ভেঙে পড়ল IAF প্রশিক্ষণ বিমান, দুর্ঘটনায় মৃত ২ দক্ষ পাইলট! কারণ ঘিরে রহস্য

বাংলা হান্ট ডেস্ক : ফের একবার দুর্ঘটনার কবলে ভারতীয় বায়ুসেনার বিমান (Indian Air Force) দুর্ঘটনা। সম্প্রতি তেলেঙ্গানার (Telangana) মেদক জেলার তুপ্রানের রাভেল্লি গ্রামের উপর ভেঙে পড়ে (IAF Aircraft Crash) একটি প্রশিক্ষণ বিমান। দুঃখজনকভাবে প্রশিক্ষণরত পাইলট এবং প্রশিক্ষক পাইলট দুজনেই নিহত হন এতে। উল্লেখ্য, বিমানটি দুন্ডিগুল এয়ার ফোর্স অ্যাকাডেমি থেকে একটি রুটিন প্রশিক্ষণের জন্য যাত্রা শুরু করেছিল।

   

মিডিয়া সূত্রে জানা যাচ্ছে, সোমবার সাত সকালে তেলেঙ্গানার দিন্দিগাল বায়ুসেনার প্রশিক্ষণ চলাকালীন ভেঙে পড়ে পিলাটাস ট্রেনার বিমান (IAF) Pilatus PC 7 Mk-II। দুর্ঘটনা কবলিত ঐ বিমানে ছিলেন এক ক্যাডেট এবং প্রশিক্ষক। দুর্ঘটনায় নিহত হয়েছেন দুজনেই। তবে দুর্ঘটনার জেরে স্থানীয় কারও হতাহতের খবর এখনও পাওয়া যায়নি।

এইদিন কেন্দ্রীয় প্রতিরক্ষা মন্ত্রী রাজনাথ সিং সোশ্যাল মিডিয়া হ্যান্ডেল এক্স-এ দুঃখ প্রকাশ করে লেখেন, ‘হায়দ্রাবাদের কাছে এই দুর্ঘটনায় মর্মাহত। এটা খুবই দুঃখজনক যে দুই পাইলট প্রাণ হারিয়েছেন। এই দুঃখজনক সময়ে, আমার চিন্তা শোকাহত পরিবারের সঙ্গে রয়েছি’। পাশাপাশি দুজন দক্ষ পাইলট হারানোর পর থেকেই শোকের ছায়া নেমেছে দেশজুড়েও।

আরও পড়ুন : আবারও মুখ পুড়ল বামেদের! ইয়েচুরির তেলেঙ্গানা সহ ৪ রাজ্যে নোটার কাছেও হেরে ভূত সিপিএম

আইএএফ তাদের একটি বিবৃতিতে জানিয়েছে, “বিমানটি সুরাতগড়ের এয়ারফোর্স স্টেশন থেকে একটি নিয়মিত অপারেশনাল ট্রেনিংয়ের জন্য আকাশে উড়েছিল৷ এরপরেই, পাইলট অনবোর্ড জরুরি অবস্থার সম্মুখীন হন। তিনি বিমানটি অবতরণের চেষ্টা করেছিলেন, কিন্তু ব্যর্থ হন। পাইলটকে সুরতগড় ঘাঁটি থেকে প্রায় ২৫ কিলোমিটার উত্তর পূর্ব থেকে উদ্ধার করা হয়।”

indian air force

পূর্ববর্তী IAF ক্র্যাশ

এটাই প্রথম নয় যখন ভারতীয় যুদ্ধ বিমান দুর্ঘটনার কবলে পড়েছে। গত অক্টোবরে মহারাষ্ট্রের পুনেতে একটি গ্রামে যুদ্ধ বিমান ভেঙে পড়ে। এরপর একটি বেসরকারি ফ্লাইট একাডেমির পাইলট এবং বিমানের অপর এক ব্যক্তিকে তড়িঘড়ি হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়।

আরও পড়ুন : মর্মান্তিক! ট্রাকের সাথে সংঘর্ষ রাধিকাপুর এক্সপ্রেসের, বাতিল একাধিক ট্রেন, বিপাকে যাত্রীরা

এছাড়াও জুন মাসেও ভারতীয় বিমান বাহিনীর একটি প্রশিক্ষণরত বিমান ভেঙে পড়ে কর্ণাটকের চামরাজানগর জেলার ভোগপুরা গ্রামে। খোলা মাঠের উপর ভেঙে পড়ায় স্থানীয় নাগরিকদের কোনও ক্ষয়ক্ষতি হয়নি। সেই সাথে জেটটিতে থাকা দুই পাইলটও প্যারাসুট ব্যবহার করে সফলভাবে বের হয়ে যান এবং নিরাপদে অবতরণ করেন বলে জানা যায়।

ওদিকে মে মাসে একটি মিগ -২১ যুদ্ধবিমান ভেঙে কমপক্ষে তিনজন নিহত হয়েছিল। এই বিমানটি ভেঙে পড়ে রাজস্থানের হনুমানগড়ের কাছে।