খরচ সামলাতে হিমশিম! বেসরকারি হাতে যুব আবাস তুলে দিচ্ছে পশ্চিমবঙ্গ সরকার

বাংলাহান্ট ডেস্ক : লক্ষ্য সরকারি খরচে লাগাম টানা। সেই উদ্দেশ্যে এবার বেসরকারি হাতে তুলে দেওয়া হচ্ছে রাজ্যের সমস্ত যুব আবাস। নবান্ন সূত্রে জানা গেছে, রাজ্যের ৩৪টি ইউথ হস্টেল ১৫ বছরের জন্য লিজ দেওয়া হবে বেসরকারি সংস্থাকে। সরকারি অধিকর্তারা জানাচ্ছেন এর ফলে আরও উন্নত হবে যুব আবাসের পরিষেবা এবং সরকারের হাতে ভাড়া বাবদ আসবে অর্থ।

   

সরকারের উদ্যোগে কলকাতা সহ একাধিক জায়গায় ইয়ুথ হোস্টেল খোলা হয়েছিল ছাত্র-ছাত্রীদের বসবাসের জন্য। রাজ্য ক্রীড়া ও যুবকল্যাণ দপ্তর এইসব যুব আবাসের দেখাশোনার দায়িত্বে রয়েছে। এই দপ্তরের আধিকারিকরা দাবি করেছেন, সরকারের প্রতিবছর যুব আবাসগুলির রক্ষণাবেক্ষণের জন্য কোটি কোটি টাকা খরচ হয়। সেই সাপেক্ষে খুবই সামান্য টাকা রোজগার হয় সরকারের।

আরোও পড়ুন : উচ্চমাধ্যমিক পাশ? মাস গেলে মোটা মাইনের কাজের সুযোগ মিলবে ভারতীয় রেলে! আবেদন করুন আজই

অর্থ দপ্তরের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে যুব আবাসের জন্য ফি বছর লাগামহীন খরচ করা যাবে না।নিজেদেরকেই জোগাড় করে নিতে হবে খরচ। কিন্তু সরকারি ব্যবস্থাপনায় রোজগার বাড়ানো প্রায় অসম্ভব। সেই জন্য সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বেসরকারি হাতে তুলে দেওয়া হবে যুব আবাস। ন্যূনতম ৫০ বেডের কোনও হোটেল, লজ, গেস্ট হাউস বা রেস্তরাঁ চালানোর ৫ বছরের অভিজ্ঞতা রয়েছে এমন সংস্থাকে এই দায়ভার দেওয়া হবে। 

homeless 1

এছাড়াও কিছু শর্ত তাদের মেনে চলতে হবে। শর্তে বলা হয়েছে শুধুমাত্র পর্যটকদেরই ভাড়া দেওয়া যাবে যুব আবাস। শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রতিনিধি বা ছাত্র-যুবরা ৫০ শতাংশ কনসেশন পাবেন ভাড়ায়। দপ্তরের মনোনীত অতিথিদের জন্যে দু’টি বাতানুকূল রুম রেখে দিতে হবে আলাদাভাবে। রাখতে হবে ক্যান্টিনের সুবিধা। জঞ্জাল সাফাই, অগ্নিনির্বাপণ এবং ছোটখাট রক্ষণাবেক্ষণের কাজ এই সংস্থাকেই করতে হবে।