শ্রাবণী কাশ্যপির সঙ্গে কোনও যোগ নেই তাদের। এমনকী, ওই সংস্থার অধ্যতম মালিক অজয় তৃণমূল কংগ্রেস করলেও জ্যোতিপ্রিয়র সঙ্গে ব্যবসায়িক কোনও লেনদেন নেই তাঁর।

Avatar
Monojit

সম্পর্কিত খবর