গাড়ি ছেড়ে ট্রেনে বসিরহাটের পথে সুকান্ত! সন্দেশখালি নিয়ে হাইকোর্টে শুভেন্দু, তোলপাড় রাজ্যে

বাংলা হান্ট ডেস্ক : অগ্নিগর্ভ সন্দেশখালিতে (Sandeshkhali) যাওয়ার পথে পথে বাধা। যদিও সব বাধা সরিয়ে সন্দেশখালি পৌঁছানোর জন্য প্রস্তুত রাজ্য বিজেপি নেতৃত্ব (BJP)। এবার যাতে সন্দেশখালি পৌঁছানো আরও মসৃণভাবে হয় তার জন্য সোজা আদালতে পৌঁছে গেল বিজেপি নেতৃত্ব। সন্দেশখালির পরিস্থিতি সরেজমিনে খতিয়ে দেখার অনুমতি চাইলেন শুভেন্দু অধিকারী (Suvendu Adhikari), শঙ্কর ঘোষরা (Sankar Ghosh)।

   

সূত্রের খবর, সন্দেশখালি পরিদর্শনের পাশাপাশি বসিরহাটের পুলিশ সুপারের অফিস ঘেরাওয়ের পরিকল্পনা রয়েছে রাজ্য বিজেপির। শোনা যাচ্ছে বিজেপি সভাপতি সুকান্ত মজুমদার (Sukanta Majumder) এই কর্মসূচির নেতৃত্ব দেবেন। সড়কপথে গেলে পুলিশ বাধা সৃষ্টি করতে পারে ভেবে হৃদয়পুর থেকে লোকাল ট্রেন ধরেছেন বিজেপি সভাপতি।

বিজেপি সূত্রে খবর, বসিরহাট থানা ঘেরাও কর্মসূচিতে যোগ দিতে মোট ৩০ জন বিজেপি কর্মী ট্রেনে চেপেছেন। যদিও বসিরহাটের পুলিশ সুপারের অফিস পর্যন্ত পৌঁছানো এতটাও সহজ হবে বলে মনে করছেনা বিশিষ্ট মহল। বিশৃঙ্খলা এড়াতে অফিসের সামনে ৫০০ মিটার এলাকা জুড়ে জারি হয়েছে ১৪৪ ধারা। বসেছে ব্যারিকেড। তৈরি রয়েছে জলকামান, বাহিনীও। সব মিলিয়ে দুর্গের চেহারা নিয়েছে বসিরহাট।

আরও পড়ুন : রাম মন্দিরের আদলে হওয়ার জের, বেলগাছিয়ায় গুঁড়িয়ে দেওয়া হল বাচ্চাদের সরস্বতী প্যান্ডেল! উত্তপ্ত এলাকা

এইদিন ট্রেনে উঠে নিত্যযাত্রীদের সাথে কথাও বললেন সুকান্ত মজুমদার। অন্যদিকে সন্দেশখালির মহিলাদের সাথে হওয়া অন্যায়ের বিচার চেয়ে দিকে দিকে পুলিশ সুপারের অফিসে অভিযান শুরু করে বাম কর্মীরা। এইদিন দক্ষিণ ২৪ পরগনার বারুইপুরের এসপি অফিস এবং এসডিও অফিসের সামনেও বিক্ষোভ দেখান বাম কর্মী, সমর্থকেরা।

আরও পড়ুন : বৃষ্টি-বজ্রপাতের সঙ্গে ভয়ঙ্কর দমকা হাওয়া, সরস্বতী পুজোয় ভাসবে দক্ষিণবঙ্গ! IMD-র ভয়ঙ্কর রিপোর্ট

1696324583 suvendu adhikari

অন্যদিকে এই ঘটনার মূল অভিযুক্ত উত্তম সর্দারকে বসিরহাট আদালতে তোলা হয়েছে এইদিন। সাথে বিজেপি নেতা বিকাশ সিংহকেও কোর্টে তোলা হয়েছে। ঘটনা প্রসঙ্গে বলতে গিয়ে বিজেপি নেতা বিকাশ বলেন, ‘‘সন্দেশখালিকে বাঁচান, সন্দেশখালির মহিলাদের বাঁচান, আমাকে আবার ফাঁসানো হয়েছে।’’ একই সাথে সন্দেশখালিতে পৌঁছে গেছেন জাতীয় মহিলা কমিশনের প্রতিনিধিরাও। সেখানে গ্রামে ঘুরে ঘুরে মহিলাদের সঙ্গে কথা বলছেন কমিশনের দুই প্রতিনিধি।