আবহাওয়াটাইমলাইন

ঘূর্ণাবর্তের জেরে উধাও শীত, কনকনে ঠাণ্ডা পড়ার দিনক্ষণ জানিয়ে দিল আবহাওয়া দফতর

বাংলাহান্ট ডেস্কঃ আচমকাই উধাও শীত। বেলা বাড়তেই বেশ গরম অনুভূত হচ্ছে। শীতের বদলে এখন আবহাওয়ার (Weather) শিরোনামে জায়গা নিচ্ছে ঘূর্ণাবর্ত। সর্বনিম্ন তাপমাত্রা কমার বদলে দু এক ডিগ্রি করে বেড়ে যাচ্ছে। সেইসঙ্গে দিনের বেলা আগের মতন আর শীত অনুভূতও হচ্ছে না।

আজকের আবহাওয়া
ধারণা করা হয়েছিল, কালী পুজোর রাতে গরম পোশাক পড়েই ঠাকুর দেখতে বেরোতে হতে পারে বাংলার মানুষকে। কিন্তু ঘূর্ণাবর্তের প্রভাবে বাংলার সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ধীরে ধীরে এক দু ডিগ্রি করে বৃদ্ধি পাচ্ছে। তাপমাত্রার পারদ কমার বদলে উল্টে বেড়ে গিয়েছে। হালকা গরম ফিরে এসেছে সাময়িকভাবে।

আজকের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা থাকবে ৩৩ ডিগ্রি সেলসিয়াসের আশেপাশে এবং সর্বনিম্ন তাপমাত্রা থাকবে ২১ ডিগ্রি সেলসিয়াসের আশেপাশে। আজ আবহাওয়াবিদরা জানিয়েছেন, বাংলার আকাশে সকালের দিকে মূলত আবছা রোদ থাকবে এবং রাতের দিকেও আবছা আকাশ থাকার সম্ভাবনা রয়েছে।

কাটেনি ঘূর্ণাবর্তের অবস্থান
আন্দামান নিকোবর দ্বীপপুঞ্জে আবহাওয়া শুকনো থাকলেও হালকা বৃষ্টি হয়েছে। আগের সৃষ্টি হওয়া ঘূর্ণাবর্ত এখনও পূর্ব বিহার এবং সংলগ্ন এলাকায় সমুদ্র পৃষ্ঠ থেকে প্রায় ৩.১ থেকে ৩.৬ কিমির মধ্যে বর্তমান। আবার আবহাওয়া দফতর জানাচ্ছে, একটি পশ্চিমী ঝঞ্ঝা বৃহস্পতিবার নাগাদ ভারতবর্ষে ঢুকতে পারে। যার জেরে আবহাওয়ার (Weather) কিছুটা পরিবর্তন হতে চলেছে।

বাংলার আবহাওয়া
বাংলার উত্তরে এবং দক্ষিণে বর্তমান বৃষ্টির কোন পূর্বাভাস দিচ্ছে না আবহাওয়াবিদরা। তবে মেঘলা আবহাওয়া থাকার কারণে গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গের তাপমাত্রা কিছুটা বাড়তে পারে বলে আভাস দিয়েছে হাওয়া অফিস। প্রায় ২-৩ ডিগ্রি তাপমাত্রা বাড়তে পারে।

Back to top button