মৎস্যজীবীদের হাতেই ধরা দিলেন মহাদেব! সমুদ্রে মিলল ১০০ কেজির শিবলিঙ্গের সন্ধান, ভাইরাল ভিডিও

বাংলা হান্ট ডেস্ক: এবার গুজরাটের (Gujarat) ভারুচের (Bharuch) সমুদ্রে সন্ধান মিলল সাক্ষাৎ মহাদেবের। মূলত, সেখানে সমুদ্র থেকে একটি বিশাল শিবলিঙ্গের সন্ধান পাওয়া গেছে। সবথেকে অবাক করার মতো বিষয় হল ওই শিবলিঙ্গের ওজন প্রায় এক কুইন্টাল। মূলত, জেলেরা সাগরে মাছ ধরতে যাওয়ার সময়ে ওই শিবলিঙ্গ কোনোভাবে তাদের জালে আটকা পড়ে।

   

এমতাবস্থায়, জেলেরা অনেক পরিশ্রমের পর ওই শিবলিঙ্গ সমুদ্রের তীরে নিয়ে আসেন। যেটি দেখার জন্য আশেপাশের এলাকা থেকে বিপুল মানুষ ভিড় জমান। এমনকি, পরিস্থিতি এতটাই বেগতিক হয়ে যায় যে, ভিড় নিয়ন্ত্রণে পুলিশও মোতায়েন করা হয়।

প্রথমে সবাই ভেবেছিলেন কোনো বড় মাছ আটকে আছে: এই প্রসঙ্গে প্রাপ্ত তথ্য অনুযায়ী জানা গিয়েছে যে, এই ঘটনাটি গুজরাটের জাম্বুসার তহসিলের কাভি গ্রামে ঘটেছে। সেখানে দশজন জেলে সাগরে মাছ ধরছিলেন। সেই সময়ে জাল ফেলার সঙ্গে সঙ্গে কিছুটা টান অনুভব করেন তাঁরা। এমতাবস্থায়, তাঁরা ভেবেছিল হয়তো কোনো বড় মাছ জালে আটকা পড়েছে। জালটি অত্যন্ত ভারী হয়ে যায়। কোনোরকমে জাল তোলার পর প্রথমে তাঁরা একটি ভারী পাথর দেখতে পান। তারপরে নৌকোয় জালটি সম্পূর্ণভাবে আনা হলে সবাই অবাক হয়ে যান। কারণ, সেই পাথরটি ছিল একটি শিবলিঙ্গের আকারে।

আরও পড়ুন: ভারতের ক্রমবর্ধমান শক্তি ফের হল স্পষ্ট! ৩ বছর পরেই এই পরিসংখ্যানে চিনকে হারাবে আমাদের দেশ

বিপুল মানুষের ভিড় জমে যায়: অত্যন্ত ভক্তির সাথে জেলেরা ওই শিবলিঙ্গকে তীরে নিয়ে আসেন। পাশাপাশি, এই খবর গ্রামে দাবানলের মতো ছড়িয়ে পড়ে। তারপরে বিপুল সংখ্যক মানুষ শিবলিঙ্গ দেখতে ঘটনাস্থলে পৌঁছে যান। ভিড় বাড়লে বিষয়টি পুলিশকে জানানো হয়। তবে, এই সামগ্রিক ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে একটাই প্রশ্ন উঠে আসছে যে, সমুদ্রে এই বিরাট শিবলিঙ্গ কোথা থেকে এল?

আরও পড়ুন: যাত্রীরা হন সতর্ক! ট্রেনে মোবাইল চার্জ দেওয়ার আগে অবশ্যই জানুন এই নিয়ম, নাহলেই সফরে বাড়বে বিপদ

স্থানীয়রা কি জানিয়েছেন: বিষয়টি জানতে পেরে জেলা প্রশাসনের লোকজনও ঘটনাস্থলে পৌঁছে বিষয়টি খতিয়ে দেখেন। জানা গিয়েছে, সাম্প্রতিক বড় জোয়ারের কারণে এই শিবলিঙ্গটি জলের পৃষ্ঠের ওপরে চলে এসেছে। যার ফলে ওই শিবলিঙ্গ জেলেদের জালে আটকা পড়ে। এছাড়া শিবলিঙ্গে নাগের চিহ্নও পাওয়া গেছে বলে স্থানীয় লোকজন জানিয়েছেন। স্থানীয় ধর্মীয় সংগঠনগুলি এখন কাভি গ্রামের কাছাকাছি কোথাও এটি স্থাপনের বিষয়ে আলোচনা করছে। পাশাপাশি, কোন পাথর থেকে এই শিবলিঙ্গ তৈরি হয়েছে তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।