মোহনবাগানের অভিযোগকেই মান্যতা! ইস্টবেঙ্গলকে কড়া শাস্তি ও জরিমানা AIFF-র, খোয়া গেল পয়েন্টও

বাংলা হান্ট ডেস্ক : ইয়ুথ লিগে (Kolkata Derby) জিতে গিয়েও দাগ লেগে গেল ইস্ট বেঙ্গলের (East Bengal FC) গায়ে। সেই সাথে ৬০ হাজার টাকার জরিমানাও দিতে হবে বলে খবর‌। মোহনবাগানের (Mohun Bagan) অভিযোগের ভিত্তিতে এবার সর্বভারতীয় ফুটবল ফেডারেশনের মোটা অঙ্কের জরিমানা করল লাল-হলুদকে। সেই সাথে ৬ খেলোয়াড়কে দেওয়া হল নির্বাসন। সবে মিলিয়ে বছরের শুরুতেই কড়া শাস্তির মুখে লাল হলুদ।

   

ইয়ুথ লিগে মোহনবাগানের বিরুদ্ধে ৪-০ গোলে জিতেও ৩ পয়েন্ট খুইয়েছে ইস্ট বেঙ্গল। সূত্রের খবর,অনূর্ধ্ব ১৭ যুব লিগের ডার্বিতে ইস্টবেঙ্গলের বিরুদ্ধে বয়স ভাঁড়ানোর অভিযোগ তুলেছে মোহনবাগান। সেই সাথে অভিযোগ উঠেছে আধার কার্ড জাল করারও। সূত্রের খবর, দীর্ঘ তদন্তের পর মোহনবাগানের অভিযোগকে মান্যতা দিয়েই ইস্টবেঙ্গলকে কড়া শাস্তির বিধান দিয়েছে এআইএফএফ।

জানা গিয়েছে, লাল-সবুজের অভিযোগের ভিত্তিতে অনিকেত করকে ৪ বছরের জন্য নির্বাসিত করতে চলেছে জাতীয় ফুটবল ফেডারেশন। নির্বাসিত ৬ ফুটবলারের মধ্যে একজন পূর্বে মোহনবাগানের হয়ে খেলত বলে খবর। ইয়ুথ লিগের আগে নাম ভাঁড়িয়ে নকল আধার কার্ড দিয়ে রেজিস্ট্রেশন করিয়েছিলেন তিনি। তবে নিজের নাম বদলালেও, বাবার নাম পরিবর্তন করা হয়নি। এই অপরাধের জন্য ইস্টবেঙ্গলকে ৬০ হাজার টাকার জরিমানাও করা হয়েছে বলে খবর।

আরও পড়ুন : ভোটের আগেই লাগু হবে CAA? পুরোদস্তুর তৈরি পোর্টাল! নাগরিকত্ব দেওয়ার পথে ভারত সরকার

কী অভিযোগ মোহনবাগানের?

মোহনবাগানের অভিযোগ, আজ থেকে বছর ছয়েক আগে অনূর্ধ্ব-১৩ দলে খেলেছিলেন অনিকেত। সেই সময় তিনি মোহনবাগানের হয়ে খেলেছিলেন দাবি লাল-সবুজের। তাহলে ৬ বছর পরে তিনি অনূর্ধ্ব-১৭ দলে খেলেন কীভাবে? এছাড়াও তার নাম নিয়েও আপত্তি জানিয়েছিল মোহনবাগান। শোনা যাচ্ছে, পূর্বে নাকি তিনি অনীক কর নাম নিয়ে মাঠে নেমেছিলেন।

আরও পড়ুন : ‘WBCS-এ উর্দু, হিন্দি চাইলে ওয়াইসি-যোগীকে মুখ্যমন্ত্রী করতাম’! মমতার উপর রেগে বোম বাংলা পক্ষ

19326 thumbnail t5d

ঘটনাপ্রসঙ্গে ক্লাব কর্তৃপক্ষের দাবি, ‘কোনও ফুটবলার যদি জাল কাগজপত্র জমা দেয় তা হলে ক্লাবের কী করার আছে? আমাদের এতে কোনও দোষ নেই।’ যদিও সমালোচনা তো হচ্ছেই। ফুটবল দুনিয়ার লোকজনদের দাবি, যখন রেজিস্ট্রশন হচ্ছিল তখন কি বিষয়টি খতিয়ে দেখেনি ক্লাব কর্তারা? সেই সাথে পরামর্শ, ক্লাব কর্তৃপক্ষদের আরও যত্নবান হওয়া উচিত।