বাড়বে দুর্যোগের প্রভাব, একের পর এক ঝড়ে ফুঁসে উঠবে গঙ্গা! দেখুন, কলকাতার কী হতে পারে

বাংলাহান্ট ডেস্ক : আগামী কয়েক বছরের মধ্যে এশিয়ার দেশগুলিতে আসতে চলেছে ভয়ানক সব ঝড়। সাম্প্রতিককালে করা একটি সমীক্ষা এই তথ্যই জানিয়েছে। বলা হচ্ছে এশিয়ার বিভিন্ন নদীতে সৃষ্ট এই ঝড়গুলি ধারণ করবে ভয়ংকর রূপ। এই তালিকায় নাম রয়েছে আমাদের গঙ্গারও। সমীক্ষার রিপোর্ট অনুযায়ী, ২০৫০ সালের মধ্যে আরো ২০ শতাংশ তীব্র হবে গঙ্গার ক্রান্তীয় এলাকার ঝড়গুলি।

সম্প্রতি এমনই চাঞ্চল্যকর তথ্য জানিয়েছে নিউক্যাসল বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষণা। ‘জার্নাল জিওফিজিক্যাল রিসার্চ লেটার’-এ প্রকাশিত এই রিপোর্টে বলা হয়েছে, ভবিষ্যতে ঝড়ের তীব্রতা বৃদ্ধি পেলেও কমতে পারে এর সংখ্যা। এবার আপনাদের মনে প্রশ্ন আসতেই পারে কী এই ট্রপিকল স্টম বা ক্রান্তীয় ঘূর্ণিঝড় ? একটি সুনির্দিষ্ট নিম্নচাপ কেন্দ্র থাকে ক্রান্তীয় ঘূর্ণিঝড়ের।

   

আরোও পড়ুন : পর্যটকদের জন্য দীঘায় এবার আরও চমক! নয়া উদ্যোগ প্রশাসনের, আনন্দে লাফাবেন আপনি

সেই নিম্নচাপের থেকে ঘটে প্রচুর পরিমাণ বৃষ্টি। এই ক্রান্তীয় ঘূর্ণিঝড়ের উদাহরণ হল হারিকেন, টাইফুন, সাইক্লোন। ভারত এবং দক্ষিণ প্রশান্ত মহাসাগরে সৃষ্ট ঘূর্ণিঝড়গুলিকে বলা হয় শক্তিশালী সাইক্লোন এবং উত্তর পশ্চিম প্রশান্ত মহাসাগরে সৃষ্ট ক্রান্তীয় ঘূর্ণিঝড়কে বলা হয় টাইফুন। গোটা বিশ্বে প্রতি বছর প্রায় ৯০ টির কাছাকাছি ক্রান্তীয় ঘূর্ণিঝড় হয়ে থাকে।

আরোও পড়ুন : নগদ ২৬১০০০০০! ঘরভর্তি শুধুই কাঁড়ি কাঁড়ি টাকা, ফের কুবেরের ধন উদ্ধার করল CBI

সেক্ষেত্রে প্রতি ঘন্টায় ৬০ কিলোমিটার পর্যন্ত বইতে থাকে হাওয়া। আবহাওয়া বিশেষজ্ঞ তথা লেখক হেলি ফলার এই প্রসঙ্গে বলেছেন, “এই ধরনের বৃষ্টি ও ঝড়ের ফলে ক্ষয়ক্ষতির সম্ভাবনা থাকে প্রচুর। নষ্ট হয় বিপুল পরিমাণ সম্পত্তি। মানবজাতির পক্ষে এই ঘটনা অত্যন্ত ভয়ের।” তবে বিভিন্ন গবেষণায় বিজ্ঞানীরা দাবি করেছেন এই মুহূর্তে তাদের প্রধান চিন্তার কারণ পৃথিবীর জলস্তর বৃদ্ধি।

image 246729 1622038977

লেখক হায়দার আলির মতে, “ক্রান্তীয় ঘূর্ণিঝড়ের চরিত্র বদলের ব্যাপারে যদি আগে থেকে ধারণা থাকে তাহলে ক্ষয়ক্ষতি অনেকটাই কমানো সম্ভব হয়।” জলবায়ু বিশেষজ্ঞরা বলছেন, পৃথিবীর সব দেশ একত্রিত হয়ে গ্রিনহাউস গ্যাস নির্গমনের মোকাবিলা না করতে পারে তাহলে অদূর ভবিষ্যতে ভয়ংকর কিছু অপেক্ষা করছে পৃথিবীর জন্য।

Avatar
Soumita

আমি সৌমিতা। বিগত ৩ বছর ধরে কর্মরত ডিজিটাল সংবাদমাধ্যমে। রাজনীতি থেকে শুরু করে ভ্রমণ, ভাইরাল তথ্য থেকে শুরু করে বিনোদন, পাঠকের কাছে নির্ভুল খবর পৌঁছে দেওয়াই আমার একমাত্র লক্ষ্য।

সম্পর্কিত খবর