টাইমলাইনবিনোদন

এমন বোনের প্রয়োজন নেই জীবনে, রঙ্গোলিকে ইনস্টাগ্রামে আনফলো করার কথা ঘোষনা কঙ্গনার!

বাংলাহান্ট ডেস্ক: বলিউডে তারকা বোনেদের জুটির মধ‍্যে অন‍্যতম নাম কঙ্গনা রানাওয়াত (kangana ranawat) এব‌ং রঙ্গোলি চান্দেল (rangoli chandel)। দুই বোনের মধ‍্যে দৃঢ় বন্ধন একরকম নিদর্শন হিসেবেই উপস্থাপিত হয়। কারণ কঙ্গনার যেকোনো সমস‍্যা বা বিতর্কতেই ঢাল হয়ে দাঁড়াতে দেখা যায় রঙ্গোলিকে। এমনকি বোনের জন‍্য বহুবার ইন্ডাস্ট্রির অন‍্য তারকাদের সঙ্গে পাঙ্গা নিতেও দেখা গিয়েছে। সেই অটুট বন্ধুত্বেই কিনা শেষে চিড় ধরল!

হ‍্যাঁ, ঠিকই পড়েছেন। প্রকাশ‍্যেই রঙ্গোলির বিষয়ে অসন্তোষের কথা উল্লেখ করেছেন কঙ্গনা। এমনকি তিনি এও জানিয়েছেন, সোশ‍্যাল মিডিয়ায় রঙ্গোলিকে আনফলো করতে চান তিনি। এমন বোনের কোনো দরকার নেই তাঁর জীবনে। গল্পটা খোলসা করেই বলা যাক। আসলে সমস্তটাই মজার সুরে বলেছেন ‘কুইন’ অভিনেত্রী।


সম্প্রতি আর জে রৌনকের সঙ্গে সাক্ষাৎকারের সময় কঙ্গনাকে প্রশ্ন করা হয়, ইনস্টাগ্রামে কাউকে যদি আনফলো করতে হয় তবে তিনি কাকে করবেন? উত্তরে মজার ছলে অভিনেত্রী উত্তর দেন বোন রঙ্গোলিকে। কঙ্গনার ফোন থেকে শেষবার যে ব‍্যক্তিকে ফোন করা হয়েছিল তাকে আবারো ফোন করার কথা বললে দেখা যায় সেই ব‍্যক্তিও রঙ্গোলি। শর্ত মেনে কঙ্গনা বোনকে ফোন করে বলেন জীবনে আর প্রয়োজন নেই তাঁকে। উত্তরে রঙ্গোলি অবশ‍্য স্পষ্ট করে দেন কঙ্গনা চান বা না চান তিনি থাকবেনই।

সদ‍্য মুক্তি পেয়েছে কঙ্গনা অভিনীত ‘থালাইভি’। দক্ষিণী সুপারস্টার তথা রাজনৈতিক ব‍্যক্তিত্ব জয়ললিতার বায়োপিক এখনো পর্যন্ত মিশ্র প্রতিক্রিয়া পেয়েছে। এ বিষয়ে বলতে গিয়ে বলিউড এবং দক্ষিণী ইন্ডাস্ট্রির তুলনা টানেন কঙ্গনা। তাঁর মতে, বলিউডের এখনো অন‍্য ইন্ডাস্ট্রি থেকে অনেক কিছু শেখা বাকি। দক্ষিণী ইন্ডাস্ট্রিতে সকলের মধ‍্যে একটা একতা রয়েছে। ইন্ডাস্ট্রিকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার আগ্রহ রয়েছে যেটা বলিউডে নেই। এখানে বরং অনেক স্বার্থপর মানসিকতার মানুষ রয়েছে বলে মত অভিনেত্রীর।


দক্ষিণী অভিনেত্রী জয়ললিতা অভিনয়ের কেরিয়ারে যেমন চূড়ান্ত সফলতা পেয়েছিলেন, রাজনৈতিক কেরিয়ারও তাঁর তেমনি উজ্জ্বল ছিল। কঙ্গনার রাজনৈতিক মতামত স্পষ্ট হলেও এই ময়দানে নামতে তিনি আগ্রহী নন। যদিও সোশ‍্যাল মিডিয়ায় নিজস্ব যে রাজনৈতিক মতামত তিনি রাখেন তা যথেষ্ট বিতর্কিত। প্রত‍্যেকবারই সমালোচিত হতে হয় তাঁকে এজন‍্য।

কঙ্গনার কথায়, “একজন অভিনেত্রী হিসেবে আমি যখন দেশের চারপাশে দেখি, দেশ ভাঙার কথা বললে কোনো সমস‍্যা নেই। কিন্তু যদি সেটা জোড়ার কথা বলা হয় তখনি সমস‍্যা।” প্রকাশ‍্যে রাজনৈতিক মতামত দেওয়ার জন‍্য বহুবার ক্ষতির সম্মুখীন হতে হয়েছে কঙ্গনাকে। তিনি জানান, তাঁর একাধিক ব্র‍্যান্ডের সঙ্গে চুক্তি বাতিল হয়ে গিয়েছে। কোটি কোটি টাকার ক্ষতি হয়েছে।

কিন্তু সব ক্ষতি সামলেই আবারো ঘুরে দাঁড়ান কঙ্গনা। সোশ‍্যাল মিডিয়ায় কোনো পোস্টের বিষয়ে পরে অনুশোচনা হয়েছে? অভিনেত্রীর উত্তর, তিনি স্পষ্টবক্তা। তাঁর চিন্তাধারা হয়তো জটিল, অনেক স্তর রয়েছে। কিন্তু তিনি অন‍্যদের মতো দুমুখো নন। যেটা বলেন স্পষ্ট ভাবে বলেন।

Related Articles

Back to top button