শেষরক্ষা হলো না! মূলত কার্লসেনের অভিজ্ঞতার কাছেই হেরে বিশ্ব বিজয়ী হওয়ার সুযোগ খোয়ালেন প্রজ্ঞানানন্দ

বাংলা হান্ট নিউজ ডেস্কঃ গত দুই দিনে তার হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ের পর আজ প্রজ্ঞানানন্দকে (Praggnanandhaa) নিয়ে স্বপ্ন দেখছিল গোটা ভারতের দাবাপ্রেমীরা। দক্ষিণ ভারতের ১৮ বছরের বয়স্ক বিস্ময় বালক বলে কিছুদিন আগেও পরিচিতি পাওয়া দাবাড়ুর হাত ধরে সাদা কালো ছকে ছয় দশকেরও বেশি সময় ধরে না পাওয়া শ্রেষ্ঠত্ব ফের একবার অর্জন করবে ১৫০ কোটির দেশ, এমনটাই, প্রার্থনা ছিল বৃহস্পতিবারের শুরু থেকে ক্রীড়াপ্রেমীদের মনে।

কিন্তু সেই স্বপ্ন শেষপর্যন্ত পূর্ণ হল না। ফাইনালে মূলত নিজের অনভিজ্ঞতার কারণেই হেরে গেলেন ভারতের দাবাড়ু। কঠিন অবস্থায় পরে গেলেও ভারতীয় তারকাকে হারিয়ে ষষ্ঠবারের জন্য বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন হলেন ম্যাগনাস কার্লসেন (Magnus Carlsen)। মূলত নরওয়ের তারকার অভিজ্ঞতাই হার মানতে বাধ্য করলো চেন্নাইয়ের তরুণ গ্র্যান্ডমাস্টারকে।

Praggnanandhaa Carlse

তরুণ প্রজ্ঞানানন্দের লড়াকু প্রয়াসকে এই মুহূর্তে কুর্নিশ জানাচ্ছে দাবার দুনিয়া সহ অন্যান্য জগতের আগ্রহী মহলও। ফাইনালে প্রথম র‍্যাপিড গেমে তিনি হারলেও বেশ কিছুক্ষণ চাপে রেখেছিলেন অভিজ্ঞ কার্লসেনকে। কিন্তু গেমের একদম শেষ পর্বে প্রজ্ঞাননন্দকে টেক্কা দেন কার্লসেন। এরপর দ্বিতীয় ব়্যাপিড গেমে জয় ছাড়া কোনও উপায় ছিল না তার সামনে। কিন্তু সেই গেমটি ড্র হয় এবং বিজয়ীর মুকুট উঠে যায় কার্লসেনের মাথায়।

আরও পড়ুন: মারা যাননি কিংবদন্তি হিথ স্ট্রিক! থার্ড আম্পায়ারের সিদ্ধান্তে যেন জীবন ফিরে পেলেন প্রাক্তন KKR কোচ

ফাইনালটি হারতে হলেও দক্ষিণ ভারতের তরুণ দাবাড়ুকে অভিনন্দন জানিয়েছেন বিশ্ব দাবার নিয়ামক সংস্থা ফিডে (FIDE)। সোশ্যাল মিডিয়ায় তাকে অভিনন্দন জানিয়ে লেখা হয়েছে, ‘২০২৩ দাবা বিশ্বকাপে রানার্স আপ হয়েছেন প্রজ্ঞাননন্দ। ভারতের ১৮ বছরের দাবাড়ুর অসাধারণ পারফরমেন্সের জন্য তাকে অভিনন্দন। তিনি ফাইনালে ওঠার রাস্তায় বিশ্বের দু’নম্বর হিকারু নাকামুরা ও বিশ্বের তিন নম্বর ফাবিয়ানো কারুয়ানাকে হারিয়েছেন। রুপো জিতে উনি ফিডে ক্যান্ডিডেটসের যোগ্যতাও অর্জন করে ফেলেছেন।’

Avatar
Reetabrata Deb

সম্পর্কিত খবর