জ্ঞানবাপীর পর এবার সার্ভে করা যাবে মথুরার শাহী ঈদগাহতেও! আর্জিতে সায় দিল হাইকোর্ট

বাংলাহান্ট ডেস্ক : একাধিক হিন্দুত্ববাদী সংগঠন দাবি করে আসছে শ্রীকৃষ্ণের আসল জন্মভূমি হচ্ছে শ্রীকৃষ্ণের মন্দির সংলগ্ন শাহী ইদগাহ (Shahi Idgah)। এবার এলাহাবাদ হাইকোর্ট সম্মতি দিল সেখানে সার্ভে করার জন্য। উচ্চ আদালতের পক্ষ থেকে আগামী সোমবার গঠন করা হবে সার্ভের প্যানেল। মথুরায় বেশ কিছু প্রাচীন মন্দির অবস্থিত।

   

বহু হিন্দু বিশ্বাস করেন এখানেই শ্রীকৃষ্ণের জন্ম হয়েছিল। শাহি ঈদগাহ মসজিদ সেই মন্দির চত্বরেই অবস্থিত। অনেক ইতিহাসবিদ দাবি করেছেন, ঔরঙ্গজেব এই মসজিদটি তৈরি করেছিলেন প্রাচীন কেশবনাথ মন্দির ভেঙে। এলাহাবাদ হাইকোর্টের পক্ষ থেকে মন্দির চত্বরের মালিকানা ১৯৩৫ সালে মথুরার রাজার কাছে সঁপে দেওয়া হয়।

আরোও পড়ুন : তিন গুন বাড়ল বিক্রি, কলকাতায় গীতা কিনতে চরম ভিড়! আসছে বিদেশের অর্ডার, কারণ অবাক করবে

বিশ্ব হিন্দু পরিষদের ঘনিষ্ঠ শ্রী কৃষ্ণভূমি ট্রাস্ট পর্যায়ক্রমে বর্তমানে এই চত্বরের অধিকারী। স্বাভাবিকভাবেই দুই ধর্মের মানুষদের মধ্যেই এই জায়গা নিয়ে তৈরি হয় সংঘাত। ১৯৬৮ সালে হওয়া একটি চুক্তির মাধ্যমে জমির মালিকানা হিন্দুদের হাতে থাকলেও মুসলিমরা মসজিদ রক্ষণাবেক্ষণের দায়িত্ব পায়।

98408408.cms

হিন্দুত্ববাদী সংগঠন হিন্দুসেনার তরফে বিষ্ণু গুপ্ত নামের এক ব্যক্তি গত বছর এই আবহে নিম্ন আদালতের দ্বারস্থ হয়েছিলেন। মুসলিম পক্ষের পক্ষ থেকে এর বিরোধিতা করে আদালতে যাওয়া হয়। এরপর উচ্চ আদালতে তরফ থেকে দেওয়া হল সার্ভে করার অনুমতি। ওয়াকিবহাল মহল মনে করছে আদালতের এই সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে মুসলিম সংগঠন দ্বারস্থ হতে পারে উচ্চ আদালতের।