‘ব্যাঙ্কটাই উড়িয়ে দেব’, ম্যানেজারকে হুমকি, ভোটের আগে তৃণমূল নেতার দাপাদাপিতে প্রাণ ভয়ে কর্মীরা

বাংলা হান্ট ডেস্কঃ ব্যাঙ্কের ভেতর ঢুকে ব্যাঙ্ক ম্যানেজারকে প্রাণে মারার হুমকি! রাজ্যের শাসকদলের নেতা-কর্মীদের (TMC Leader) বিরুদ্ধে উঠেছে এমনই চাঞ্চল্যকর অভিযোগ। শনিবার দুপুর ১২টা নাগাদ ঘটনাটি ঘটেছে ধূপগুড়ি (Dhupguri) শহর থেকে ১০ কিমি দূরে ঝার আলতা এক নং গ্রাম পঞ্চায়েতের ডাউকিমারি বাজারের কাছে উত্তরবঙ্গ গ্রামীণ ব্যাঙ্কের শাখায়।

   

শনিবারই কেন্দ্রীয় বাহিনী ঢুকেছে জলপাইগুড়িতে। সাধারণ ভোটারদের অভয় বাড়ানোর জন্য তাঁরা রুট মার্চ করছেন। একদিকে আধা সেনারা যখন সাধারণ মানুষের আত্মবিশ্বাস বাড়ানোর চেষ্টা করছেন, তখন অন্যদিকে শাসকদলের নেতা-কর্মীদের বিরুদ্ধে উঠছে ব্যাঙ্ক ম্যানেজারকে (Bank Manager) খুনের হুমকি দেওয়ার অভিযোগ।

গতকাল দুপুরে ডাউকিমারি বাজারে ভান্ডানি জলঢাকা রোডে উত্তরবঙ্গ গ্রামীণ ব্যাঙ্কের শাখায় উপস্থিত হয়েছিলেন তৃণমূল কংগ্রেসের (Trinamool Congress) এক নেতা (ম্যানেজার তাঁর নাম প্রকাশ করতে চাননি)। তিনি অবশ্য একা ছিলেন না, সঙ্গে জনা দশেক কর্মী নিয়ে এসেছিলেন বলে জানিয়েছেন ম্যানেজার। তাঁরা প্রশ্ন করেন, ঋণ খেলাপিদের ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট কেন ব্লক করে রাখা হয়েছে? এরপর দাবি জানান, অ্যাকাউন্ট ব্লক করে রাখলে হবে না। তাঁদেরও টাকা তোলার সুবিধা প্রদান করতে হবে।

শুধু এই দাবি জানিয়েই থেমে থাকেননি তাঁরা। সঙ্গে চলতে থাকে অকথ্য কটূক্তি। ব্যাঙ্ক ম্যানেজার অভিরূপ নস্কর তাঁদের বারবার বোঝানোর চেষ্টা করেন, এটা ব্যাঙ্কের পদ্ধতিগত বিষয়। ম্যানেজারের হাতে কিছু নেই। তবে সেসব কথা নাকি কানে তোলেননি তৃণমূলের নেতা-কর্মীরা। উত্তেজিতভাবে কটূক্তি করতে থাকেন। এখানেই শেষ নয়, একজন নাকি সরাসরি হুমকি দিয়ে বলেন, ‘আমাদের কথা না শোনা হলে বাড়ি ফেরার পথে ডাম্পার চাপা দিয়ে মেরে ফেলবো’।

tmc leader threatens bank manager

আরও পড়ুনঃ ‘প্রার্থী হতে পারব না কারণ…’, ২৪ ঘণ্টার মধ্যেই সরে দাঁড়ালেন ভোজপুরী শিল্পী পবন, চাপে BJP?

ভোটের সময় ‘রাজনৈতিক ইস্যু’ করে দেওয়া এবং ব্যাঙ্ক উড়িয়ে দেওয়ার হুমকিও দেওয়া হয় বলে খবর। ব্যাঙ্ক উড়িয়ে দিলে আর ম্যানেজারের দরকারই হবে না, বলেন তাঁরা! দিনেদুপুরে ব্যাঙ্কের ভেতর এমন ঘটনা ঘটায় চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে এলাকায়। প্রাণের ভয়ে কয়েকটি অ্যাকাউন্ট আনব্লক করে দেন ম্যানেজার অভিরূপ নস্কর। তিনি বলেন, ‘আমরা, ব্যাঙ্কের কর্মীরা ভীষণ আতঙ্কে আছি। ব্যাঙ্কের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের সমস্ত বিষয় জানানো হয়েছে’। এই প্রসঙ্গে তৃণমূলের জেলা সম্পাদক অরূপ দে বলেন, ‘সত্যিই যদি এমন ঘটনা ঘটে তাহলে দল ব্যবস্থা নেবে’। আইন আইনের পথেই হাঁটবে বলে জানিয়েছেন তিনি।

Sneha Paul
Sneha Paul

স্নেহা পাল, যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্নাতকোত্তরের পর সাংবাদিকতা শুরু। বিগত প্রায় ২ বছর ধরে বাংলা হান্ট-এর কনটেন্ট রাইটার হিসেবে নিযুক্ত।

সম্পর্কিত খবর