টাইমলাইনবিনোদনছবি

আদরের ‘পুচু’, নতুন সদস‍্যের অপেক্ষায় মধুবনী-রাজা, ফের বেবি বাম্প নিয়ে ভাইরাল অভিনেত্রী

বাংলাহান্ট ডেস্ক: বেশ কয়েকদিন রাখঢাক গুঞ্জনের পর শেষমেষ মা হতে চলার সুখবর জানান টেলিভিশনের জনপ্রিয় অভিনেত্রী মধুবনী গোস্বামী (madhubani goswami)। রাজা ও মধুবনীর সুখের সংসারে এখন আরেক সদস‍্যের যোগদান করার অপেক্ষা মাত্র। ফের একবার বেবি বাম্প নিয়ে সোশ‍্যাল মিডিয়ায় ছবি শেয়ার করলেন অভিনেত্রী।

গোলাপি ফ্লোরাল গাউন পরে হাসি মুখে ক‍্যামেরাবন্দি হয়েছেন মধুবনী। এক হাত দিয়ে রেখেছেন বেবি বাম্পে। আদরের ভাবী সন্তানের জন‍্য মিষ্টি ডাক দিয়ে ক‍্যাপশনে তিনি লিখেছেন, ‘পুচু.. জয় মা.. তোমায় অশেষ ধন‍্যবাদ। আশীর্বাদের জন‍্য আমার ধন‍্যবাদ দেওয়ার শেষ নেই।’

IMG 20201204 160535 Bangla Hunt Bengali News
এর আগে স্বামী রাজা গোস্বামীকে পাশে নিয়ে প্রথম বেবি বাম্প নিয়ে প্রকাশ‍্যে আসেন অভিনেত্রী। দুজনেরই চোখে মুখে উপচে পড়ছে খুশি ও আনন্দ। ছবিটি পোস্ট করে ক‍্যাপশনে মধুবনী লেখেন, ‘জীবনের এক নতুন অধ‍্যায় আরম্ভ হতে চলেছে। আশীর্বাদ করবেন সকলে। সবাই ভালো থাকবেন, সুস্থ থাকবেন।’

প্রসঙ্গত, মধুবনীর পরপর কয়েকটি পোস্ট দেখেই গুঞ্জন শুরু হয় নেটপাড়ায়। সেই সঙ্গে ক‍্যাপশন দেখেই অনুরাগীরা বুঝে যান খুব শিগগিরিই নতুন সদস‍্য আসতে চলেছে গোস্বামী পরিবারে। তুঙ্গে ওঠে জল্পনা। এই যেমন পার্বতীর কোলে ছোট্ট গণেশের একটি ছবি শেয়ার করে মধুবনী লেখেন, ‘দেখা হবে শুভক্ষণে’। সেই সঙ্গে একটি বাচ্চার ইমোজি। তারপ‍র ছোট্ট গোপাল মূর্তির একটি ছবিও পোস্ট করেন অভিনেত্রী। ক‍্যাপশনে লেখেন, ‘রাধারানীকে আমার কাছে পাঠাও আর নয় তো তুমি এসো। যা খুশি। তোমাকে ভালবাসি।’

বাদ যায়নি নিজেদের ছবিও। স্বামীর সঙ্গে একটি সেলফি তুলে পোস্ট করেন মধুবনী। জানান, তাঁরা দুজনেই আরো একবার প্রেমে পড়তে চলেছেন। তবে এবার একে অপরের সঙ্গে নয়। নিজেদের বিয়ের একটি পুরনো ছবিও শেয়ার করে মধুবনী জানান, ভেবেছিলেন এই বছর থেকে করওয়া চৌথ পালন করবেন। কিন্তু খুব বিশেষ একটি কারণের জন‍্য করতে পারছেন না। তবে সামনের বছরের থেকে করবেন।

ব‍্যাস, এতেই দুয়ে দুয়ে চার করে নেন অনুরাগীরা। অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার কারণেই সারাদিন উপোস থাকতে পারবেন না মধুবনী। তাই এই বছরের পরিকল্পনা বাতিল। শুভেচ্ছার ঢল নামে জুটির সোশ‍্যাল মিডিয়া হ‍্যান্ডেলে। মধুবনী ও রাজার সহ অভিনেতা অভিনেত্রীরা শুভেচ্ছায় ভরিয়ে দেন জুটিকে।

Back to top button